৩ আগস্ট, ২০২১ ০৩:১১

কিশোরগঞ্জে নতুন করে ১৮৩ জনের করোনা শনাক্ত, ২ জনের মৃত্যু

কিশোরগঞ্জ প্রতিনিধি :

কিশোরগঞ্জে নতুন করে ১৮৩ জনের করোনা শনাক্ত, ২ জনের মৃত্যু

কিশোরগঞ্জে করোনায় নতুন করে সোমবার রাত ১০টা পর্যন্ত ১৮৩ জনের করোনা শনাক্ত এবং ২ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে জেলায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়াল ৯ হাজার ৬১০ জনে এবং মোট মৃত্যুবরণ করেছেন ১৬১ জন। সিভিল সার্জন ডা. মুজিবুর রহমান সোমবার রাত পৌনে ১১টার দিকে এ তথ্য জানিয়েছেন। 

তিনি বলেন, নতুন আক্রান্তদের মধ্যে কিশোরগঞ্জ সদর উপজেলায় ৪৫ জন, হোসেনপুরে ১০ জন, করিমগঞ্জে ৬ জন, তাড়াইলে ৪ জন, পাকুন্দিয়ায় ৩ জন, কটিয়াদীতে ৩৫ জন, কুলিয়ারচরে ৪ জন, ভৈরবে ৪৮ জন, নিকলীতে ৫ জন, বাজিতপুরে ১৭ জন, ইটনায় ১ জন, মিঠামইনে ৩ জন ও অষ্টগ্রামে ২ জন।

ডা. মুজিবুর আরও জানান, ২৮, ২৯, ৩১ জুলাই ও ১ আগস্ট (আংশিক) কিশোরগঞ্জ শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের আরটি পিসিআর ল্যাব হতে (প্রি আইসোলেশনে ভর্তিকৃত জরুরি রোগীসহ) ১৮৮ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ৬৭ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে।

এদিকে, ১ আগস্ট বাজিতপুর জহুরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের আরটি-পিসিআর ল্যাবে ১১৭ জনের নমুনা পরীক্ষায় ৯ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। এছাড়া শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ১৫ জন, কিশোরগঞ্জ বক্ষব্যাধি ক্লিনিকে ১১ জন, হোসেনপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ৪২ জন, করিমগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ১০ জন, তাড়াইল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ১২ জন, পাকুন্দিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ৪২ জন, কটিয়াদী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ৪৫ জন, ভৈরব উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ১২৮ জন, নিকলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ২৫ জন, বাজিতপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ৪৩ জন, ইটনা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ১৯ জন ও অষ্টগ্রাম উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ১২ জনসহ মোট ৪০৪ জনের রেপিড এন্টিজেন টেস্টে ১০৭ জনের করোনার উপসর্গ পাওয়া গেছে।

এদিকে শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নতুন রোগী ভর্তি হয়েছেন ৩২ জন, সুস্থ হয়ে ছাড়পত্র পেয়েছেন ১৭ জন এবং আইসিইউতে ভর্তি রয়েছেন ১০ জন। এ হাসপাতালে করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ২ জন। কিশোরগঞ্জ সদর উপজেলার ৬০ বছর বয়সী একজন নারী, ও বাজিতপুর উপজেলার ৪৫ বছর বয়সী একজন নারী গত রবিবার শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যুবরণ করেন। জেলায় করোনা আক্রান্ত হয়ে এ পর্যন্ত মৃত্যুবরণ করেছেন মোট ১৬১ জন।

সিভিল সার্জন আরও জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় জেলায় করোনা থেকে সুস্থ হয়েছেন ৭৬ জন। এ পর্যন্ত জেলায় মোট ৬ হাজার ৭৭৬ জন সুস্থ হয়েছেন। বর্তমানে জেলায় সর্বেমোট আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা ২ হাজার ৬৭৩ জন। এরমধ্যে কিশোরগঞ্জ সদর উপজেলায় ৮৩৬ জন, হোসেনপুরে ২০২ জন, করিমগঞ্জে ৫৮ জন, তাড়াইলে ৪২ জন, পাকুন্দিয়ায় ২৪১ জন, কটিয়াদীতে ৪৩২ জন, কুলিয়ারচরে ৬১ জন, ভৈরবে ৪৯৪ জন, নিকলীতে ৩৯ জন, বাজিতপুরে ১৬৪ জন, ইটনায় ২৯ জন, মিঠামইনে ৩২ জন ও অষ্টগ্রামে ৪৩ জন।

সিভিল সার্জন কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, বর্তমানে হোম কোয়ারেন্টাইনে/আইসোলেশনে রয়েছেন ২ হাজার ৬০০ জন। আর হাসপাতাল আইসোলেশনে রয়েছেন ৭৩ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় টিকার জন্য রেজিস্ট্রেশন করেছেন ৪ হাজার ৫৯৪ জন। গত ৭ ফেব্রুয়ারি থেকে এ পর্যন্ত রেজিস্ট্রেশন করেছেন ২ লক্ষ ১২ হাজার ৪৯১ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় সাইনোফার্মের প্রথম ডোজ টিকা নিয়েছেন ৩ হাজার ৭৬৫ জন এবং দ্বিতীয় ডোট টিকা নিয়েছেন ৬৫ জন। গত ১৯ জুন থেকে সিনোফার্মের ভ্যাকসিনের প্রথম ডোজ টিকা নিয়েছেন মোট ৫১ হাজার ১০৭ জন এবং দ্বিতীয় ডোজ টিকা নিয়েছেন ৯১৬ জন। গত ৭ ফেব্রুয়ারি থেকে এ পর্যন্ত কোভিশিল্ড ভ্যাকসিনের প্রথম ডোজ টিকা নিয়েছেন ৭৬ হাজার ৬৬৫ জন এবং মোট দ্বিতীয় ডোজ নিয়েছেন ৫৯ হাজার ৩০৭ জন।

বিডি-প্রতিদিন/শফিক

এই বিভাগের আরও খবর