Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : ২৬ এপ্রিল, ২০১৯ ২২:০০

অস্বাস্থ্যকর খাবার

ঢাবির মুহসীন হলের ক্যান্টিনে তালা, ছাত্রদের বিক্ষোভ

বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক

ঢাবির মুহসীন হলের ক্যান্টিনে তালা, ছাত্রদের বিক্ষোভ

অস্বাস্থ্যকর খাবার পরিবেশনের অভিযোগে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের হাজী মুহম্মদ মুহসীন হল ক্যান্টিনে তালা লাগিয়ে বিক্ষোভ করেছে শিক্ষার্থীরা। পরে হল প্রাধ্যক্ষ এক সপ্তাহের মধ্যে ক্যান্টিনের মালিকানা পরিবর্তনের আশ্বাসে বিক্ষোভ তুলে নেওয়া হয়েছে। শুক্রবার দুপুরে এই ঘটনা ঘটে।

হলের শিক্ষার্থীরা জানান, দীর্ঘদিন যাবৎ বিশ্ববিদ্যালয়ের অন্যান্য হলের তুলনায় মুহসীন হলে অস্বাস্থ্যকর ও মানহীন খাবার পরিবেশন করা হয়। হলের শিক্ষার্থীরা বিষয়টি নিয়ে হল প্রাধ্যক্ষ অধ্যাপক নিজামুল হক ভুঁইয়ার কাছে একাধিকবার অভিযোগ জানালেও তিনি কোনো ব্যবস্থা নেননি। সর্বশেষ গতকাল বৃহস্পতিবার ক্যান্টিনের খাবার খেয়ে এক ছাত্র অসুস্থ হলে শিক্ষার্থীদের মধ্যে ক্ষোভের জন্ম হয়। শুক্রবার বেলা ১২টার দিকে শিক্ষার্থীরা একত্র হয়ে ক্যান্টিনে তালা লাগিয়ে দেন।

পরে সেখানে হল প্রাধ্যক্ষ ও হল শাখা ছাত্রলীগের নেতারা এসে বিভিন্ন আশ্বাস দিতে থাকেন। কিন্তু শিক্ষার্থীরা তা প্রত্যাখান করেন। শিক্ষার্থীরা ক্যান্টিন মালিক পরিবর্তনের দাবি জানান। পরে হল প্রাধ্যক্ষ আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে টেন্ডার দিয়ে মালিক পরিবর্তনের আশ্বাস দেন। এই আশ্বাসের পরিপ্রেক্ষিতে আগামী সাতদিনের জন্য ক্যান্টিন খোলা রাখার বিষয়ে শিক্ষার্থীরা সম্মত হন।

এ বিষয়ে মুহসীন হল সংসদের সহ-সভাপতি (ভিপি) শহিদুল হক শিশির ‘বাংলাদেশ প্রতিদিনকে বলেন, দীর্ঘদিন যাবত হলের শিক্ষার্থীরা খাবারের মান নিয়ে অভিযোগ করে আসছে। আজ তারা ক্ষুব্ধ হয়ে হল ক্যান্টিনে তালা লাগিয়ে দেয়। পরে প্রভোস্ট স্যার মালিকানা পরিবর্তনের আশ্বাস দিলে তারা ক্যান্টিন খুলে দেয়।

এ বিষয়ে হলের প্রাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড. নিজামুল হক ভূঁইয়া বলেন, বারের মান বৃদ্ধিসহ আরও কিছু দাবিতে শিক্ষার্থীরা ক্যান্টিনে তালা লাগিয়েছিল। আমি সাতদিনের মধ্যে ক্যান্টিন ম্যানেজার পরিবর্তনের কথা বলেছি। এই সাত দিন ক্যান্টিনের পাশাপাশি হলের দোকানে খাবার বিক্রির অনুমতি দেওয়া হয়েছে। 

বিডি প্রতিদিন/ফারজানা


আপনার মন্তব্য