শিরোনাম
শুক্রবার, ১ ডিসেম্বর, ২০২৩ ০০:০০ টা

আচরণবিধি লঙ্ঘনের হিড়িক

হুইপ শামসুলসহ কয়েক ডজন প্রার্থীর বিরুদ্ধে অভিযোগ, সাকিব নিক্সনসহ ২১ জনকে শোকজ

নিজস্ব প্রতিবেদক

সংসদ নির্বাচনে আচরণবিধি লঙ্ঘন অব্যাহত রয়েছে। গতকাল মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ দিনে আচরণবিধি ভেঙে হাজারো নেতা-কর্মী নিয়ে শোডাউন করে অনেক প্রার্থী মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন। অনেকেই মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার আগে সড়ক বন্ধ করে নেতা-কর্মীদের নিয়ে অনুষ্ঠান করেছেন।

এদিকে সংসদ নির্বাচনে আচরণবিধি লঙ্ঘন করায় চারজন মন্ত্রী-প্রতিমন্ত্রী, মাগুরা-১ আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী সাকিব আল হাসানসহ ২১ প্রার্থীকে শোকজ করেছে নির্বাচন কমিশন। আজ শুক্রবারের মধ্যেই অনেককেই শোকজের জবাব দিতে বলেছে ইসি। এর মধ্যে রয়েছেন- যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী গাজীপুর-২ আসনের সংসদ সদস্য জাহিদ আহসান রাসেল; ঢাকা-১৯ আসনের সংসদ সদস্য দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী ডা. এনামুর রহমান এবং তথ্য ও যোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী নাটোর-৩ আসনের প্রার্থী জুনাইদ আহমেদ পলক। এর মধ্যে রয়েছেন সাবেক ডাক ও টেলিযোগাযোগমন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগের উপদেষ্টামন্ডলীর সদস্য ও নরসিংদী-৫ (রায়পুরা) আসনে আওয়ামী লীগ প্রার্থী রাজিউদ্দিন আহমেদ রাজু; সাবেক মহিলা ও শিশুবিষয়ক প্রতিমন্ত্রী মেহের  আফরোজ চুমকি; মাগুরা-১ আসনের আওয়ামী লীগের প্রার্থী ক্রিকেটার সাকিব আল হাসান; ফরিদপুর-৪ আসনের স্বতন্ত্র প্রার্থী মজিবুর রহমান চৌধুরী ওরফে নিক্সন; জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম মেম্বার ও ঢাকা-৬ আসনের এমপি কাজী ফিরোজ রশীদকে শোকজ করা হয়। এ ছাড়া গতকাল আরও শোকজ করা হয়েছে- চুয়াডাঙ্গা-১ আসনে আওয়ামী লীগ প্রার্থী সোলায়মান হক জোয়ার্দ্দার, পটুয়াখালী-৪ আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী মহিব্বুর রহমান, রংপুর-৩ আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী তুষার কান্তি মন্ডল, লক্ষ্মীপুর-১ আসনে নৌকার প্রার্থী সংসদ সদস্য ডা. আনোয়ার হোসেন খান, মুন্সীগঞ্জ-৩ আসনের সংসদ সদস্য ও আওয়ামী লীগের প্রার্থী মৃণাল কান্তি দাস, ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৩ আসনের সংসদ সদস্য ও আওয়ামী লীগের প্রার্থী র আ ম উবায়দুল মোকতাদির চৌধুরী, নাটোর-২ আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী সংসদ সদস্য শফিকুল ইসলাম শিমুল এবং ময়মনসিংহ-১১ আসনের সংসদ সদস্য ও আওয়ামী লীগের প্রার্থী কাজিম উদ্দিন আহম্মেদ ধনু। আচরণবিধি লঙ্ঘনের বিষয়ে জানতে চাইলে নির্বাচন কমিশনার ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব.) মো. আহসান হাবিব খান বলেছেন, প্রার্থী যেই হোক না কেন আচরণবিধি লঙ্ঘন করলেই আইন অনুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়া হবে। ইতোমধ্যে বেশ কয়েকজন প্রার্থীকে শোকজ করা হয়েছে। আমরা কোনোভাবেই নির্বাচনি আচরণবিধি লঙ্ঘন মেনে নেব না। কমিশন লঙ্ঘনকারীদের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স নীতি গ্রহণ করেছে। আমরা অবাধ-সুষ্ঠু শান্তিপূর্ণ ও গ্রহণযোগ্য নির্বাচন করতে চাই। এ জন্য নির্বাচন কমিশন সব ধরনের ব্যবস্থা নেবে। তিনি বলেন, নির্বাচনি প্রতীক বরাদ্দের পরই প্রার্থীরা আচরণবিধি মেনে নির্বাচনি প্রচারণা চালাতে পারবেন। আমরা সব প্রার্থীর জন্য সমান সুযোগ সৃষ্টি করব ইনশা আল্লাহ। গতকাল ঢাকা-১৯ আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী, দুর্যোগব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী এনামুর রহমানকে কারণ দর্শানোর নোটিস (শোকজ) দিয়েছে ইসি। নির্বাচনি আচরণবিধি লঙ্ঘন করায় ঢাকা-১৯ আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী, দুর্যোগব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী এনামুর রহমানকে কারণ দর্শানোর নোটিস (শোকজ) দিয়েছে কমিশন। তাঁকে ১ ডিসেম্বর বিকাল ৫টার মধ্যে নির্বাচনি অনুসন্ধান কমিটির কাছে উপস্থিত হয়ে শোকজের জবাব দিতে বলা হয়েছে। ঢাকা-১৯ নির্বাচনি অনুসন্ধান কমিটির প্রধান ও জ্যেষ্ঠ সহকারী জজ জাকির হোসেন স্বাক্ষরিত চিঠিতে এ কথা বলা হয়েছে। নির্বাচনের আচরণবিধি না মেনে প্রচার শুরুর নির্দিষ্ট তারিখের আগেই জনসংযোগ, শোভাযাত্রা করায় মাগুরা-১ আসন থেকে আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী ক্রিকেটার সাকিব আল হাসানের ব্যাখ্যা চেয়েছে নির্বাচনি অনুসন্ধান কমিটি। সাকিবকে শুক্রবার বিকাল ৪টায় মাগুরায় নির্বাচনি অনুসন্ধান কমিটির কাছে সশরীরে উপস্থিত হয়ে এ বিষয়ে ব্যাখ্যা দিতে বলা হয়েছে। মাগুরা-১ আসনের নির্বাচনি অনুসন্ধান কমিটির প্রধান যুগ্ম জেলা ও দায়রা জজ (প্রথম আদালত, মাগুরা) সত্যব্রত শিকদার বলেন, ইতোমধ্যে এ সংক্রান্ত চিঠি সাকিবের কাছে পৌঁছে গেছে। ফরিদপুর-৪ (ভাঙ্গা-সদরপুর-চরভদ্রাসন) আসনের এমপি স্বতন্ত্র প্রার্থী ও যুবলীগের সভাপতিমন্ডলীর সদস্য মজিবুর রহমান চৌধুরী ওরফে নিক্সনকে শোকজ করা হয়েছে। তাঁকে আজ শুক্রবার বিকাল ৩টার মধ্যে নির্বাচন কমিশনের (ইসি) গঠন করা ফরিদপুর-৪ নির্বাচনি অনুসন্ধান কমিটির কাছে সশরীরে উপস্থিত হয়ে শোকজের জবাব দিতে বলা হয়েছে। গতকাল ফরিদপুর-৪ নির্বাচনি অনুসন্ধান কমিটির চেয়ারম্যান এবং যুগ্ম জেলা ও দায়রা জজ মোহাম্মদ মঈন উদ্দীন চৌধুরীর সই করা চিঠি পাঠানো হয়েছে। এ ছাড়া বিধিভঙ্গের কারণে নারায়ণগঞ্জ-১ আসনের আওয়ামী লীগের প্রার্থী গোলাম দস্তগীর গাজীকে চিঠি পাঠিয়েছেন বিচারিক হাকিম শেখ আনিসুজ্জামান। ১ ডিসেম্বর বিকাল ৫টায় সংশ্লিষ্ট অনুসন্ধান কমিটির কাছে উপস্থিত হয়ে এই প্রার্থীকে জবাব দিতে বলা হয়েছে। সাংবাদিকের ওপর চড়াও হওয়ার অভিযোগ এসেছে চট্টগ্রাম-১৬ (বাঁশখালী) আসনে আওয়ামী লীগের প্রার্থী মোস্তাফিজুর রহমান চৌধুরীর বিরুদ্ধে। এ সময় উপস্থিত সাংবাদিকদের সঙ্গে মোস্তাফিজ সমর্থকদের কথা-কাটাকাটি ও হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় আওয়ামী লীগ প্রার্থীকে শোকজ করেছে ইসি। নির্বাচনি আচরণবিধি লঙ্ঘন করায় লক্ষ্মীপুর-২ (রায়পুর) আসনের আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী নুর উদ্দিন চৌধুরী ও লক্ষ্মীপুর-৩ (সদর) আসনের মো. গোলাম ফারুককে কারণ দর্শানোর নির্দেশ দিয়েছে নির্বাচনি অনুসন্ধান কমিটি। আগামী রবিবার লিখিতভাবে তাদের আচরণবিধি লঙ্ঘনের ব্যাখ্যা দিতে বলা হয়েছে।

আচরণবিধি ভঙ্গ করে মনোনয়ন জমা : নির্বাচনি আচরণবিধি ভঙ্গ করে জাতীয় পতাকাবাহী গাড়ি ও পুলিশ প্রটোকল নিয়ে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন জাতীয় সংসদের হুইপ সামশুল হক চৌধুরী। তিনি চট্টগ্রাম-১২ (পটিয়া) আসন থেকে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে নির্বাচন করছেন। আওয়ামী লীগের এই সংসদ সদস্য এবার দলের মনোনয়ন পাননি। তিনি স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে নির্বাচন করছেন। গতকাল বেলা সোয়া ২টায় রিটার্নিং কর্মকর্তার কার্যালয় চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে যান সংসদ সদস্য প্রার্থী সামশুল হক চৌধুরী। এ সময় তাকে বহনকারী গাড়িতে জাতীয় পতাকা ছিল। সামনে ছিল চট্টগ্রাম নগর পুলিশের একটি গাড়ি। আচরণবিধি ভেঙে হাজারো নেতা-কর্মী নিয়ে শোডাউন দিয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন পটুয়াখালী-৪ (কলাপাড়া-রাঙ্গাবালী) আসনের সাবেক সংসদ সদস্য ও কলাপাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. মাহবুবুর রহমান। মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার আগে সড়ক বন্ধ করে নেতা-কর্মীদের নিয়ে অনুষ্ঠান করেছেন তিনি। গতকাল কর্মী-সমর্থকদের নিয়ে মিছিল সহকারে তিনি সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তা ও কলাপাড়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো. জাহাঙ্গীর হোসেনের কাছে মনোনয়নপত্র জমা দেন। তবে আওয়ামী লীগ নেতা মাহবুবুর রহমান আচরণবিধি লঙ্ঘনের বিষয়টি অস্বীকার করেছেন। নির্বাচনি আচরণবিধি লঙ্ঘন করে গাড়িবহরে মহড়া দিয়ে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন মাদারীপুর-৩ (কালকিনি, ডাসার ও সদরের একাংশ) আসনের আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী আবদুস সোবহান মিয়া ওরফে গোলাপ। গতকাল দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তা ও কালকিনি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) উত্তম কুমার দাশের কাছে তিনি মনোনয়নপত্র জমা দেন। এ সময় সহকারী রিটার্নিং কর্মকর্তার কক্ষে তাঁর সমর্থকদের উপচে পড়া ভিড় হলে ধাক্কাধাক্কির ঘটনাও ঘটে। বিশৃঙ্খলার সৃষ্টি হয়।  নওগাঁ-৩ (মহাদেবপুর-বদলগাছী) আসনের স্বতন্ত্র সংসদ সদস্য প্রার্থী ছলিম উদ্দিন তরফদারের বিরুদ্ধে নির্বাচনি আচরণবিধি ভঙ্গ করার অভিযোগ উঠেছে।

সর্বশেষ খবর