শিরোনাম
প্রকাশ : শনিবার, ৯ নভেম্বর, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ৮ নভেম্বর, ২০১৯ ২৩:২৫

ইন্টারন্যাশনাল কনভেনশন সিটি

বৈরী আবহাওয়ায়ও উদ্যোক্তার ভিড়

নিজস্ব প্রতিবেদক

বৈরী আবহাওয়ায়ও উদ্যোক্তার ভিড়

বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাবে গতকাল রাজধানীর আকাশ ছিল মেঘাচ্ছন্ন। দুপুরের পর শুরু হয় গুঁড়িগুঁড়ি বৃষ্টি। সেই বৈরী আবহাওয়া উপেক্ষা করে ছুটির দিনেও রাজধানীর ইন্টারন্যাশনাল কনভেনশন সিটি বসুন্ধরা-আইসিসিবিতে শুরু হওয়া টেক্সটাইল ও গার্মেন্ট খাতের চার প্রদর্শনীতে ছুটে আসেন হাজারো উদ্যোক্তা। তবে বৈরী আবহাওয়ার কারণে মেলায় সাধারণ দর্শনার্থীর পদচারণ ছিল কম।

গতকাল মেলায় যাদের স্টলে স্টলে ঘুরতে দেখা গেছে তার অধিকাংশই গার্মেন্ট ও টেক্সটাইল খাতের বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের প্রতিনিধি। কেউ এসেছেন নিজের প্রতিষ্ঠানের জন্য প্রতিযোগিতামূলক দামে উন্নতমানের কাঁচামাল সোর্সিং করতে, কেউ এসেছেন গার্মেন্টের জন্য নতুন প্রযুক্তি ও সরঞ্জামের খোঁজে। আবার মেলায় কিছু গার্মেন্ট ও বায়িং হাউসের প্রতিনিধিকে ঘুরতে দেখা গেছে কাস্টমারের সন্ধানে। তবে বিকালে শুধু ঘুরতে আসা দর্শনার্থীর দেখা মেলেনি মেলাপ্রাঙ্গণে।

আইসিসিবির দুটি হলজুড়ে চলছে গার্মেন্ট ও টেক্সটাইল খাতের চার আন্তর্জাতিক প্রদর্শনী। এতে অংশ নিয়েছে এশিয়া ও ইউরোপের ১৪টি দেশ। প্রদর্শনীতে বস্ত্র ও পোশাক শিল্প, ডিজিটাল প্রিন্টিং, সাইন ইন্ডাস্ট্রি, পেপার প্রিন্টিং ও প্যাকেজিং শিল্পের সব ধরনের অত্যাধুনিক যন্ত্রপাতি, সরঞ্জাম ও প্রযুক্তি নিয়ে হাজির হয়েছে উৎপাদনকারী, সরবরাহকারী ও আমদানিকারক প্রতিষ্ঠানগুলো। দরে মিললে মেলাতেই হচ্ছে বি টু বি চুক্তি। ১০ নভেম্বর পর্যন্ত প্রতিদিন সকাল সাড়ে ১০টা থেকে সন্ধ্যা সাড়ে ৭টা পর্যন্ত প্রদর্শনী সবার জন্য উন্মুক্ত। মেলার আয়োজক প্রতিষ্ঠান রেডকার্পেট থ্রিসিক্সটিফাইভের সিইও আহমেদ ইমতিয়াজ বলেন, ‘বৈরী আবহাওয়ার কারণে সাধারণ দর্শনার্থীর সংখ্যা কম। তবে দর্শনার্থী নিয়ে আমরা সন্তুষ্ট, কারণ যারা আসছেন সবাই নিজের বা প্রতিষ্ঠানের প্রয়োজনে আসছেন। আবহাওয়া ভালো থাকলে শুক্রবার দর্শনার্থীর সংখ্যা দ্বিগুণের বেশি হতো। কারণ, এক ছাদের নিচে টেক্সটাইল ও গার্মেন্ট খাতের সবকিছু মিলছে।’


আপনার মন্তব্য