শিরোনাম
প্রকাশ : ৭ এপ্রিল, ২০২১ ২২:১৪
প্রিন্ট করুন printer

ভাষা সৈনিক মনোয়ারা রহমানের ১২তম মৃত্যুবার্ষিকী বৃহস্পতিবার

নিজস্ব প্রতিবেদক, রাজশাহী:

ভাষা সৈনিক মনোয়ারা রহমানের ১২তম মৃত্যুবার্ষিকী বৃহস্পতিবার
দেশের নারী মুক্তির অন্যতম পথিকৃৎ ভাষা সৈনিক মনোয়ারা রহমানের ১২তম মৃত্যুবার্ষিকী বৃহস্পতিবার। ২০০৯ সালের এইদিনে তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন।
 
রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিষ্ঠাতা অ্যাডভোকেট মাদার বখসের প্রথম সন্তান হিসেবে মনোয়ারা রহমান আজীবন নিজ পিতাকে অনুসরণ করেছেন। পরবর্তীতে বাংলাদেশের প্রখ্যাত রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব গণমানুষের নেতা বঙ্গবন্ধুর বাকশাল সরকারের রাজশাহী জেলা গভর্নর এম আতাউর রহমানের সহধর্মিণী হিসেবে গণমানুষের মুক্তি সমৃদ্ধির জন্য নিজের জীবনকে বিলিয়ে গেছেন। তাঁদের মতো আত্মত্যাগী সামাজিক ও রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব মানবমুক্তির ইতিহাসে বিরল।
 
অনন্ত মাতৃত্বের গৌরবধন্য মাদার বখশের স্নেহময়ীরূপ ভাষাসৈনিক মনোয়ারা রহমানের চরিত্রে পূর্ণতা পেয়েছে। ভাষা আন্দোলনের সময় তিনি ছিলেন দশম শ্রেণীর ছাত্রী। রাজশাহীর সচেতন নারী ও পিএন গার্লস স্কুলের ছাত্রীদের নিয়ে মনোয়ারা রহমান অগ্নিশিখা মিছিল বের করেন। ছাত্রজীবনে তিনি ছিলেন অধিকার সচেতন। তৎকালীন মুসলিম লীগ সরকারের অন্যায় অত্যাচার ও দমন-নিপীড়নের বিরুদ্ধে সোচ্চার ছিলেন। রাজশাহী কলেজে ভর্তি হওয়ার পরে তিনি প্রগতিশীল ছাত্ররাজনীতির সঙ্গে জড়িয়ে পড়েন।
 
গণমানুষের মুক্তির রাজনীতি মানবপ্রেম ছিলো তার জীবনের মূলমন্ত্র। ৫২, ৫৩, ৫৪ সালে বেগম মনোয়ারা রহমান সারাদেশে এক আলোচিত নাম। স্বাধীনতা পরবর্তী দেশ ও জাতি গঠনে সমাজসেবার ক্ষেত্রে তিনি ৪০ বছর ধরে নারী সমাজের উন্নয়ন, নারী মুক্তি, নারী স্বাধীনতা, শিক্ষা ও নিরক্ষরতা দূরীকরণসহ নিঃস্বার্থভাবে অনন্য অবদান রেখে গেছেন।
 
মৃত্যুবার্ষিকী স্মরণে রাজশাহীতে সুবিধাবঞ্চিত মানুষদের মাঝে উন্নত খাবার বিতরণ করবে রাজশাহী প্রেসক্লাব ও জননেতা আতাউর রহমান স্মৃতি পরিষদ। বৃহস্পতিবার দুপুরে নগরীর হযরত শাহ মখদুম রূপোষ (রহ.) এর মাজারে এ খাবার বিতরণ করা হবে। এরপর বিকাল ৪টায় নগরীর সাহেববাজার জিরোপয়েন্ট রাজশাহী প্রেসক্লাবে সংক্ষিপ্ত পরিসরে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হবে বলে জানিয়েছে প্রয়াত এই সমাজসেবীর সন্তান ও রাজশাহী প্রেসক্লাবের সভাপতি সাইদুর রহমান।

বিডি প্রতিদিন/ মজুমদার 


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর