শিরোনাম
প্রকাশ : বুধবার, ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ০০:০০ টা
আপলোড : ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ০১:৩৫

চাঞ্চল্যকর তথ্য দিলেন স্ত্রী

খুনের পর লাশের সঙ্গে ৩ দিন এক ঘরে

গাজীপুর প্রতিনিধি

গাজীপুরের শ্রীপুরে ব্যবসায়ীকে খুন করে মুখ অ্যাসিডে ঝলসে দিয়ে লাশ তোষকে মুড়িয়ে রাখার ঘটনায় নিহতের স্ত্রী ও শ্বশুরকে গ্রেফতার করেছেন র‌্যাব-১ এর সদস্যরা। রাজধানীর দক্ষিণ খান এলাকা থেকে সোমবার রাতে তাদের গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতাররা হলেন- নিহত ব্যবসায়ীর স্ত্রী সামিরা আক্তার ও শ্বশুর আলী হোসেন। নিহত আব্দুর রহমান শ্রীপুর উপজেলার গাজীপুর উত্তরপাড়ার নাছিম উদ্দিনের ছেলে।

গ্রেফতার সামিরার বরাত দিয়ে র‌্যাব-১ এর গাজীপুরের কোম্পানি কমান্ডার লে. কমান্ডার আব্দুল্লাহ আল মামুন জানান, সামিরা নিহত আবদুর রহমানের চতুর্থ স্ত্রী। রহমান পেশায় জমি ব্যবসায়ী ছিলেন। গত ১০ ফেব্রুয়ারি তিনি তার ব্যবসায়িক পার্টনারের সঙ্গে স্ত্রী সামিরাকে দিয়ে ইচ্ছার বিরুদ্ধে অনৈতিক কাজে লিপ্ত করেন। ওই দিন রাত ১১টার দিকে সে (রহমানের পার্টনার) তাদের বাসা থেকে চলে যান। ১১ ফেব্রুয়ারি ভোর রাতে ধারালো দা দিয়ে স্বামী রহমানকে ঘুমন্ত অবস্থায় গলা কেটে লাশ তোষকে মুড়িয়ে রাখেন সামিরা। লাশ যেন চেনা না যায় এ জন্য মুখ অ্যাসিড দিয়ে ঝলসে দেওয়া হয়। পরে সামিরা তিন দিন একই বাসায় অবস্থান করেন। লাশ সরিয়ে ফেলতে ব্যর্থ হয়ে বাবা-মার সহায়তায় পালিয়ে যান। সামিরা র‌্যাবকে আরও জানান, ২০১৮ সাল থেকে আবদুর রহমান ব্যবসার স্বার্থে আবার কখনো টাকার বিনিময়ে তার পার্টনারদের সঙ্গে তাকে (সামিরা) অনৈতিক কাজে লিপ্ত হতে বাধ্য করত। এ নির্যাতন সহ্য করতে না পেরে সামিরা ডিভোর্স চাইলে তাকেসহ তার মা-ভাইকে খুন করার হুমকি দেয় রহমান।

উল্লেখ্য, গত ১৮ ফেব্রুয়ারি রাত সাড়ে ৩টার দিকে শ্রীপুর পৌরসভা কেওয়া পশ্চিম খন্ড এলাকার একটি ফ্ল্যাট থেকে এক ব্যক্তির ঝলসানো গলাকাটা লাশ উদ্ধার করে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। পরে নিহতের পরিচয় জানা যায়।


আপনার মন্তব্য