শিরোনাম
প্রকাশ : মঙ্গলবার, ১৫ জানুয়ারি, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৪ জানুয়ারি, ২০১৯ ২৩:১৪

কেউ মানে না জেব্রা ক্রসিং

নিজস্ব প্রতিবেদক

কেউ মানে না জেব্রা ক্রসিং

রাজধানীতে সড়ক পরিবহনের নৈরাজ্য রোধে জেব্রা ক্রসিংই হতে পারে অন্যতম সমাধান। জ্রেবা ক্রসিং মেনে যানবাহন ও পথচারী পারাপারে রাজধানীর ক্রমবর্ধমান যানজটের ভোগান্তি লাঘব হতে পারে। মুক্তি মিলতে পারে নজিরবিহীন দুর্ভোগ থেকে।  

জেব্রা ক্রসিংয়ের কাছে পথচারী এসে দাঁড়ালেই চলমান গাড়ি থেমে যায়। চালক দূর থেকেই লক্ষ রাখে পথচারীর গতিবিধি। পথচারী রাস্তা পার হতে পারেন এই ভেবে চালক আগে থেকেই গাড়ি থামিয়ে অপেক্ষায় থাকেন। এই বিরল দৃশ্য দেখা যায় প্রশান্তির দেশ ভুটানের রাস্তায়। দেশটিতে ট্রাফিক সিগন্যাল ছাড়া শুধু জেব্রা ক্রসিংয়ের ওপর ভর করে চলছে পুরো পরিবহন ব্যবস্থা। আমাদের মতো কেউ ব্যস্ত রাস্তায় দৌড় দেয় না। চালকদেরও আগে যাওয়ার কোনো তাড়া নেই।

প্রায় দেড় কোটি মানুষের এই রাজধানীতে অফিস এবং স্কুল শুরু ও শেষের সময় রাস্তায় গিজ গিজ করে মানুষ। এই মানুষই এদেশের সবচেয়ে বড় সম্পদ। অথচ তারাই যখন বিশৃঙ্খলভাবে রাস্তায় চলাচল করেন তখন মনে হয় বেশি মানুষই সমস্যার মূলে। একসঙ্গে অনেক মানুষ যখন ফুটপাত, ফুটওভারব্রিজ রেখে রাস্তা দিয়ে এলোমেলোভাবে হাঁটে তখন সড়ক নিরাপত্তা মারাত্মক ঝুঁকির মধ্যে থাকে। শিক্ষার্থীদের সাম্প্রতিক নিরাপদ সড়ক আন্দোলনের পর রাজধানীর রাজপথে জেব্রা ক্রসিংগুলো নতুন করে রঙ করা হয়েছে। অনেক জায়গায় স্কাউটরা পথচারীদের জেব্রা ক্রসিং ব্যবহারের অনুরোধ জানাচ্ছে। দীর্ঘ অনভ্যস্থতায় পথচারীরা অবশ্য ভুলেই গেছেন এর সঠিক ব্যবহার। যানবাহনের ফাঁকে ফাঁকে ঝুঁকি নিয়েই সড়ক পার হন তারা। অন্যদিকে ড্রাইভাররাও জেব্রা ক্রসিংয়ে গাড়ি থামাতে চান না। তারা পথচারী পার হচ্ছেন দেখেও দ্রুতগতিতে গাড়ি চালিয়ে যেতে চান। এটি একটি বিপজ্জনক প্রবণতা। আবার বেশির ভাগ জায়গায় সিগন্যালের জেব্রা ক্রসিংয়ে গাড়ি দাঁড়িয়ে থাকতে দেখা যায়। এমন হলে মানুষ রাস্তা পার হবে কীভাবে? পথচারীদের নিরাপদে সড়ক পার হওয়ার জন্য সাদা দাগ কেটে জেব্রা ক্রসিং তৈরি করা হয়। রাজধানীর বিভিন্ন সিগন্যাল এলাকা এবং অন্য যেসব জায়গায় জেব্রা ক্রসিং রয়েছে সেগুলোর সঠিক ব্যবহার হলে সড়কের বিশৃঙ্খলা রোধ করা সম্ভব।

 


আপনার মন্তব্য