মঙ্গলবার, ৯ আগস্ট, ২০২২ ০০:০০ টা

বিকল্প জ্বালানির ব্যবস্থা করুন

শহিদুল্লাহ আজিম

বিকল্প জ্বালানির ব্যবস্থা করুন

জ্বালানি খাতের বর্তমান পরিস্থিতি বিবেচনায় নিয়ে তেল ও গ্যাসের বিকল্প জ্বালানির ব্যবস্থা করতে সরকারকে পরামর্শ দিয়েছেন বিজিএমইএ সহসভাপতি মো. শহিদুল্লাহ আজিম। তিনি বলেন, ব্যবসায়ীদের সঙ্গে কোনো ধরনের আলাপ-আলোচনা না করেই রাতারাতি তেলের দাম বাড়ানো হয়েছে। এতে উৎপাদন কমেছে, আবার উৎপাদন খরচও বেড়েছে। লোডশেডিং ও উৎপাদন খরচ নিয়ে উভয় সংকটে পড়েছেন পোশাকশিল্প মালিকরা। কারণ, ক্রেতাদের কাছ থেকে যখন ক্রয়াদেশ নেওয়া হয়েছে, তখন বাড়তি জ্বালানি মূল্য বিবেচনা করা হয়নি। এটা আগে ঘোষণা দিয়ে করলে ক্রেতাদের সঙ্গে মূল্য দরকষাকষির সুযোগ থাকত। গতকাল বাংলাদেশ প্রতিদিনের সঙ্গে আলাপকালে এ কথা বলেন বাংলাদেশ পোশাক প্রস্তুতকারক ও রপ্তানিকারক সমিতি-বিজিএমইএ সহসভাপতি মো. শহিদুল্লাহ আজিম। তিনি বলেন, লোডশেডিং কমাতে হবে। পরিবহন খাতে ৩০ শতাংশ ভাড়া বেড়েছে। লোডশেডিংয়ে ডিজেলের চাহিদা ও দাম দুটোই বেড়েছে। ফলে ১৮ থেকে ২০ শতাংশ উৎপাদন খরচ বেশি হবে। এটা সমন্বয় করতে হবে। তিনি আরও বলেন, বিশ্ববাজারে তেলের দাম কমছে, বাংলাদেশে উল্টো বাড়ানো হয়েছে। এ অবস্থায় বিশ্ববাজারে টিকে থাকা আমাদের জন্য কষ্টকর হবে। পুরনো অর্ডারগুলোতে প্রচুর লোকসান হবে। অনেক কারখানা নতুন অর্ডার নিতে পারবে না। ফলে তা বন্ধ হয়ে যাবে। আবার এ মুহূর্তে কারখানায় গ্যাস সংকট চলছে। সরকার নির্দেশিত লোডশেডিংয়ের কারণে বিদ্যুৎ থাকে না ৫ থেকে ৬ ঘণ্টা। এ কারণে দিনে ৬ ঘণ্টার জন্য জেনারেটর ব্যবহার করতে হয়। জেনারেটরের ব্যবহার বাড়ায় বেশি জ্বালানি তেল ব্যবহার করতে হচ্ছে। এ অবস্থায় জ্বালানি তেলের মূল্য বৃদ্ধি পোশাক খাতের জন্য বড় চ্যালেঞ্জ। কারণ, আমাদের হাতে প্রচুর অর্ডার রয়েছে। বড় অঙ্কের লোকসান দিয়ে এসব অর্ডারের পণ্য উৎপাদন করতে হবে। তার মতে, জ্বালানি তেলের দাম বাড়ায় দেশে পরিবহন ভাড়া বাড়বে, ট্রাক ভাড়া বাড়বে, জিনিসপত্রের দাম বাড়বে, বাড়বে মুদ্রাস্ফীতি। এসবের সঙ্গে শ্রমিকদের বেতনও বাড়াতে হবে। লস থেকে বেঁচে থাকতে হলে অনেক কারখানা বন্ধ করা ছাড়া কেনো উপায় থাকবে না।

সর্বশেষ খবর