২৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ ০৯:২২

পান্তকে এখনই পুরোনো রূপে পাওয়া নিয়ে সংশয়

অনলাইন ডেস্ক

পান্তকে এখনই পুরোনো রূপে পাওয়া নিয়ে সংশয়

রিশাভ পান্ত।

ভয়াবহ সড়ক দুর্ঘটনা ভারতের উইকেট-কিপার ব্যাটার রিশাভ পান্তের জীবন থেকে কেড়ে নিয়েছে লম্বা একটা সময়। দুঃসহ সেই স্মৃতি, কঠিন ওই সময় পেছনে ফেলে ভারতের এই কিপার-ব্যাটার আইপিএল দিয়ে ফিরতে যাচ্ছেন প্রতিযোগিতামূলক ক্রিকেটে। তার ফেরার খবরে খুশি সুনিল গাভাস্কার। তবে পান্তকে চেনা ছন্দে এখনই দেখতে পাওয়া যাবে কিনা, সেটি নিয়ে সংশয় প্রকাশ করেছেন ভারতের এই ব্যাটিং গ্রেট। 

২০২২ সালের ৩০ ডিসেম্বর ওই দুর্ঘটনায় কোনোরকমে প্রাণে বেঁচে যান পান্ত। তার ডান হাঁটুর মূল তিনটি লিগামেন্ট ছিঁড়ে যায়। এছাড়াও কবজি, অ্যাঙ্কেল, পায়ের অগ্রভাগসহ চোট পান নানা জায়গায়। আঘাত পান পিঠে ও মাথায়। কয়েক দফায় অস্ত্রোপচারের পর দীর্ঘ পুনর্বাসন প্রক্রিয়া চলেছে তার।  বেশ কিছু দিন হয়েছে অনুশীলনে ফিরেছেন পান্ত। এখন কিপিং করছেন ও ক্ষিপ্রতার কিছু ড্রিলও করছেন তিনি। বেঙ্গালুরুতে ভারতের জাতীয় ক্রিকেট একাডেমিতে প্রস্তুতি ম্যাচও খেলেছেন পান্ত, অস্বস্তি ছাড়াই করেছেন ব্যাটিং ও ফিল্ডিং। 

পান্তের আইপিএল দিয়ে মাঠে ফেরার কথা কদিন আগে নিশ্চিত করেন তার দল দিল্লি ক্যাপিটালসের সহ-সত্বাধিকারী পার্থ জিন্দাল। টুর্নামেন্টের শুরু থেকেই অধিনায়ককে পাওয়ার আশায় আছে ফ্র্যাঞ্চাইজিটি। তবে প্রথম দিকে কেবল ব্যাটসম্যান হিসেবে খেলতে পারেন তিনি। 

স্টার স্পোর্টসের সঙ্গে আলাপচারিতায় গাভাস্কার বলেন, এক বছরের বেশি সময় পর প্রতিযোগিতামূলক ক্রিকেটে ফিরেই নিজের সেরাটা দেওয়া কঠিন পান্তের জন্য। তাই পুরোনো পান্তকে শুরু থেকে দেখতে পাওয়ার আশা করছেন না তিনি। 
গাভাস্কার বলেন, ব্যাটিংয়ের পাশাপাশি কিপিং করার ক্ষেত্রেও হাঁটু গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে-কিপিং অবশ্যই সে শুরুতে নাও করতে পারে। আমরা যেমন দেখতে অভ্যস্ত সম্ভবত ওইরকম রিশাভ পান্তকে পাওয়া যাবে না।

তিনি আরও বলেন, আমি নিজেও তার অনেক বড় ভক্ত। আমার কাছে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ হলো, সে যেন আগের মতোই সুস্থ থাকে, যাতে আমাদের বিনোদন দিতে পারে। তার জন্য এটা (এখনই নিজের সেরাটা দেওয়া) খুব কঠিন হবে আর তার সেই ব্যাটিংয়ের সাবলীলতা পেতে কিছুটা সময় লাগবে। তবে ভালো লাগছে যে, সে অনুশীলন শুরু করেছে।

প্রতিযোগিতামূলক ক্রিকেটে অধিনায়ক হিসেবে ফিরছেন পান্ত। আইপিএলের শুরু থেকেই দিল্লির নেতৃত্ব দেবেন তিনি। শরীরের অবস্থা বুঝে তার কিপিং করা নিয়ে নেওয়ার হবে সিদ্ধান্ত। তবে বড় একটা ধাক্কা কাটিয়ে ফেরা একজনের কাঁধে এখনই এত দায়িত্ব দেওয়া উচিত হবে বলে মনে করছেন না গাভাস্কার। 

তিনি জানান, সে যদি পুরোপুরি ফিট হয়ে যায়, তাহলে দিল্লি ক্যাপিটালসের অধিনায়কত্বের দায়িত্ব তার হাতেই তুলে দেওয়া উচিত। আশা নিয়ে থাকি। এই মৌসুমে তার প্রথম কাজ হচ্ছে পূর্ণ ফিটনেসে ফিরে আসা। তাড়াহুড়া করে তাকে দিয়ে এমন কিছু করানো উচিত হবে না, যার ফলে হিতে বিপরীত হয়।” 

আগামী ২২ মার্চ শুরু হবে এবারের আইপিএল। পরদিন মোহালিতে দিল্লি নিজেদের প্রথম ম্যাচ খেলবে পাঞ্জাব কিংসের বিপক্ষে।


বিডি-প্রতিদিন/আব্দুল্লাহ

এই রকম আরও টপিক

সর্বশেষ খবর