শিরোনাম
প্রকাশ : রবিবার, ১১ এপ্রিল, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ১১ এপ্রিল, ২০২১ ০০:০৮

আওয়ামী লীগ নেতার বাড়ি থেকে ব্যবসায়ীর মরদেহ উদ্ধার

গাইবান্ধা প্রতিনিধি

গাইবান্ধা জেলা আওয়ামী লীগের উপদফতর সম্পাদক মাসুদ রানার বাড়ি থেকে হাসান আলী (৪৫) নামে এক জুতা ব্যবসায়ীর ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। গাইবান্ধা সদরের বল্লমঝাড় ইউনিয়নের নারায়াণপুর গ্রামে মাসুদ রানার বাড়ি থেকে গতকাল দুপুরে পুলিশ লাশটি উদ্ধার করে। হাসান আলী লালমনিরহাট জেলার মৃত হযরত আলীর ছেলে। তিনি এক সময় গাইবান্ধা শহরের স্টেশন রোডে ‘আফজাল সুজ’ নামে জুতার দোকান পরিচালনা করতেন। মৃত হাসান  আলীর ভায়রা মামুনুর রশিদ জানান, হাসান আলী গাইবান্ধায় জুতার ব্যবসা করতেন এবং শহরের থানাপাড়ায় থাকতেন। ব্যবসা ছেড়ে দেওয়ার পর লালমনিরহাটের বাড়িতে চলে যান। মাসুদ রানা এলাকায় সুদের ব্যবসা করেন। তার সঙ্গে আর্থিক লেনদেনের জের ধরে হাসানকে গত ৫ মার্চ মোবাইল ফোনে লালমনিরহাট থেকে গাইবান্ধায় ডেকে আনেন মাসুদ রানা। হাসানের কাছে কোনো সময় ৫ লাখ কোনো সময় ১৯ লাখ ৩২ হাজার টাকা পাবেন বলে দাবি করে তাকে নিজ বাড়িতে আটকে রাখেন মাসুদ। পরে ৬ মার্চ হাসান আলীর স্ত্রী বীথি বেগম গাইবান্ধা থানায় অভিযোগ দায়ের করলে সে নিয়ে থানায় বৈঠকও হয়। কিন্তু আজ (গতকাল) সকাল ১০টার দিকে তারা খবর পান মাসুদ রানার বাড়িতে হাসানের মৃতদেহ ঝুলছে। মামুনুর রশিদের দাবি, মাসুদ রানা হাসানকে মেরে ঝুলিয়ে রেখেছে। গাইবান্ধা সদর থানার ওসি মাহফুজার রহমান বলেন, আর্থিক লেনদেনের দ্বন্দ্বে এমন ঘটনা ঘটতে পারে। আর্থিক লেনদেন নিয়ে থানায় ইতিপূর্বে উভয় পক্ষকে নিয়ে একটি বৈঠক হয়েছিল। এটি হত্যা না আত্মহত্যা তা নিশ্চিত হওয়া যায়নি। নিহতের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় মাসুদ রানাকে আটক করা হয়েছে।