শিরোনাম
প্রকাশ : ৩ ডিসেম্বর, ২০২০ ১৯:৫১
প্রিন্ট করুন printer

সিলেটে পাথর কোয়ারি খুলে দিতে ৭২ ঘণ্টার আল্টিমেটাম

নিজস্ব প্রতিবেদক, সিলেট

সিলেটে পাথর কোয়ারি খুলে দিতে ৭২ ঘণ্টার আল্টিমেটাম

সিলেটে দীর্ঘদিন ধরে বন্ধ থাকা পাথর কোয়ারি ৭২ ঘণ্টার মধ্যে খুলে দিতে আল্টিমেটাম দিয়েছে পাথর সংশ্লিষ্ট ব্যবসায়ী-শ্রমিক ঐক্য পরিষদের নেতা-কর্মীরা। আজ বৃহস্পতিবার তারা সিলেটের কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারের সামনে বিশাল মানববন্ধন করে এই আল্টিমেটাম ঘোষণা করেন।

এ সময়ের মধ্যে পাথর কোয়ারির বিষয়ে ইতিবাচক সিদ্ধান্ত না এলে কঠোর কর্মসূচির হুঁশিয়ারি দিয়েছেন তারা।
জানা গেছে, অবৈধ বোমা মেশিন দিয়ে সিলেটের জাফলং ও ভোলাগঞ্জ পাথর কোয়ারি থেকে পাথর উত্তোলন করা হয়। এতে পরিবেশের ক্ষতি হয় বলে দাবি সংশ্লিষ্টদের।

পরিবেশের ধ্বংস ঠেকাতে গেল প্রায় এক বছর ধরে কোয়ারি থেকে পাথর উত্তোলন বন্ধ করে দিয়েছে প্রশাসন। ফলে হাজার হাজার পাথর শ্রমিক এখন চরম বিপাকে দিনযাপন করছেন। পাথর উত্তোলনের কাজেই পুরো পরিবার নির্ভরশীল হওয়ায় শ্রমিকদের মধ্যে এখন হাহাকার চলছে। অন্যদিকে যারা পাথরের ব্যবসা করেন, তারাও ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছেন। এরই প্রেক্ষিতে পাথর সংশ্লিষ্ট ব্যবসায়ী-শ্রমিকরা আন্দোলনে নামছেন।

বৃহস্পতিবার বৃহত্তর সিলেট পাথর সংশ্লিষ্ট ব্যবসায়ী-শ্রমিক ঐক্য পরিষদের আহবায়ক আব্দুল জলিলের সভাপতিত্বে মানববন্ধন ও সংক্ষিপ্ত সমাবেশে বক্তব্য রাখেন সিলেট বিভাগীয় ট্রাক মালিক ঐক্য পরিষদ ও সিলেট জেলা ট্রাক মালিক গ্রুপের সভাপতি গোলাম হাদী ছয়ফুল, জেলা ট্রাক শ্রমিক ইউনিয়নের ইউনিয়নের সভাপতি আবু সরকার, ছাতক পাথর ব্যবসায়ী সমিতির সাবেক সাধারণ সম্পাদক আব্দুল হাই আজাদ, এয়ারপোর্ট স্টোন ক্রাশার মালিক সমিতির সভাপতি নাসির উদ্দিন, জাফলং স্টোন ক্রাশার মালিক সমিতির সভাপতি বাবলু বখত, সাধারণ সম্পাদক ইলিয়াস উদ্দিন লিপু, কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা পাথর ব্যবসায়ী সমিতির সাধারণ সম্পাদক আবুল হোসেন প্রমুখ।

মানববন্ধন শেষে মিছিল সহকারে জেলা প্রশাসকের কাছে ৭২ ঘণ্টার আল্টিমেটাম সম্বলিত স্মারকলিপি প্রদান করা হয়।

বিডি প্রতিদিন/আবু জাফর


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর