শিরোনাম
প্রকাশ : রবিবার, ১৯ জানুয়ারি, ২০২০ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৮ জানুয়ারি, ২০২০ ২৩:৫৭

রানাতুঙ্গা-জয়সুরিয়ায় ম্লান পাকির- প্রেমলাল

লঙ্কান ফুটবলে সোনালি দিন

ক্রীড়া প্রতিবেদক

ক্রিকেটে শ্রীলঙ্কা এখন বিশ্বের অন্যতম শক্তিশালী দেশ। বিশ্বের সবকটি শিরোপা তাদের ঘরে উঠে এসেছে। অথচ এক সময় ফুটবল ছিল শ্রীলঙ্কার সবচেয়ে জনপ্রিয় খেলা। ১৯৯৬ সালে রানাতুঙ্গার নেতৃত্বে শ্রীলঙ্কা ৫০ ওভারের ওয়ানডেতে বিশ্ব জয়ের পর দৃশ্য বদলে যায়। এখন সেই দেশের ফুটবল অনেকটা আড়ালেই পড়ে গেছে। তবু ফিফার সদস্য বলে বিশ্বকাপ ও এশিয়ান বাছাইপর্ব ছাড়াও সাফ এবং এস এ গেমস ফুটবলে নিয়মিত অংশ নিচ্ছে। শ্রীলঙ্কা ফুটবলে যতটুকু এগিয়েছে এর পেছনে তাদের বিখ্যাত গোলরক্ষক লাওন পিরিচ, পাকির আলী ও প্রেমলালের বড় অবদান রয়েছে। পিরিচ মাত্র দুবছর খেললেও পাকির আলি ও  প্রেমলাল দীর্ঘ সময় ঢাকা আবাহনীতে খেলেছেন। বাংলাদেশের বিখ্যাত দলে খেলেছেন বলে শ্রীলঙ্কার অনেক তরুণ অনুপ্রাণিত হয়ে ফুটবলকে বেছে নেয়। পাকির ও প্রেমই লঙ্কান ফুটবলে আলো জ্বালিয়েছেন। আবাহনীতে খেলার কারণে ফুটবলে শ্রীলঙ্কার জনপ্রিয়তাও তুঙ্গে উঠেছিল। রানাতুঙ্গা ও জয়সুরিয়ারা ক্রিকেটে বিশ্বকাপ জেতালে তা ম্লান হয়ে যায়।


আপনার মন্তব্য