শিরোনাম
প্রকাশ : ১৫ এপ্রিল, ২০২১ ০৮:৩০
প্রিন্ট করুন printer

চ্যাম্পিয়ন্স লিগ: কোয়ার্টারে বিদায়ের বৃত্ত ভেঙে সেমিফাইনালে ম্যান সিটি

অনলাইন ডেস্ক


চ্যাম্পিয়ন্স লিগ: কোয়ার্টারে বিদায়ের বৃত্ত ভেঙে সেমিফাইনালে ম্যান সিটি
সংগৃহীত ছবি

পেপ গার্দিওয়ালার কোচিংয়ে প্রথমবার চ্যাম্পিয়ন্স লিগের শেষ চারে পৌঁছাল ম্যানচেস্টার সিটি। কোয়ার্টার ফাইনালে দুই লেগেই বরুশিয়া ডর্টমুন্ডকে হারিয়ে তিন মৌসুম পর ফের সেমিফাইনালে জায়গা করে নিল ইংলিশ ক্লাব।

গতকাল বুধবার (১৪ এপ্রিল) রাতে ডর্টমুন্ডের সিগনাল ইদুনা পার্কে কোয়ার্টার-ফাইনালের দ্বিতীয় লেগে ২-১ গোলে জেতে ম্যান সিটি। প্রথম পর্বে ঘরের মাঠে একই ব্যবধানে জিতেছিল গার্দিওয়ালার দল। ফলে দুই লেগ মিলিয়ে ৪-২ গোলের ব্যবধানে এগিয়ে থেকে হাসতে হাসতে চ্যাম্পিয়ন্স লিগের সেমিফাইনালে পৌঁছল ম্যান সিটি। গত তিন মৌসুম শেষ আট থেকেই বিদায় নিয়েছিল ইংলিশ প্রিমিয়র লিগের দলটি। ফাইনালে ওঠার দৌড়ে পিএসজির বিরুদ্ধে লড়াইয়ে নামবে ম্যান সিটি।

ম্যানচেস্টার সিটির সেমিফাইনালে ওঠার পিছনে বড় ভূমিকা নেন ফিল ফোডেন। দুই লেগেই ডর্টমুন্ডের জালে বল জড়ান তরুণ এই ইলিংশ ফরোয়ার্ড। ঘরের মাঠে প্রথম লেগেও তার গোলে জিতেছিল ম্যান সিটি। এদিনও অ্যাওয়ে ম্যাচে শেষ মুহূর্তে তার গোলে ম্যাচ জিতে নেয় গার্দিওয়ালার দল। স্বাভাবিকভাবে দল সেমিফাইনালে তোলার পিছনে অবদান রাখা ফোডেনের প্রশংসা শোনা গেল কোচ গার্দিওয়ার গলায়।

অ্যাওয়ে ম্যাচে গোলের সুবিধা থাকায় এদিন ঘরের মাঠে ১-০ গোলে জিতলেই শেষ চারের টিকিট হাতে পেত ডর্টমুন্ড। ম্যাচের শুরুতে জুড বেলিংহ্যামের গোলে এগিয়ে গিয়ে আশা জাগিয়েছিল জার্মান ক্লাবটি। কিন্তু শেষরক্ষা হয়নি। প্রথমার্ধে ১-০ এগিয়ে থাকলেও দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতে পেনাল্টি থেকে গোল গোল করে ম্যানচেস্টার সিটিকে সমতায় ফেরান রিয়াদ মাহরেজ। সমতা টানার পর সফরকারীদের জয়সূচক গোলটি করেন ফোডেন।

ম্যাচের ১৫ মিনিটে ম্যাচের প্রথম আক্রমণে এগিয়ে যায় ডর্টমুন্ড। ডি-বক্সে আর্লিং হলান্ডের পাস একজনের পায়ে লেগে বেলিংহ্যামের সামনে। দারুণভাবে নিয়ন্ত্রণে নিয়ে ইংল্যান্ডের জাতীয় দলের এই মিড-ফিল্ডার ডান পায়ের জোরাল শট ম্যান সিটির গোলরক্ষক এদেরসনকে পরাস্ত করে। ৫৫ মিনিটে স্পট-কিক থেকে ম্যান সিটিকে সমতা ফেরান মাহরেজ। ১৪ ম্যাচ পর চ্যাম্পিয়ন্স লিগে গোলের দেখা পেলেন আলজেরিয়ার মিড-ফিল্ডার। ৭৪ মিনিটে অনেকটা দূর থেকে ডি ব্রুইনের নেওয়া শট ঠেকান গোলরক্ষক। কিন্তু পরের মিনিটে ফোডেনের গোলে শেষ হাসি হাসে ম্যান সিটি। ডি-বক্সের বাইরে থেকে তার শট পোস্টের ভেতরের দিকে লেগে জালে জড়িয়ে যায়।


বিডি-প্রতিদিন/আব্দুল্লাহ 

এই বিভাগের আরও খবর