Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : বৃহস্পতিবার, ৬ ডিসেম্বর, ২০১৮ ০০:০০ টা
আপলোড : ৫ ডিসেম্বর, ২০১৮ ২৩:৪১

ভোটের হাওয়া সারাদেশে

চট্টগ্রামে চার হেভিওয়েট প্রার্থীর সম্পদ বেড়েছে

সাইদুল ইসলাম, চট্টগ্রাম

চট্টগ্রামে চার হেভিওয়েট প্রার্থীর সম্পদ বেড়েছে

চট্টগ্রামে বিএনপির বেশ কয়েকজন হেভিওয়েট প্রার্থী নির্বাচনে অংশগ্রহণ করছেন। এদের মধ্যে কয়েকজন হেভিওয়েট প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বাতিল করেছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)। এসব হেভিওয়েট প্রার্থীর জমা দেওয়া হলফনামায় নিজেদের সম্পদ আগের তুলনায় অনেকাংশে বেড়ে গেছে।

হলফনামায় দেওয়া তথ্যানুযায়ী, বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান ও চট্টগ্রাম-১০ পাহাড়তলী-ডবলমুরিং  আসনে দলের প্রার্থী আবদুল্লাহ আল নোমানের স্থাবর ও অস্থাবর সম্পদের পরিমাণ ২৪ কোটি ৩১ লাখ ৭৪ হাজার ৮৯০ টাকা। নবম জাতীয় সংসদ নির্বাচনের হলফনামায় তার সম্পদের পরিমাণ ছিল এক কোটি ১৩ লাখ ৮৮ হাজার ৮৮৩ টাকা। চট্টগ্রাম-৯ কোতোয়ালি আসনে বিএনপির দলীয় প্রার্থী চট্টগ্রাম মহানগর বিএনপির সভাপতি ডা. শাহাদাত হোসেনের নগদ টাকাসহ স্থাবর-অস্থাবর সম্পত্তির পরিমাণ ৬ কোটি ৩০ লাখ ১৪ হাজার ৬০৬ টাকা। এ দম্পতির নগদ টাকাসহ স্থাবর ও অস্থাবর সম্পত্তির পরিমাণ দাঁড়িয়েছে ৬ কোটি ৮৬ লাখ ৩২ হাজার ৫৭২ টাকা। চট্টগ্রাম-৪ সীতাকুণ্ড আসনে বিএনপির মনোনয়ন পাওয়া বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটির যুগ্ম মহাসচিব আসলাম চৌধুরী (মনোনয়নপত্র বাতিলকৃত) ও তার স্ত্রীর স্থাবর এবং অস্থাবর সম্পত্তি ৩৭৯ কোটি ২২ লাখ ১৬ হাজার ৬৩৫ টাকা। অন্যান্য সম্পদের পরিমাণ দেখিয়েছেন ৩৩৩ কোটি ৬০ লাখ চার হাজার ৮৪৫ টাকা। ২০০৮ সালের তুলনায় তাদের সম্পত্তির পরিমাণ দ্বিগুণেরও বেশি বেড়েছে। চট্টগ্রাম-৮ (চান্দগাঁও-বোয়ালখালী) আসনে বিএনপির প্রার্থী সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী এম মোরশেদ খানের (মনোনয়ন বাতিলকৃত) অস্থাবর সম্পত্তির পরিমাণ ৬৯ কোটি ৩৯ লাখ ৪০ হাজার ৭৯৪ টাকার। তাছাড়া বোয়ালখালী থেকে নির্বাচন করা সাবেক মন্ত্রী মোরশেদ খান ও বাঁশখালী থেকে প্রার্থী হওয়া সাবেক প্রতিমন্ত্রী জাফরুল ইসলামের সম্পদ বেড়েছে কয়েকগুণ। সীতাকুণ্ডের হেভিওয়েট প্রার্থী আসলাম চৌধুরীর সম্পদও আগের তুলনায় বেড়েছে দ্বিগুণ।


আপনার মন্তব্য

এই পাতার আরো খবর