Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : বৃহস্পতিবার, ৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৪ ০০:০০ টা
আপলোড : ৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৪ ০০:০০

চট্টগ্রামে গাড়ি পোড়ানোর মামলা

সাকা চৌধুরীর অভিযোগ গঠনের শুনানি ১০ নভেম্বর

সাকা চৌধুরীর অভিযোগ গঠনের শুনানি ১০ নভেম্বর

একাত্তরে মানবতাবিরোধী অপরাধের দায়ে মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতা সালাহউদ্দিন কাদের চৌধুরীর (সাকা চৌধুরী) বিরুদ্ধে সীতাকুণ্ডে গাড়ি পোড়ানোর দুই মামলার অভিযোগ গঠনের শুনানি পিছিয়েছে। গতকাল নির্ধারিত দিনে রাষ্ট্রপক্ষে মামলা দুটি অধিকতর তদন্তের আবেদনের ওপর শুনানি হয়। শুনানি শেষে আদালত মামলা দুটি আদেশের জন্য অপেক্ষমাণ রেখেছেন এবং আদালত অভিযোগ গঠনের শুনানির জন্য ১০ নভেম্বর সময় নির্ধারণ করেন। চট্টগ্রামের  জেলা ও দায়রা জজ একেএম নাসিরউদ্দিন মাহমুদ এসব আদেশ দিয়েছেন। চট্টগ্রামের জেলা পিপি অ্যাডভোকেট মোহাম্মদ আবুল হাশেম বলেন, গাড়ি পোড়ানোর দুটি মামলার অধিকতর তদন্তের ওপর শুনানি হয়েছে। বিএনপি নেতা আসলাম চৌধুরীকে অভিযোগপত্র থেকে বাদ দেওয়ায় রাষ্ট্রপক্ষে অধিকতর তদন্তের আবেদন জানানো হয়েছিল। আদালত এ বিষয়ে পরে আদেশ দেবেন এবং ১০ নভেম্বর অভিযোগ গঠনের শুনানি অনুষ্ঠিত হবে। তবে রাষ্ট্রপক্ষে অধিকতর তদন্তের আবেদন ছাড়া ?আসামিপক্ষ ফৌজদারি কার্যবিধির ২৪১ ধারায় মামলা থেকে অব্যাহতির আবেদনও জমা দিয়েছিলেন। তবে সেটির শুনানি হয়নি। গতকাল সকাল সোয়া ১০টায় কঠোর নিরাপত্তার মধ্য দিয়ে সালাহউদ্দিন কাদের চৌধুরীকে আদালতে হাজির করা হয়। শুনানি শেষে বেলা সোয়া ১১টার দিকে তাকে কারাগারে  ফেরত নেওয়া হয়। এতে আদালত এলাকায় কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়। আট প্লাটুন পুলিশ  মোতায়েন করা হয় বলে জানান উপ-পুলিশ কমিশনার (প্রসিকিউশন) নির্মলেন্দু বিকাশ। এর আগে মামলা দুটির অভিযোগ গঠনের শুনানিতে হাজির করানোর জন্য মঙ্গলবার রাতে তাকে কাশিমপুর কারাগার  থেকে চট্টগ্রামে আনা হয়। বুধবার সকালে তাকে আদালতে হাজির করার সময় সাকা চৌধুরী ছিলেন হাস্যোজ্জ্বল। আদালত সূত্রে জানা গেছে, রাজধানীর পল্টনে খালেদা জিয়াকে জনসভার অনুমতি না দেওয়ার প্রতিবাদে এবং সালাহউদ্দিন কাদের চৌধুরীকে গ্রেফতারের গুজব তুলে ২০১০ সালের ৭ নভেম্বর ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের সীতাকুণ্ডের বাঁশবাড়িয়া এবং সলিমপুর এলাকায় পৃথক দুই জায়গায় গাড়ি ভাঙচুর ও গাড়িতে আগুন দেওয়ার ঘটনা ঘটে। এ সময় বাঁশবাড়িয়া থেকে তিনজন এবং সলিমপুর  থেকে একজনকে গ্রেফতার করে পুলিশ। পৃথক ঘটনায় সীতাকুণ্ড থানার এসআই গোলাম ফারুক ভূঁইয়া বাদী হয়ে ওই দিনই দুটি মামলা দায়ের করেন। ওই মামলায়  গ্রেফতার  হওয়া দুজন আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দিয়ে জানান, সালাহউদ্দিন কাদের চৌধুরীর নির্দেশে তারা গাড়ি ভাঙচুর ও আগুন দিয়েছিল। মামলা দুটি তদন্ত শেষে পুলিশ দুটি মামলাতেই সাকা চৌধুরীকে প্রধান আসামি করে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করেন। এর মধ্যে বাঁশবাড়িয়ার ঘটনার মামলায় ১১ জন এবং সলিমপুরের মামলায় ৭ জনকে আসামি করা হয়। মামলার এজাহারে উত্তর জেলা বিএনপির আহ্বায়ক আসলাম চৌধুরীর নাম থাকলেও অভিযোগপত্রে তা বাদ দেওয়া হয়। এ কারণে রাষ্ট্রপক্ষের পিপি ২০১১ সালে এ অভিযোগপত্রের ওপর নারাজি দেন। এর আগে ১৫ জুন অভিযোগ গঠনের শুনানির জন্য সালাহউদ্দিন কাদের চৌধুরীকে আদালতে হাজির করা হয়েছিল।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর

Works on any devices

সম্পাদক : নঈম নিজাম

ইস্ট ওয়েস্ট মিডিয়া গ্রুপ লিমিটেডের পক্ষে ময়নাল হোসেন চৌধুরী কর্তৃক প্লট নং-৩৭১/এ, ব্লক-ডি, বসুন্ধরা আবাসিক এলাকা, বারিধারা, ঢাকা থেকে প্রকাশিত এবং প্লট নং-সি/৫২, ব্লক-কে, বসুন্ধরা, খিলক্ষেত, বাড্ডা, ঢাকা-১২২৯ থেকে মুদ্রিত।
ফোন : পিএবিএক্স-০৯৬১২১২০০০০, ৮৪৩২৩৬১-৩, ফ্যাক্স : বার্তা-৮৪৩২৩৬৪, ফ্যাক্স : বিজ্ঞাপন-৮৪৩২৩৬৫।

E-mail : [email protected] ,  [email protected]

Copyright © 2015-2019 bd-pratidin.com