Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : ২২ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ১১:৫৯

নিউইয়র্কে ৩ দিনব্যাপী ‘বঙ্গবন্ধু বইমেলা’

এনআরবি নিউজ, নিউইয়র্ক থেকে

নিউইয়র্কে ৩ দিনব্যাপী ‘বঙ্গবন্ধু বইমেলা’

নিউইয়র্কে তিন দিনব্যাপী ‘বঙ্গবন্ধু বইমেলা-২০১৯’ এর উদ্বোধনী বক্তব্যে লেখক ও সাংবাদিক আনিসুল হক বলেছেন, বঙ্গবন্ধু বইমেলার উদ্বোধন করে লেখক আনিসুল হক বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্ম শতবর্ষকে সামনে রেখে নিউইয়র্কের এই বইমেলা অসাধারণ একটি উদ্যোগ। 

তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধু নিজে একজন সুলেখক ছিলেন। তার কারাগারের রোজনামচা এবং অসমাপ্ত আত্মজীবনী পড়লেই আমরা সেটা বুঝতে পারি। 
বঙ্গবন্ধু লেখকদের খুব ভালোবাসতেন উল্লেখ করে আনিসুল হক আরও বলেন, বঙ্গবন্ধু ছিলেন সবার মানুষ। তাই সবার অংশগ্রহণে এই মেলাকে সফল করতে হবে।

জ্যাকসন হাইটসের পিএস ৬৯-এ এই মেলা শুরু হয় শুক্রবার সন্ধ্যায়। 

এর আগে ডাইভার্সিটি প্লাজায় উদ্বোধনী সমাবেশ হয়। সেখানে বেলুন উড়িয়ে উৎসব-আমেজে এই মেলার উদ্বোধন করা হয়। 

এসময় রাজনীতিক, শিক্ষক, সাহিত্যিক, সংস্কৃতিকর্মী ও সাধারণ প্রবাসীদের একটি মিলনমেলায় পরিণত হয় পুরো এলাকা। 

যুক্তরাষ্ট্রে ‘মুজিব বর্ষ উদযাপন পরিষদ’র উদ্যোগে বইমেলার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের সভাপতি ড. সিদ্দিকুর রহমান বলেন, মহান মুক্তিযুদ্ধের সময় আমেরিকা বিরোধিতা করেছিল। আজ সেই মাটিতেই জাতির পিতা স্মরণে বইমেলা হচ্ছে। এটিকে ঐতিহাসিক ঘটনা হিসেবে উল্লেখ করেন তিনি।

অনুষ্ঠানে ছিলেন আয়োজনের উপদেষ্টা বেলাল বেগ, সাংবাদিক সৈয়দ মোহাম্মদ উল্যাহ, ডা. ফেরদৌস খন্দকার, আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক আব্দুস সামাদ আজাদ, লেখক শিব্বীর আহমেদ, নিউইয়র্ক মহানগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি জাকারিয়া চৌধুরী, জেবিবিএর সভাপতি আবুল ফজল দিদারুল ইসলাম, কবি ফকির ইলিয়াস, শামস আল মমীন, তুলি ইলিয়াস, আওয়ামী লীগ নেতা শরাফ সরকার, মহিউদ্দিন দেওয়ান, আশরাফুজ্জামান, মোর্শেদা জামান, ড. বাতেন, যুক্তরাষ্ট্র সেক্টর কমান্ডারস ফোরামের কোষাধ্যক্ষ আলিম খান, কমিউনিটি লিডার বেদারুল ইসলাম বাবলা, নারী বিষয়ক সম্পাদক সবিতা দাস, লেখিকা পপি চৌধুরী প্রমুখ।

বঙ্গবন্ধু বইমেলার সদস্য সচিব শিবলি সাদেক শিবলুর সঞ্চালনায় এতে বক্তব্য রাখেন আহ্বায়ক আবু রায়হান, মুজিব বর্ষ উদযাপন পরিষদ, যুক্তরাষ্ট্রের আহ্বায়ক মিশুক সেলিম এবং সদস্য সচিব নুরল আমিন বাবু।

এরপর পিএস ৬৯ এ সকলে সমবেত হলে জাতীয় সঙ্গীত পরিবেশন করা হয়। শ্রদ্ধা জানানো হয় হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর প্রতি। আলোচনা অনুষ্ঠানের পর সেখানে একটি সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ছিল। 

দ্বিতীয় দিন অপরাহ্নে প্রবাসের কবিরা বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে লেখা কবিতা পাঠ করেন। কবি শামস আল মমীনের সঞ্চালনায় এ পর্বে অংশ নেন কবি ফকির ইলিয়াস, ফারহানা ইলিয়াস তুলি, ছন্দা বিনতে সুলতান, মিশুক সেলিম, জেবুন্নেসা জ্যোৎস্না, আব্দুস শহীদ, রোকেয়া দীপা, ইশতিয়াক রুপু, রওশন হক, আনোয়ার সেলিম। বইমেলার বিশেষ অতিথি আনিসুল হকও একটি কবিতা পাঠ করেছেন বিপুল করতালির মধ্যে। 

এ মেলায় শুধুমাত্র বঙ্গবন্ধু এবং মুক্তিযুদ্ধ-বাংলাদেশ সম্পর্কিত বই নিয়ে ৬টি প্রতিষ্ঠান স্টল দিয়েছে। সাধারণ প্রবাসীরা দারুণভাবে আপ্লুত একসঙ্গে বঙ্গবন্ধুর বই পেয়ে। 

বিডি প্রতিদিন/কালাম


আপনার মন্তব্য