শিরোনাম
প্রকাশ : বুধবার, ২৪ মার্চ, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ২৩ মার্চ, ২০২১ ২৩:২২

ঝলমলে চুলের রহস্য...

ঝলমলে চুলের রহস্য...

চৈতালি আবহাওয়া জানান দিচ্ছে আগত গরমের তীব্রতা ও বাতাসের আর্দ্রতাহীনতা। বাইরে বের হলে রোদের প্রখরতা থেকে রেহাই নেই। আর সূর্যের উত্তাপটা যেন ছড়ায় একেবারে মাথা থেকেই। ঘেমে-নেয়ে চুলের চিটচিটে অবস্থা। এ থেকে মাথায় খুশকি, চুল নি®প্রাণ হয়ে যাওয়া, চুল পড়ার মতো সমস্যার সঙ্গে কমবেশি আমরা সবাই পরিচিত।

 

* সাধারণত বাইরের ধুলাবালি, সূর্যের অতি বেগুনি রশ্মি- নানা কারণেই চুল হারায় নিজস্বতা। হয়ে যায় প্রাণহীন, নিষ্প্রভ এবং অনুজ্জ্বল। যেহেতু চৈত্রের খরতাপের গরম, তাই মাথার স্বাস্থ্যকর স্ক্যাল্প পেতে চুলের গোড়া ঘেমে গেলে পাখার ঠান্ডা বাতাসে চুলটা শুকিয়ে নেওয়াই ভালো। হেয়ার ড্রায়ার ব্যবহার করে নয়। ভেজা ও ঘর্মাক্ত চুল বেঁধে রাখবেন না।

* চুলের কোমলতা বজায় রাখতে সব সময় পরিষ্কার পানি ব্যবহার করুন। পাশাপাশি নিয়মিত শ্যাম্পু ও কন্ডিশনিং করুন। তবে সম্ভব হলে শ্যাম্পু করার আগে চুলে তেল ব্যবহার করুন। চাইলে সমপরিমাণ কন্ডিশনারের সঙ্গে অলিভ অয়েল মিশিয়ে চুলে লাগিয়ে ১৫ মিনিট পর ধুয়ে ফেলুন।

* চুলে হট অয়েল ম্যাসাজ দারুণ কার্যকরী। এটি চুলের উজ্জ্বলতা বাড়ায়। মাথার ত্বক নরম রাখে। এ জন্য যে কোনো তেল হালকা গরম করে নিয়ে মাথার তালুতে ম্যাসাজ করুন। ঘণ্টাখানেক রেখে একটা তোয়ালে গরম পানিতে ভিজিয়ে মাথায় জড়িয়ে রেখে দশ মিনিট পর শ্যাম্পু করে ফেলুন।

* গরমে চুল ভালো রাখতে টকদই, মেহেদি পাতা ও লেবুর রস মিশ্রণ হিসেবে ব্যবহার করতে পারেন। এতে খুশকি দূর হবে, পাশাপাশি চুলের ঔজ্জ্বল্য বাড়বে। চাইলে ডিমের সাদা অংশ, পাকা কলা, টকদইয়ের মিশ্রণও ব্যবহার করতে পারেন।

 

কার্যকরী হেয়ারপ্যাক

* তিন টেবিল চামচ অ্যালোভেরা জেলের সঙ্গে দুই চা চামচ টকদই মেশান। তারপর মিশ্রণটি চুলে লাগিয়ে পরে নিন একটি শাওয়ার ক্যাপ। সারা রাত এভাবে রেখে সকালে শ্যাম্পু করে ফেলুন। এই হেয়ার প্যাক আপনার সাধের চুলকে ঝলমলে করার পাশাপাশি করে তুলবে স্বাস্থ্যোজ্জ্বল।

* তিনটি ডিম, দুই টেবিল চামচ অলিভ অয়েল অথবা নারকেল তেল এবং এক টেবিল চামচ মধু ভালো করে মিশিয়ে নিতে হবে। চুলে ভালো করে লাগিয়ে অপো করতে হবে ৩০ মিনিট। তারপর কুসুম গরম পানি দিয়ে শ্যাম্পু করে ফেলতে হবে।

* চুলের উজ্জ্বলতা ফেরাতে জবা ফুলের পাপড়ি সেরা। সারা রাত পানিতে জবা ফুলের পাপড়ি ভিজিয়ে রাখুন। সকালে ব্লেন্ড করে পুরো চুলে ঘণ্টাখানেক লাগিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

 

লেখা : নূরজাহান জেবিন


আপনার মন্তব্য