শিরোনাম
প্রকাশ : ২০ আগস্ট, ২০১৯ ১৮:৩৬

শেরপুরে ৪র্থ শ্রেণির ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগ, আটক ২

শেরপুর প্রতিনিধি :

শেরপুরে ৪র্থ শ্রেণির ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগ, আটক ২

শেরপুরে এক চতুর্থ শ্রেণি পড়ুয়া ১১ বছরের শিক্ষার্থীকে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। পুলিশ ধর্ষক পলাশ পোদ্দারকে (৪৫) গ্রেফতার করতে না পারলেও ধর্ষণে সহযোগীতার অভিযোগে সোহানুর রহমান সোহান ও মৌসুমি আক্তার দম্পতিকে গ্রেফতার করেছে।

জানা গেছে, বিধবা মায়ের সঙ্গে ভাড়া বাসায় থাকত ঐ চতুর্থ শ্রেণির ছাত্রী। দীর্ঘদিন ধরেই সে বাসায় যাতায়াত করেন অভিযুক্ত পলাশ পোদ্দার। ঘটনার দিন (গত রবিবার) দুপুরে পলাশ পোদ্দার ঐ বাসায় যান। পরে কৌশলে ঐ ভাড়া বাসার তিন তলায় সহযোগীতাকারী দম্পতির বাসায় নিয়ে স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণ করে। বাইরে থেকে দরজা দিয়ে ওই দম্পতি তখন পাহারা দিচ্ছিল। তখন ভিকটিমের মা বাড়িতে ছিল না। এ ঘটনা পলাশের হুমকির ভয়ে মেয়েটি তার মাকে বলেনি। পরের দিন ১৯ আগস্ট সোমবার দুপুরে একই কায়দায় পলাশ মেয়েটির ঘরে ঢুকে পড়লে মেয়েটি সুকৌশলে বাসা থেকে বের হয়ে বাসার গেইটে কান্নাকাটি শুরু করে। বাইরে থেকে মা এসে কান্নার কারণ জানতে চাইলে মাকে ঘটনার বিস্তারিত জানায়। পরে মা মাহমুদা সদর থানায় গিয়ে অভিযোগ দিলে পুলিশ রাতেই সহযোগীতাকারী অভিযুক্ত দম্পতিকে গ্রেফতার করে। সদর থানার ভারপ্রাপ্ত পুলিশ কর্মকর্তা আব্দুল্লাহ আল মামুন জানিয়েছে, মূল অভিযুক্তকে ধরতে পুলিশ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। ভিকটিমের ডাক্তারি পরীক্ষা সম্পন্ন হয়েছে।

বিডি-প্রতিদিন/শফিক


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর