শিরোনাম
প্রকাশ : ১১ এপ্রিল, ২০২১ ১১:৫২
আপডেট : ১১ এপ্রিল, ২০২১ ১৫:২৯
প্রিন্ট করুন printer

১২ জন আহত, বসতঘর-দোকান ভাঙচুর, অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন

মেহেন্দিগঞ্জে আওয়ামী লীগ ও বিদ্রোহী প্রার্থীর সমর্থকদের সংঘর্ষে নিহত ২

নিজস্ব প্রতিবেদক, বরিশাল

মেহেন্দিগঞ্জে আওয়ামী লীগ ও বিদ্রোহী প্রার্থীর সমর্থকদের সংঘর্ষে নিহত ২

বরিশালের মেহেন্দিগঞ্জ উপজেলার দক্ষিণ উলানিয়া ইউনিয়নে আওয়ামী লীগ এবং আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থীর কর্মী-সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষে দুজন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন অন্তত ১২ জন।

রবিবার (১১ এপ্রিল) ভোরে ওই ইউনিয়নের সুলতানী গ্রামে এই হামলা ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এসময় ১০-১২টি বসতঘর এবং দোকানপাট ভাঙচুর করা হয়। বর্তমানে এলাকায় থমথমে পরিস্থিতি বিরাজ করছে। ফের অনাকাঙ্ক্ষিত পরিস্থিতি এড়াতে ওই এলাকায় মোতায়েন করা হয়েছে অতিরিক্ত পুলিশ। এ ঘটনা তদন্ত করে যথাযথ আইনগত ব্যবস্থা নেয়ার কথা জানিয়েছে পুলিশ। 

দক্ষিণ উলানিয়া ইউনিয়ন পরিষদের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান হাবিবুর রহমান লিটন মুঠোফোনে জানান, ভোর আনুমানিক ৪টার দিকে কয়েকশত লোক লাঠি এবং দেশীয় অস্ত্র নিয়ে ওই গ্রামে হামলা চালায়। হামলাকারীরা ওই এলাকার বেশ কিছু দোকান ও ঘরবাড়ি ভাংচুর করে। ওই এলাকার বাসিন্দারা প্রতিরোধ করতে গেলে বেধে যায় তুমুল সংঘর্ষ। সংঘর্ষে পার্শ্ববর্তী আশা গ্রামের বাসিন্দা সাইফুল সর্দার (৩০) নিহত হয়। আহত হয় অন্তত ১২ জন। আহতদের মধ্যে গুরুতর অবস্থায় সাইদ চৌধুরীকে (৩৫) বরিশাল শের-ই বাংলা মেডিকেলে ভর্তি করা হলে বেলা সাড়ে ১১টার দিকে তার মৃত্যু হয়। হামলাকারীরা দক্ষিণ উলানিয়া ইউনিয়নের বিভিন্ন এলাকার বাসিন্দা।

তিনি আরও জানান, সম্প্রতি স্থগিত হওয়া দক্ষিণ উলানিয়া ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনকে কেন্দ্র করে এই হামলার ঘটনা ঘটেছে। হামলাকারীরা আওয়ামী লীগ মনোনীত চেয়ারম্যান প্রার্থী মিলন চৌধুরীর লোক বলে দাবি বর্তমান ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যানের। নিহত সাইফুল সর্দার আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী রুমা বেগমের সমর্থক বলে তিনি জানান। 

মেহেন্দিগঞ্জ থানার ওসি আবুল কালাম জানান, দক্ষিণ উলানিয়া ইউনিয়নে আওয়ামী লীগ প্রার্থী মিলন চৌধুরী এবং বিদ্রোহী প্রার্থী রুমা বেগমের সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ হয়। এতে দুজন নিহত হয় এবং বেশ কয়েকজন আহত হয়। ভাঙচুর করা হয় বেশ কিছু দোকানপাট ও বসত ঘর। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। এ ঘটনা তদন্ত করে মামলা দায়ের সহ প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা নেয়ার কথা বলেন ওসি। 

উল্লেখ্য, এর আগেও ওই ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনকে কেন্দ্র করে একাধিকবার হামলা-সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে।


বিডি-প্রতিদিন/তাফসির 

এই বিভাগের আরও খবর