Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : মঙ্গলবার, ১৮ জুন, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৮ জুন, ২০১৯ ০০:০৮

একদিকে উচ্ছেদ, অন্যদিকে দখল

শাহ্ দিদার আলম নবেল, সিলেট

একদিকে উচ্ছেদ, অন্যদিকে দখল

সিলেট মহানগরীতে মোট ফুটপাথ আছে প্রায় ২শ কিলোমিটার। এ ফুটপাথে নগরবাসী চলাচল করার কথা থাকলেও সে পরিস্থিতি নেই। ফুটপাথের সিংহভাগই দখল করে রেখেছে হকাররা। সিলেট সিটি করপোরেশন (সিসিক) প্রায়ই হকারদের বিরুদ্ধে অভিযান পরিচালনা করে। কিন্তু কিছু সময় পার হতেই হকাররা ফের ফুটপাথ দখল করে বসে। হকারদের এ দৌরাত্ম্যের কারণে নগরবাসীকে পোহাতে হচ্ছে ভোগান্তি। সিলেট নগরীর প্রাণকেন্দ্র বলা হয় জিন্দাবাজারকে। সিলেটে আসা দেশি-বিদেশি পর্যটকদের আনাগোনা থাকে জিন্দাবাজারে। কিন্তু এ এলাকায় হকারদের কারণে ফুটপাথে পা ফেলাই দায়। শুধু জিন্দাবাজারই নয়, সিলেট নগরীর গুরুত্বপূর্ণ বন্দরবাজার, সিটি পয়েন্ট, কোর্ট পয়েন্ট, সুবহানীঘাট, চৌহাট্টা, আম্বরখানা, লামাবাজার, মেডিকেল রোড, রিকাবীবাজার, সুবিদবাজারসহ সর্বত্র হকারদের দৌরাত্ম্য। কাপড়চোপড়, ফলমূল, পাইরেটেড সিডি, খেলনা, জুতা, সবজিসহ হরেক পণ্য নিয়ে এসব এলাকার ফুটপাথ দখল করে রেখেছে হকাররা। হকারদের সঙ্গে তাল মেলাচ্ছেন কতিপয় ব্যবসায়ী। মূলত সড়কের পাশে যেসব ব্যবসাপ্রতিষ্ঠান আছে, সেগুলোর বিভিন্ন মালামাল ফুটপাথে রাখা হয়।

সিলেট সিটি করপোরেশনের পক্ষ থেকে স্বাচ্ছন্দ্যে চলাফেরা এবং নগরীর পরিবেশকে পরিচ্ছন্ন রাখতে নিয়মিত উচ্ছেদ অভিযান পরিচালনা করা হচ্ছে। আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যদের নিয়ে অভিযান শুরু করলে হকাররা সটকে পড়ে। অনেক ক্ষেত্রে অভিযানে হকারদের মালামাল জব্দ করা হয়। কিন্তু অভিযানের সুফল হয় সাময়িক। একদিকে অভিযান শেষ হয়, অন্যদিকে হকাররা এসে পুনরায় দখল করে বসে ফুটপাথ। গত রবিবার সিলেট নগরীর বন্দরবাজার, মহাজনপট্টি ও কালীঘাট এলাকায় ফুটপাথে অবৈধ দখলদারদের উচ্ছেদে অভিযান চালান সিটি মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী। ওইদিন দুপুর ১২টা থেকে বেলা ২টা পর্যন্ত চলে অভিযান। সরেজমিন দেখা যায়, মেয়রের ওই অভিযানের কিছু সময় পরই এসব এলাকার ফুটপাথ ফের দখল হয়ে গেছে। ফুটপাথ হকারদের দখলে থাকায় চলাচলে ভোগান্তি পোহাচ্ছেন নগরবাসী। ফুটপাথ দিয়ে হাঁটার সুযোগ না থাকায়  নগরবাসীকে চলাচল করতে হয় মূল সড়ক দিয়ে। এতে প্রায়ই ছোটখাটো দুর্ঘটনা ঘটছে। এছাড়া নগরবাসী মূল সড়ক দিয়ে হাঁটায় সড়ক সংকোচিত হয়ে পড়ায় সড়কে তৈরি হচ্ছে যানজট। এ ব্যাপারে সিলেট সিটি মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী বলেন, ২০১৩ সালে আমি মেয়র হিসেবে প্রথম মেয়াদে নির্বাচিত হওয়ার পর থেকেই নগরীর ফুটপাথ দখলমুক্ত রাখতে সর্বাত্মক চেষ্টা করছি। ফুটপাথ দখলমুক্ত করতে যা করা দরকার, সব করা হবে। তবে সিটি করপোরেশন একা এ কাজ করতে পারবে না। এজন্য নগরবাসীকে নিজ নিজ অবস্থান থেকে এগিয়ে আসতে হবে। নিজ নিজ এলাকায় ফুটপাথে যাতে হকাররা বসতে না পারে, সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে।

 

 


আপনার মন্তব্য