Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : মঙ্গলবার, ১০ অক্টোবর, ২০১৭ ০০:০০ টা
আপলোড : ৯ অক্টোবর, ২০১৭ ২৩:২৭

বিসিবি বনাম মুশফিক!

ক্রীড়া প্রতিবেদক

বিসিবি বনাম মুশফিক!

 

 

‘দক্ষিণ আফ্রিকায় এবার মাইলফলক সৃষ্টি করবে বাংলাদেশ!’ —যাওয়ার আগে বলেছিলেন অধিনায়ক মুশফিকুর রহিম। টাইগার দলপতিকে খুবই উজ্জীবিত মনে হয়েছিল। কিন্তু এখন? সবচেয়ে অসহায় মুশফিকুর! তার অধিনায়কত্ব থাকবে কিনা তা নিয়েও সংশয়!

সাফল্যের কথা চিন্তা করলে মুশফিকুর রহিম যে বাংলাদেশের সেরা টেস্ট অধিনায়ক, এ বিষয়ে কারও দ্বিধা থাকার কথা নয়! ঘরের মাঠে সব শেষ ইংল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়ার দলকে হারিয়েছে মুশফিকের নেতৃত্বে। শ্রীলঙ্কার মাটিতে টাইগাররা ১০০তম টেস্ট জিতেছিল। সাম্প্রতিক নিউজিল্যান্ড সফরেও লড়াই করেছে বাংলাদেশ। কিন্তু দক্ষিণ আফ্রিকাতে যাওয়ার পরই কিনা দলটা ছন্ন ছাড়া হয়ে গেছে।

বেরিয়ে আসছে একের পর এক নেপথ্যের কাহিনী। মুশফিক সংবাদ সম্মেলনে বলেছিলেন, ‘কোচরা চেয়েছেন বাইরে ফিল্ডিং করি। টিম ম্যানেজমেন্টে যেটা বলবে সেটাই তো করতে হবে।’ মাঠে কি করতে হবে সে সিদ্ধান্ত যদি টিম ম্যানেজমেন্ট দিয়ে দেয়, এমন নজির ক্রিকেটের ইতিহাসে আছে কিনা! যদি টিম ম্যানেজমেন্টই মাঠের সিদ্ধান্ত নেবে তাহলে আর অধিনায়কের দরকার কি? গতকাল ক্রিকেট বোর্ডের সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন বললেন ভিন্ন কথা। তিনি জানালেন, ‘সে কোথায় ফিল্ডিং করবে, সে সিদ্ধান্ত টিম ম্যানেজমেন্টের ছিল না। সিদ্ধান্তটি ছিল তার ব্যক্তিগত। কেউ চাপিয়ে দেয়নি।’

গতকাল মিডিয়ার সামনে মুশফিকের মন্তব্যের কঠোর প্রতিক্রিয়া দেখিয়েছেন নাজমুল হাসান। তিনি বলেন, ‘ও যেসব মন্তব্য করছে, সেটা দেশের ক্রিকেটের ভাবমূর্তি নষ্ট করছে। টস নিয়ে কোনো অধিনায়ক সংবাদ মাধ্যমে এ ধরনের কথা বলতে পারে না। এটা দলের জন্য ভালো হচ্ছে না।’ মুশফিকের নেতৃত্ব নিয়েও প্রশ্ন তোলেন নাজমুল, ‘একটা কথা বলে রাখি, সমস্যাটা মুশফিকের। মাশরাফি অধিনায়কত্ব করে না? ও কখনো এমন সমস্যায় পড়েনি। সাকিব কখনো এমন সমস্যায় পড়েনি। সাকিব কখনো এমন সমস্যায় পড়বে না, লিখে দিতে পারি।’

পরিস্থিতি এমন হয়ে গেছে যেন মুশফিকের প্রতিপক্ষ হয়ে গেছে বিসিবি। এরপরও বোর্ড সভাপতি জানিয়েছেন, মুশফিককে অধিনায়কত্ব থেকে সরিয়ে দেওয়ার কথা তারা ভাবছেন না। তিনি বলেন, ‘তাকে সরিয়ে দেওয়ার কোনো সিদ্ধান্ত এখনো হয়নি।’

মুশফিকও পরিষ্কার জানিয়ে দিয়েছেন, নিজ থেকে তিনি নেতৃত্ব ছাড়বেন না। তাকে যদি সরাতে হয় তবে বোর্ডই সরিয়ে দিক!

দক্ষিণ আফ্রিকায় খেলা যেকোনো দলের জন্যই কঠিন। সেখানে বাংলাদেশ দলও বিপদে পড়তে পারে সেটা জানাই ছিল। কিন্তু তাই দুই ম্যাচেই বাংলাদেশ এমন বাজে খেলবে তা কেউ কল্পনাও করেনি। তা ছাড়া দুই ম্যাচেই টস জিতে প্রথম ফিল্ডিং নিয়েছে বাংলাদেশ। দুই ম্যাচে টস জয়ের পর ভুল সিদ্ধান্তই সফরকারীদের অনেকটা পিছিয়ে দিয়েছিল।

টস জয়ের পর মাঠে দ্রুত সিদ্ধান্ত জানাতে হয় অধিনায়ককেই। কিন্তু এই সিদ্ধান্তের পেছনের কারিগর হচ্ছে— টিম ম্যানেজমেন্ট! অধিনায়ক মাঠে কেবল টিম ম্যানেজমেন্টের সিদ্ধান্তটা জানিয়ে দেন। অথচ সিদ্ধান্তটি ভুল হলে তার দায়টা নিতে হয় অধিনায়ককেই। তাই সংবাদ সম্মেলনে অনেকটা হতাশা থেকেই মুশফিক বলেছিলেন— ‘টস জয়টা যেন ভুলই হয়ে গেছে।’ মুশফিকের এমন মন্তব্যে খুশি হতে পারেনি বিসিবি। তাই সংবাদ সম্মেলনে মুশফিক সম্পর্কে কড়া ভাষায় কথা বলেন নাজমুল হাসান।

 


আপনার মন্তব্য