শিরোনাম
প্রকাশ : সোমবার, ১৯ জুলাই, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৯ জুলাই, ২০২১ ০১:৫৬

চট্টগ্রামে করোনা আক্রান্ত শতভাগ শিশুর শরীরে ডেল্টা ভ্যারিয়েন্ট

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম

Google News

চট্টগ্রামের দুই হাসপাতালে গত জুন ও জুলাইয়ের প্রথম সপ্তাহ পর্যন্ত করোনা আক্রান্ত হয়ে চিকিৎসা নেওয়া ১২ শিশুর শরীরেই ডেল্টা ভ্যারিয়েন্টের উপস্থিতি পাওয়া গেছে। আক্রান্ত শিশুদের ৮০ ভাগেরই বয়স ১০ বছরের নিচে। সর্বনিম্ন আট মাস বয়সের শিশুর শরীরেও ডেল্টা ভ্যারিয়েন্ট শনাক্ত হয়েছে। গতকাল চট্টগ্রামের একদল গবেষক এ তথ্য জানান।

করোনাভাইরাসের জীবনরহস্য উন্মোচনবিষয়ক এ গবেষণায় বলা হয়, চট্টগ্রামের মা ও শিশু হাসপাতাল এবং জেনারেল হাসপাতালে করোনায় আক্রান্ত ওই ১২ শিশু         এসেছিল। এদের মধ্যে ৬ জন  মেয়ে। ৮০ ভাগ শিশুর বয়স ১০ বছরের মধ্যে। বাকি ২০ ভাগের বয়স ১৬ বছরের মধ্যে। ৯৫ ভাগ শিশুর উপসর্গ হিসেবে জ্বর এবং ৭০ ভাগের সর্দি-কাশি ছিল। এক শিশুর শরীরে কোনো উপসর্গই ছিল না। ১২ জনের মধ্যে ৮ জন বর্তমানে সুস্থ ও ৪ জন এখনো চিকিৎসাধীন। গবেষণায় নেতৃত্ব দেন চট্টগ্রাম জেনারেল হাসপাতালের করোনা ইউনিটের বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক ডা. এইচ এম হামিদুল্লাহ মেহেদী ও ডা. আব্দুর রব মাসুম এবং চট্টগ্রাম মা ও শিশু হাসপাতালের মাইক্রোবায়োলজি বিভাগের চিকিৎসক ও অধ্যাপক ডা. সঞ্জয় কান্তি বিশ্বাস ও ডা. নাহিদ সুলতানা। সার্বিক পরিকল্পনায় ছিলেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের জেনেটিক ইঞ্জিনিয়ারিং অ্যান্ড বায়োটেকনোলজি বিভাগের শিক্ষক ড. আদনান মান্নান। জিনোম সিক্যুয়েন্সিং-এর তত্ত্বাবধানে ছিল আন্তর্জাতিক উদরাময় গবেষণা  কেন্দ্র বাংলাদেশের (আইসিডিডিআরবি) ভাইরোলজি বিভাগের গবেষক দল। এছাড়াও গবেষক দলে ছিলেন চট্টগ্রাম জেনারেল হাসপাতালের চিকিৎসক ডা. মো. মিনহাজুল হক, রাজদীপ বিশ্বাস, আকরাম  হোসেন এবং চট্টগ্রাম মা ও শিশু হাসপাতালের ডা. ফাহিম হাসান রেজা।