Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : ৯ আগস্ট, ২০১৯ ১২:৩৫

যানজটে দাঁড়িয়ে থেকে গাড়ি চলাচল স্বাভাবিক করে দিলেন মমতা

অনলাইন ডেস্ক

যানজটে দাঁড়িয়ে থেকে গাড়ি চলাচল স্বাভাবিক করে দিলেন মমতা

মুখ্যমন্ত্রী আসবেন বলে রাস্তায় গাড়ি আটকে রাখা হয়েছে। এতে সড়কে দীর্ঘ যানজটের সৃষ্টি হয়। কিন্তু বিষয়টা ভালো লাগেনি স্বয়ং মুখ্যমন্ত্রীরই। যখন জানলেন তার কারণে এতগুলো গাড়ি ও মানুষকে দাঁড় করিয়ে রাখা হয়েছে তখন তিনি নিজে দাঁড়িয়ে থেকে অন্যদের যাওয়ার পথ করে দিলেন। আর এমনই কাজ করে বাহবা পাচ্ছেন ভারতের পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি।

ভারতীয় গণমাধ্যম মহানগর টোয়েন্টিফোরের খবর, 'ভিভিআইপি’ ট্যাগটা তার নামের পাশে আপসেই চলে আসে। কিন্তু তিনি নিজে ভিআইপি কায়দা অনুসরণ করতে নারাজ। বরং মাটিতে মিশে চলতেই বেশি ভালোবাসেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি। নিরাপত্তার বেষ্টনী পেরিয়ে অতীতে বহুবার অবলীলায় সাধারণ মানুষের সঙ্গে মিশে গেছেন। কখনও দুর্গতদের পাশে দাঁড়িয়েছেন। বৃহস্পতিবার সেরকমই এক মানবিক মুখ্যমন্ত্রীর দেখা কলকাতা। এমন একজন মুখ্যমন্ত্রীর যিনি নিজের ভিভিআইপি কনভয়ের জন্য জনসাধারণকে অসুবিধায় ফেলতে নারাজ। উল্টে নিজের কনভয়কে সাইডে করে সাধারণ নাগরিকদের যাতায়াতের সুবিধা করে দিলেন তিনি।

বৃহস্পতিবার চেন্নাই থেকে কলকাতা ফেরেন মুখ্যমন্ত্রী। বিকেলে বিমানবন্দর থেকে ফেরার সময় শহরে ঢোকার মুখে ভিআইপি রোডে তেঘরিয়া মোড়ের কাছে দেখতে পান লম্বা গাড়ির সারি। লাইন দিয়ে গাড়ি দাঁড়িয়ে থাকতে দেখেই মমতা পুলিশের কাছে জানতে চান, কী হয়েছে? এত ভিড় কেন? এত বাসই বা দাঁড়িয়ে কেন? উত্তরে দায়িত্বপ্রাপ্ত পুলিশকর্মী জানান, মুখ্যমন্ত্রীর কনভয়ের নিরাপত্তা দিতে এবং যানজট এড়াতে গাড়ি ও বাসগুলোকে সার্ভিস লেনে দাঁড় করিয়ে রাখা হয়েছে। এই কথা শুনে সঙ্গে সঙ্গে মুখ্যমন্ত্রী বলে উঠেন, ‘প্রয়োজনে আমি দাঁড়াব। আমার জন্য সাধারণ মানুষের অসুবিধা হলে মানব না। দরকার হলে ভিআইপিদের আটকাও। সাধারণ মানুষের যেন অসুবিধা না হয়।’

পুলিশ সূত্রে খবর, ঘটনাস্থলে প্রায় ৮-১০ মিনিট দাঁড়িয়ে থেকে অন্যান্য গাড়ি চলাচল স্বাভাবিক করে দেন। এদিকে মুখ্যমন্ত্রীর গাড়ি দাঁড়িয়ে থাকতে দেখে সাধারণ জনতার মধ্যেও ভিড় বাড়ে। চতুর্দিক থেকে ‘দিদি দিদি’ চিৎকার ও ছবি তোলার হিড়িক পড়ে যায়। যার জেরে ভিড়ের পরিস্থিতি সৃষ্টি হতে শুরু করে। তবে যান চলাচল স্বাভাবিক হতেই সেখান থেকে বেরিয়ে যান মমতা।

বিডি-প্রতিদিন/মাহবুব


আপনার মন্তব্য