Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : ১৯ এপ্রিল, ২০১৯ ০৬:৩১

কেন রেডমি ৭ ই হবে আপনার পারফর্ম্যান্স পার্টনার?

প্রেস বিজ্ঞপ্তি

কেন রেডমি ৭ ই হবে আপনার পারফর্ম্যান্স পার্টনার?

প্রত্যেকের জন্য পারফরমেন্স ও ডিজাইনের এক চমৎকার সমন্বয় নিয়ে বিশ্বের শীর্ষস্থানীয় প্রযুক্তি নির্মাতা প্রতিষ্ঠান শাওমি বাজারে নিয়ে এলো তাদের নতুন ফোন রেডমি ৭। স্বাচ্ছন্দ্যে ও নির্বিঘ্নে মোবাইল ব্যবহার করার সুবিধা দিতে দীর্ঘস্থায়ী ব্যাটারি সম্পন্ন এই ফোনে রয়েছে আধুনিক সব ফিচার। 

চলুন জেনে নেই কী কী রয়েছে নতুন এই ফোনটিতে-  
  
ডট ড্রপ ডিজাইন-

গ্র্যাডিয়েন্ট ডিজাইন ও ১৯:৯ অনুপাতের ৬.২৬ ইঞ্চি বিশাল এই ফোনটির ফ্রন্টে স্ক্রীনের সুরক্ষা ও সৌন্দর্যের জন্য রয়েছে কর্নিং® গরিলা® গ্লাস ৫-এর স্বল্প বেজেল সম্পন্ন এইচডি+, ডট ড্রপ ডিসপ্লে। এর এলসিডি ডিসপ্লে গ্রাহকদের দেয় গেমিং এবং ভিডিও দেখার এক অনন্য অভিজ্ঞতা। গ্রাহকদের জন্য রয়েছে কমেট ব্লু, লুনার রেড অথবা ইক্লিপ্স ব্ল্যাক এই তিনটি থেকে পছন্দমতো রঙ বেছে নেওয়ার সুযোগ।   

ডুয়েল ক্যামেরা ও ফেইস আনলক- 

ছবিকে প্রাণবন্ত ও অধিক আকর্ষণীয় করতে ফোনটির পেছনে রয়েছে ১২+২ ডুয়েল ক্যামেরা যা এফ/২.২ অ্যাপারচার ও এলইডি ফ্ল্যাশ সমৃদ্ধ। এর কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তাসম্পন্ন ব্যাকগ্রাউন্ড ব্লারিং মোড খুব সহজেই স্পষ্ট ও নিখুঁত পোর্ট্রেইট ধারণ করতে পারে। ফোনটির এফ/২.০ অ্যাপারচার সম্পন্ন ৮ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরায় আর্টিফিসিয়্যাল ইন্টেলিজেন্স বিউটিফাই ও আর্টিফিসিয়্যাল ইন্টেলিজেন্স পোর্ট্রেইট মোড মানুষের মুখের বৈশিষ্ট্য যথাযথভাবে চিহ্নিত করে সেটিকে আরো নিখুঁত করে ছবিকে আকর্ষণীয় করে তুলে। 

এই ফোনের পাম শাটার ফিচারটি বেশ মজার। ক্যামেরার সামনে হাতের তালু তুলে ধরলেই ফোনটি স্পর্শ না করেই ছবি তোলা হয়ে যাবে এই ফিচারের মাধ্যমে। আরও রয়েছে ফেইস আনলক সুবিধা যার মাধ্যমে ব্যবহারকারীর চেহারা দিয়ে অতি সহজেই ফোনটি আনলক করা যায়। 
 
শক্তিশালী হার্ডওয়্যার ও অপারেটিং সিস্টেম-
 
ফোনটির শক্তিশালী কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৬৩২ প্রসেসর ফোনের ব্যাটারিকে অধিক কর্ম পরিচালনায় উপযুক্ত করে তুলেছে। ২জিবি ও ৩জিবি এই দুইটি ভ্যারিয়েন্ট র‍্যামে ফোনটি বাজারে পাওয়া যাচ্ছে যাতে রয়েছে যথাক্রমে ১৬জিবি ও ৩২জিবি রম। ফোনটিতে গেইম খেলার অভিজ্ঞতাকে আরও প্রাণবন্ত করতে এতে কোয়ালকম এড্রিনো ৫০৬ জিপিউ রয়েছে। তাছাড়া ৫১২জিবি পর্যন্ত মেমরি বাড়ানোর সুবিধা থাকছে তাই মন মতো অ্যাপ ডাউনলোড করতে আর চিন্তা নেই। 

আর নিশ্চিন্তে দীর্ঘক্ষণ ফোনটি ব্যবহার করার জন্য এর উন্নত মানের ৪,০০০ এমএএইচ ব্যাটারি তো আছেই, যা ৪০০ ঘণ্টা পর্যন্ত স্টান্ডবাই টাইম নিশ্চত করে। অপারেটিং সিস্টেম হিসেবে এতে ব্যবহার করা হয়েছে অ্যান্ড্রয়েড ৯.০ পাই যা ফোনটিকে আরও গতিসম্পন্ন করেছে।
  
ফোনটির সাউন্ড কোয়ালিটি খুবই চমৎকার। পরিচ্ছন্ন মিডিয়া প্লেব্যাক ও কল সাউন্ড নিশ্চিত করতে এটিতে উন্নতমানের স্পিকার ব্যবহার করা হয়েছে। এছাড়াও দৈনন্দিন জীবনকে আরো সহজ করতে ফোনটিতে ব্যবহৃত হয়েছে ইনফ্রারেড সেন্সর। এর মাধ্যমে গ্রাহকরা ফোনটিকে ৪,০০০ এরও বেশি ইলেকট্রনিক্স ও অ্যাপ্লায়েন্স-এ রিমোর্ট হিসেবে ব্যবহার করতে পারেন।

অন্যান্য-
 
এছাড়াও রেডমি ৭-এ রয়েছে দ্রুত ও নিরাপদ ফিংগারপ্রিন্ট আনলকের সুবিধা। আরো রয়েছে একটি মাইক্রো এসডি কার্ড ও দুইটি সিম ব্যবহারের সুবিধা। 

অত্যন্ত সাশ্রয়ী মূল্যে রেডমি ৭ এখন বাজারে পাওয়া যাচ্ছে। ২জিবি+১৬জিবি ভার্সনের মূল্য ১১,৯৯৯ টাকা এবং ৩জিবি+৩২জিবি ভার্সনের মূল্য ১৩,৯৯৯ টাকা। সবকিছু বিবেচনার পর রেডমি৭-ই হয়ে উঠুক আপনার দৈনন্দিন জীবনের পারফর্ম্যান্স পার্টনার। 

 

বিডি-প্রতিদিন/আব্দুল্লাহ তাফসীর


আপনার মন্তব্য