শিরোনাম
প্রকাশ : শনিবার, ৫ ডিসেম্বর, ২০২০ ০০:০০ টা
আপলোড : ৪ ডিসেম্বর, ২০২০ ২৩:২৫

করোনায় মারা গেলেন নিউইয়র্ক প্রবাসী তিন বাংলাদেশি

যুক্তরাষ্ট্র প্রতিনিধি

করোনায় আক্রান্ত হয়ে গত মঙ্গল ও বুধবার নিউইয়র্কে দুই বাংলাদেশি মারা গেছেন। আরেকজন ভাগ্নির বিয়ে উপলক্ষে ঢাকায় গিয়ে করোনার ভিকটিম হয়েছেন। এর ফলে করোনার দ্বিতীয় ধাক্কায় আবারও নিউইয়র্কে প্রবাসীদের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়েছে। এর আগে এই সিটিতে করোনায় মারা গেছেন ২৪ হাজারের অধিক। এরমধ্যে কমপক্ষে ২৬০ প্রবাসী রয়েছেন।

বাংলাদেশের অন্যতম বৃহৎ শিল্পপ্রতিষ্ঠান ‘বসুন্ধরা গ্রুপ’-এর নিউইয়র্কস্থ উপদেষ্টা বীর মুক্তিযোদ্ধা গোলাম মেহরাজের ছোটভাই আবাসন ব্যবসায়ী গোলাম রহমান সেলিম (৪৬) করোনায় আক্রান্ত হয়ে ২ ডিসেম্বর মারা গেছেন। তিনি স্ত্রী ও এক কন্যা সন্তান রেখে গেছেন। তারা ঢাকায় বাস করেন। সেলিমের জানাজা শেষে বৃহস্পতিবার লং আইল্যান্ডে ওয়াশিংটন                 মেমোরিয়াল মুসলিম গোরস্থানে দাফন করা হয়েছে। এর আগের দিন মারা গেছেন নিউইয়র্কের আরেক প্রবাসী শিক্ষক আবুল কালাম আজাদ (৬৮)। তিনি লং আইল্যান্ডে জুইশ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ইন্তেকাল করেন। তার পরিবারের অপর সদস্যরাও করোনায় আক্রান্ত বলে পারিবারিক সূত্রে বলা হয়েছে। এ ছাড়া ভাগ্নির বিয়ে উপলক্ষে বাংলাদেশে গিয়ে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন নিউইয়র্ক সিটির জ্যাকসন হাইটস সংলগ্ন এলমহার্স্টের বাসিন্দা শেফালি বেগম মিয়া (৫৫)। সেক্টর কমান্ডারস ফোরামের যুক্তরাষ্ট্র শাখার সহসভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আবুল বাশার চুন্নুর ছোট বোন শেফালি ১২ অক্টোবর ঢাকায় গিয়েছিলেন জ্যেষ্ঠ কন্যাসহ। ২০ নভেম্বর ভাগ্নির আকদ হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু তার আগেই ভাগ্নি এবং জামাই পক্ষের লোকজন করোনায় আক্রান্ত হন। ফলে বিয়ে সম্পর্কিত সকল কর্মসূচি স্থগিত ঘোষণা করা হয়। ১০ নভেম্বর শেফালি বেগমও আক্রান্ত হন। এরপর তাকে ঢাকায় সরকারি কর্মচারী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিল। সেখানেই তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন ২৯ নভেম্বর।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর