Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : বৃহস্পতিবার, ১৮ জুলাই, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৭ জুলাই, ২০১৯ ২৩:৪২

ঘিওরে জমজমাট নৌকার হাট

মানিকগঞ্জ প্রতিনিধি

ঘিওরে জমজমাট নৌকার হাট

মানিকগঞ্জের ঘিওরে জমে উঠেছে ডিঙি নৌকার হাট। সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত এ হাটে শত শত নৌকা বিক্রি হচ্ছে। ক্রেতা-বিক্রেতার উপস্থিতিতে মুখরিত ঐতিহ্যবাহী এ হাটপ্রঙ্গণ। তবে বেচাকেনা কম বলে জানান বিক্রেতারা।

ঘিওর উপজেলার ঘিওর সরকারি কলেজসংলগ্ন কেন্দ্রীয় ঈদগাহ মাঠে এ বিশাল নৌকার হাট বসে প্রতি বুধবার। মানিকগঞ্জ ছাড়াও পাশের জেলা টাঙ্গাইল ও সিরাজগঞ্জের বিভিন্ন এলাকা থেকে ক্রেতা-বিক্রেতা আসেন এ হাটে। বর্ষার শুরু থেকেই বিপুলসংখ্যক নৌকা আমদানি হয় এ হাটে। একদিকে বর্ষার পানি বাড়তে থাকে, অন্যদিকে বাড়ে নৌকা বিকিকিনিও। মানিকগঞ্জের ভিতর দিয়ে পদ্মা, যমুনা, ধলেশ্বরী, ইছামতি ও কালীগঙ্গা নদী প্রবাহিত হওয়ায় নদীর পানিতে নিম্নাঞ্চল তলিয়ে যায়। ফলে নৌকা হয়ে ওঠে তাদের যাতায়াতের একমাত্র বাহন। এ কারণে বর্ষার আগেই কারিগররা নৌকা তৈরি করেন। জানা যায়, জেলার সাতটি উপজেলার মধ্যে হরিরামপুর, শিবালয়, ঘিওর, দৌলতপুর ও সাটুরিয়া নদীতীরবর্তী ও নিম্নাঞ্চল হওয়ায় এ উপজেলাগুলোর প্রায় প্রতিটি পরিবারের থাকে নিজস্ব নৌকা। দৈনন্দিন কাজের সুবিধার্থে যুগ যুগ ধরে নৌকাই ওইসব এলাকার মানুষের যোগাযোগের সহজ বাহন। ঘিওর হাটের ইজারাদার গৌরাঙ্গ কুমার বলেন, ‘এ হাট নৌকার জন্য বিখ্যাত। হাটে প্রতি বুধবার নৌকা নিয়ে বিভিন্ন জেলা থেকে ব্যাপারিরা আসেন। এখানে সুলভ মূল্যে নৌকা বেচাকেনা হয়। এ কারণে এ হাটের খ্যাতি রয়েছে দেশজুড়ে। মেহগনি, কড়ই, আম, চাম্বল, রেন্ট্রির কাঠ দিয়ে নৌকা তৈরি হয়। আকার ও মানভেদে প্রতিটি ডিঙি নৌকা বিক্রি হয় ২ থেকে ৭ হাজার টাকায়।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর