শিরোনাম
প্রকাশ : বুধবার, ১২ মে, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ১১ মে, ২০২১ ২৩:০৭

করোনাভাইরাস কমপক্ষে ৬৬০০ বার রূপান্তরিত হয়েছে

করোনাভাইরাস কমপক্ষে ৬৬০০ বার রূপান্তরিত হয়েছে
Google News

২০১৯ সালের শেষ দিকে গোটা বিশ্বে যে করোনাভাইরাস আগ্রাসী রূপ ধারণ করে মহামারী সৃষ্টি করেছে তা কমপক্ষে ৬ হাজার ৬০০ বার রূপান্তরিত হয়েছে। সিঙ্গাপুরের এজেন্সি ফর সায়েন্স, টেকনোলজি অ্যান্ড রিসার্চের বায়ো-ইনফরম্যাটিক্স ইনস্টিটিউটের এক গবেষণা প্রতিবেদনে এ তথ্য উল্লেখ করা হয়েছে। সংস্থাটির পরিচালক ড. সেবাস্তিয়ান মুয়ারের-স্ট্রোহ কেন এমন রূপান্তর ঘটেছে এ প্রশ্নের উত্তর দিয়েছেন। তা প্রকাশিত হয়েছে দ্য স্ট্রেইটস টাইমসে। তিনি বলেছেন, যখনই নিজের প্রতিকৃতি সৃষ্টির সময় কোনোরকম একটি ভুল হয়ে যায়, তখনই এ ভাইরাস রূপান্তরিত হয়। এর ফলে তার জিনগত কোডে নতুন কিছু যুক্ত করতে, কিছু বাদ দিতে বা পরিবর্তন করতে পারে। তার এ ভুল তাকে আরও বেশি বেঁচে থাকার সুযোগ সৃষ্টি করে দেয়। যতই অধিক পরিমাণে ভুল হয় ততই তার রূপান্তরিত রূপটি টিকে থাকার সুযোগ বৃদ্ধি পায়। কখনো কখনো তা মূল ভাইরাসকে অতিক্রম করে যায়। দ্য স্ট্রেইটস টাইমসকে উদ্ধৃত করে এসব কথা লিখেছে অনলাইন এক্সপ্রেস ট্রিবিউন। ড. সেবাস্তিয়ান বলেন, এখানে উদাহরণ দেওয়া যায়। ধরুন ডি৬১৪জি রূপান্তরের কথা। গত বছর ফেব্রুয়ারিতে এর বিস্তার লাভ দ্রুততার সঙ্গে শুরু হয়েছিল। কিন্তু এখন করোনাভাইরাসের সব নমুনায় এ রূপান্তরটি পাওয়া যায়। ড. মুয়ারের স্ট্রোহের মতে, ২০১৯ সালের ডিসেম্বরে চীনের উহানে প্রথম এ করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়। তখন থেকে এখন পর্যন্ত এ ভাইরাস তার স্পাইক প্রোটিনে কমপক্ষে ৬ হাজার ৬০০ বার রূপান্তর ঘটিয়েছে।