২ আগস্ট, ২০২১ ২২:৪১

‘খেলা হবে’ প্রকল্পের উদ্বোধন করে মমতা বললেন, খেলা আবার হবে

দীপক দেবনাথ, কলকাতা

‘খেলা হবে’ প্রকল্পের উদ্বোধন করে মমতা বললেন, খেলা আবার হবে

সোমবার বিকালে কলকাতার নেতাজী ইন্ডোর স্টেডিয়ামে এক অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে ‘খেলা হবে’ প্রকল্পের শুভ উদ্বোধন করেন মমতা

‘খেলা হবে’ প্রকল্পের সূচনা করলেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি। সোমবার বিকালে কলকাতার নেতাজী ইন্ডোর স্টেডিয়ামে এক অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে ‘খেলা হবে’ প্রকল্পের শুভ উদ্বোধন করেন তিনি।

বক্তব্যের শুরুতেই উপস্থিত দর্শকদের উদ্দেশ্যে মমতা বলেন, ‘আপনারা মানুন চাই না মানুন ‘খেলা হবে’ কথাটা খুব জনপ্রিয় হয়ে গেছে। আমরা তো মানি। গোটা দিল্লিতেও আওয়াজ উঠছে, সংসদ থেকে শুরু করে উত্তরপ্রদেশ, রাজস্থান সব জায়গায়। খেলা কিছুটা হয়েছে, আবার হবে। খেলা ছাড়া তো জীবন চলে না। খেলার মধ্যে দিয়েই ঐক্য, সম্প্রতি, সুস্বাস্থ্য, সভ্যতা গড়ে ওঠে।’

মমতা আরও বলেন ‘আমি মনে করি খেলা হবে স্লোগানটা যদি চিরস্থায়ী করতে হয়, তবে বিভিন্ন খেলা ও কর্মসূচির মাধ্যমে এই স্লোগানকে কার্যকরী করতে হবে। এই স্লোগানটা এতটাই জনপ্রিয় যে আমি যখন নির্বাচনী প্রচারণার সময় গ্রামেগঞ্জে যেতাম, আমি নামতে না নামতেই চিৎকার শুরু হয়ে যেতো খেলা হবে। বাংলার মানুষ একে এতটাই ভালোবাসে। আজকে সংসদে স্লোগান উঠছে, বিভিন্ন রাজ্যে স্লোগান উঠছে। এটা বাংলার গর্ব, বাংলাই পথ দেখিয়েছে। আগামী দিনে সারা দেশেই খেলা হবে এবং সেই ‘খেলা হবে’ স্লোগানকে আপনাদেরই এগিয়ে নিয়ে যেতে হবে।’ 

আগামী ১৬ আগস্ট ‘খেলা হবে’ দিবস পালন করা হবে। এটা যেন মানুষের মনে লেগে থাকে। খেলাধুলার জগতে এটা আলোড়ন সৃষ্টি করবে।’ খেলা হবে দিবস উপলক্ষে রাজ্য সরকারের তরফে ১ লাখ গরিব ক্লাবকে প্রদানের জন্য ফুটবল তৈরি করা হয়েছে বলেও জানান মমতা। খেলাশ্রী প্রকল্পের আওতায় রাজ্যের ২৫ হাজার ক্লাবকে ৫ লাখ রুপি করে অনুদান দেওয়া হয়েছে। 

সম্প্রতি পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য বিধানসভার নির্বাচনী প্রচারণায় ‘খেলা হবে’ স্লোগানই হয়ে উঠেছিল ক্ষমতাসীন দল তৃণমূল কংগ্রেসের প্রধান হাতিয়ার। এরইমধ্যে প্রচারণায় বেরিয়ে পায়ে মেদিনীপুরের নন্দীগ্রামে বাম পায়ে গুরুতর আঘাত পেয়েছিলেন তৃণমূল প্রধান মমতা ব্যানার্জি, পরে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিল তাকে, ভেঙে গিয়েছিল তার পা। এরপর ভাঙা পায়ে প্রচারণায় দেখা গিয়েছিল এবং তাকে বলতে শোনা গিয়েছিল যে ভাঙা পায়েই খেলা হবে। যদিও বিরোধীরা তার ভাঙা পা নিয়ে কটাক্ষ করতে ছাড়েনি, তাদের অভিযোগ ছিল সহানুভূতি কুড়ানোর জন্যই মমতা এই নাটক করছেন। পরে বিধানসভার নির্বাচনে বিপুল সংখ্যাগরিষ্ঠতা নিয়ে রাজ্যে তৃতীয়বারের জন্য সরকারে আসে মমতার নেতৃত্বাধীন তৃণমূল কংগ্রেস। আর ক্ষমতায় এসেই সম্প্রতি মুখ্যমন্ত্রী ঘোষণা দিয়েছিলেন এবার থেকে প্রতিবছর ১৬ আগস্ট রাজ্যে ‘খেলা হবে’ দিবস পালিত হবে। 
  
বিডি প্রতিদিন/জুনাইদ আহমেদ

 

 


 

এই বিভাগের আরও খবর