শিরোনাম
প্রকাশ : শনিবার, ১৭ জুলাই, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৭ জুলাই, ২০২১ ০০:০৭

করোনাকালে সফল শাবিপ্রবির আন্নিকা

রিয়াজুল ইসলাম, কুমিল্লা

করোনাকালে সফল শাবিপ্রবির আন্নিকা
Google News

করোনার সময় ঘরে বসেই জমানো টাকায় চিনিগুঁড়া চাল বিক্রি করেই হাবিপ্রবি দিনাজপুরের শিক্ষার্থী আন্নিকা তাবাসসুম আয় করছেন লাখ টাকা। করোনার এই সময় কেউ হয়েছেন কর্মহারা কিংবা অর্থ সংকটে পড়েছেন। আবার কেউ বাঁচার তাগিদে ঋণগ্রস্তও হয়েছেন। কিন্তু এই সময় উত্তরণের উপায় খুঁজে পেয়ে করোনার গত ছয় মাসে অনলাইনে অর্ডার নিয়ে চিনিগুঁড়া, ভাতের চাল, চা-গাছের চারাসহ বিভিন্ন অর্ডারের ২০ লাখ টাকা আয় করেছেন তিনি। আন্নিকা তাবাসসুম দিনাজপুর হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে কৃষি বিভাগে অনার্স তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী। দিনাজপুর শহরের কলেজ মোড় এলাকার উচ্চবিত্ত মা-বাবার একমাত্র সন্তান আন্নিকা। দীর্ঘ সময় ক্যাম্পাস বন্ধ থাকায় কিছু একটা করার ভাবনা থেকেই এ কাজটা করা। গত ছয় মাস আগে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে আন্নিকা ‘পাইকারী ঘর’ নামে একটি পেজ খুলেন। এরপর দিনাজপুরের বিখ্যাত ও ঐতিহ্যবাহী সুগন্ধি চিনিগুঁড়া চালসহ রান্না করা পোলাও, খিচুড়ি, তেহারি, বিরানির ছবিও ‘পাইকারী ঘর’ পেজে আপলোড করতে থাকেন। ধীরে ধীরে অর্ডার বাড়তে থাকে। এখন তাঁর ব্যবসায়িক সাফল্য ছড়িয়ে পড়ছে সবখানেই। আন্নিকা মনে করেন সৎ সাহস নিয়ে পণ্যের মানের সঙ্গে আপসহীন থাকলে ব্যবসায়িক সাফল্য আসবেই।