শিরোনাম
প্রকাশ : রবিবার, ১ মার্চ, ২০১৫ ০০:০০ টা
আপলোড : ১ মার্চ, ২০১৫ ০০:০০

মামলা থেকে অব্যাহতি পাচ্ছেন রংপুরের ১৮ হাজার কৃষক

মামলা থেকে অব্যাহতি পাচ্ছেন রংপুরের ১৮ হাজার কৃষক

চলমান সার্টিফিকেট মামলা থেকে অব্যাহতি পাচ্ছেন রংপুর বিভাগের আট জেলার ১৮ হাজার কৃষক। খেলাপি ঋণ গ্রহীতা হিসেবে তাদের বিরুদ্ধে সার্টিফিকেট মামলা করে রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন ব্যাংকগুলো। মামলার কারণে অনেক কৃষককে গ্রেফতারও করা হয়। কৃষকদের বিরুদ্ধে চলমান সার্টিফিকেট মামলা আপসরফার মাধ্যমে প্রত্যাহার বা নিষ্পত্তি করতে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের নির্দেশনা পাওয়ার পর তা কার্যকরের প্রক্রিয়া শুরু করেছে। জানা গেছে, সবচেয়ে বেশি কৃষি ঋণ বিতরণকারী রাজশাহী কৃষি উন্নয়ন ব্যাংকের (রাকাব) চেয়ারম্যান ড. শাহ নওয়াজ আলী বলেন, মামলা হয়েছে এমন কৃষকের সঙ্গে যোগাযোগের মাধ্যমে ঋণ পরিশোধে ব্যর্থতার কারণ উদঘাটন করে নতুন ঋণ প্রদান অথবা পুনঃতফসিল সুবিধা দিয়ে মামলা নিষ্পত্তির নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। গত ২৩ ফেব্রুয়ারি এ সংক্রান্ত একটি পরিপত্র জারি করে বাংলাদেশ ব্যাংক। একই সঙ্গে প্রাকৃতিক দুর্যোগে ক্ষতিগ্রস্ত কৃষকদের খেলাপি ঋণ আদায় স্থগিত রাখা অথবা নতুন ঋণ প্রদান অথবা পুনঃতফসিল সুবিধা দিতে নির্দেশনা দেয়। পাশাপাশি নতুন করে সার্টিফিকেট মামলা না করারও নির্দেশ দেওয়া হয় ওই পরিপত্রে।

সূত্র জানায়, গত বছর পর্যন্ত রংপুর বিভাগের আট জেলায় রাকাব, সোনালী, জনতা, অগ্রণী ও রূপালী ব্যাংকের কৃষি ঋণ যথাসময়ে পরিশোধ না করায় ১৮ হাজার কৃষকের বিরুদ্ধে সার্টিফিকেট মামলা হয়েছে। এর মধ্যে রাকাবের মামলার সংখ্যা ১৪ হাজার। রাকাবই সবচেয়ে বেশি কৃষি ঋণ দিয়ে থাকে। মামলার কারণে আট জেলায় ২২০ জন কৃষককে গ্রেফতারও করা হয়। পরে তারা জামিনে বেরিয়ে আসেন।

রাকাব রংপুর জোনের ভারপ্রাপ্ত মহাব্যবস্থাপক আবদুল লতিফ জানান, বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্দেশনা অনুযায়ী মামলা থেকে কৃষকদের মুক্তি দেওয়ার প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে। এটা সরকারের সময়োপযোগী সিদ্ধান্ত। এতে ঋণ আদায় সহজতর হবে। কৃষকরা ঋণের বোঝা থেকে পরিত্রাণ পাবেন বলে মন্তব্য করেন তিনি। একই মন্তব্য করেন সোনালী ব্যাংক রংপুর জোনের মহাব্যবস্থাপক কামরুজ্জামান চৌধুরী।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর