শিরোনাম
প্রকাশ : ১৭ এপ্রিল, ২০২১ ২১:৪৪
প্রিন্ট করুন printer

বিশ্বনাথে কঠোর লকডাউনে ভাটা!

বিশ্বনাথ প্রতিনিধি

বিশ্বনাথে কঠোর লকডাউনে ভাটা!

সিলেটের বিশ্বনাথ উপজেলায় সর্বাত্মক লকডাউনে ভাটা পড়েছে। প্রথম দিন কঠোর হলেও দিনে দিনে পাল্টে যায় সে চিত্র। চতুর্থ দিনে উপজেলার হাট-বাজারে বেড়েছে অধিক সংখ্যক মানুষের উপস্থিতি। মাছ ও কাঁচা বাজারে মানুষের ভিড়।

এখনও উপেক্ষিত সরকারি নির্দেশনা। মাস্ক ব্যবহারেও অনীহা পথচারীদের। সড়কে বেড়েছে সিএনজি, অটোরিকশা ও ব্যক্তিগত যানবাহনের সংখ্যা। 

সরেজমিন দেখা গেছে, বিশ্বনাথ পুরাতন বাজার ও নতুন বাজারের মানুষের উপস্থিতি চোখে পরার মতো। উভয় পাড়ে মাছ বাজার ও তরি-তরকারি বাজারে মানুষের ভিড় লেগেই আছে। লকডাউনের আওতামুক্ত নয়- এমন দোকানও খোলা রয়েছে। এক শাটারের অর্ধেক নামিয়ে ব্যবসা করছেন অনেকেই। কেউ কেউ দোকানের পেছনের দরজা খুলে বিক্রি করছেন বিভিন্ন মালামাল। 

বাজারে আসা এসব মানুষজন ও ব্যবসায়ীদের অধিকাংশের মুখে মাস্ক নেই। অনেকে মুখে মাস্ক রাখলেও, নেই তা যথাস্থানে। স্বাস্থ্যবিধি মানছেন না কেউ। সড়কে মোটরসাইকেল, সিএনজি, অটোরিকশা ও ব্যক্তিগত যানবাহন চলতে দেখা গেছে। অনেকটা স্বাভাবিক সময়ের মতোই চলছে সবকিছু।

কেবল টহল পুলিশের গাড়ি ও ভ্রাম্যমাণ আদালতের কার্যক্রম দেখলেই এদিক-সেদিক সটকে পড়েন সাধারণ মানুষ। পুলিশ ও মোবাইল কোর্ট চলে গেলে ফের মাস্ক বিহীন গা-ঘেঁষাঘেঁষি করে বাজার সদাই করতে দেখা গেছে অনেককে। 

এ বিষয়ে কথা হলে উপজেলা সহকারী কমিশনার ভূমি ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. কামরুজ্জামান ‘বাংলাদেশ প্রতিদিন’কে বলেন, করোনা সংক্রমণ প্রতিরোধ ও সরকারি বিধি-নিষেধ বাস্তবায়নে প্রতিদিনই প্রশাসনিক কার্যক্রম পরিচালনা করা হচ্ছে। জনসাধারণকে আরও সচেতন হবে। না হয় কঠোর পদক্ষেপ নেয়া হবে।

বিডি প্রতিদিন/আবু জাফর