শিরোনাম
প্রকাশ : ১৮ জানুয়ারি, ২০২১ ০৮:০১
আপডেট : ১৮ জানুয়ারি, ২০২১ ০৮:০৪
প্রিন্ট করুন printer

‘সামরিক শক্তি না থাকলে আলোচনার টেবিলে নতজানু হয়ে থাকতে হয়’

অনলাইন ডেস্ক

‘সামরিক শক্তি না থাকলে আলোচনার টেবিলে নতজানু হয়ে থাকতে হয়’
ব্রিগেডিয়ার জেনারেল গোলামরেজা জালালি

ইরানের বেসামরিক প্রতিরক্ষা সংস্থার প্রধান ব্রিগেডিয়ার জেনারেল গোলামরেজা জালালি বলেছেন, আমেরিকার কঠিন নিষেধাজ্ঞার কারণেই ইরান বর্তমানে ক্ষেপণাস্ত্র ও ড্রোন শক্তিতে এত বড় সাফল্য অর্জন করেছে। সম্প্রতি ইরান এক সামরিক মহড়ায় নিজের ক্ষেপণাস্ত্র ও ড্রোনের সক্ষমতা প্রদর্শন করার পর এ মন্তব্য করলেন তিনি।

জেনারেল জালালি রবিবার তেহরানে এক অনুষ্ঠানে বলেন, মার্কিন নিষেধাজ্ঞা না থাকলে ইরান হয়তো ভিন্ন উপায়ে নিজের সমরাস্ত্রের প্রয়োজন মেটাত; ফলে নিজস্ব প্রযুক্তিতে সামরিক সক্ষমতা অর্জনের কথা চিন্তা করার সুযোগ পেত না।

জেনারেল জালালি তার বক্তব্যের অন্য অংশে বলেন, সামরিক শক্তি অর্জন করতে না পারলে ন্যায়সঙ্গত আলোচনায় অংশগ্রহণ করা সম্ভব হয় না। তিনি বলেন, মার্কিন ক্ষমতার মসনদে ট্রাম্পের উপস্থিতি প্রমাণ করেছে, আজ ও আগামীকালের বিশ্বে শুধুমাত্র আলোচনা ও কূটনীতি দিয়ে বেশিদূর অগ্রসর হওয়া যাবে না; সামরিক শক্তি না থাকলে আলোচনার টেবিলে নতজানু অবস্থানে বসে থাকতে হয়।

ইরান গত শনিবার দূরপাল্লার ক্ষেপণাস্ত্রের সাহায্যে ১ হাজার ৮০০ কিলোমিটার দূরের বিভিন্ন লক্ষ্যবস্তু ধ্বংস করেছে। ইসলামি বিপ্লবী গার্ড বাহিনী বা আইআরজিসি’র দু’দিনব্যাপী এক মহড়ায় নিজের এই সামরিক শক্তি প্রদর্শন করে ইরান।

বিডি প্রতিদিন/কালাম


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর