শিরোনাম
প্রকাশ : বুধবার, ৩ জুন, ২০২০ ০০:০০ টা
আপলোড : ২ জুন, ২০২০ ২৩:৫০

অবৈধ পথে বিদেশ পাঠিয়েই বিপুল টাকা আদায়

আরও এক পাচারকারী গ্রেফতার, হাজী কামাল কারাগারে

আদালত প্রতিবেদক ও ফরিদপুর প্রতিনিধি

অবৈধ পথে বিদেশ পাঠিয়েই বিপুল টাকা আদায়

লিবিয়ায় অবৈধভাবে মানবপাচারে ফরিদপুর থেকে এনামুল নামে একজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। অন্যদিকে রাজধানীর ভাটারা থানায় করা পাসপোর্ট আইনের মামলায় লিবিয়ায় মানবপাচারকারী চক্রের অন্যতম হোতা কামাল হোসেন ওরফে হাজী কামালকে কারাগারে পাঠিয়েছে আদালত। গতকাল ঢাকা মহানগর হাকিম আবু সুফিয়াল নোমান আসামির জামিন আবেদন নাকচ করে কারাগারে পাঠানোর এ আদেশ দেন। অভিযোগ রয়েছে, তারা দুজন অনেক মানুষের কাছ থেকে লিবিয়ায় পাঠানোর কথা বলে টাকা নিয়েছেন। এর আগে মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ভাটারা থানার উপ-পরিদর্শক নুরুল ইসলাম আসামিকে ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিম আদালতে হাজির করে কারাগারে আটক রাখার আবেদন করেন। এ সময় আসামির আইনজীবীরা জামিন আবেদন করেন। উভয় পক্ষের শুনানি শেষে বিচারক জামিন আবেদন নাকচ করে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন। এর আগে গতকাল র‌্যাব-৩ এর একটি দল ভাটারা থানাধীন শাহজাদপুরের বরইতলা বাজার খিলবাড়ীরটেক এলাকা থেকে হাজী কামালকে (৫৫) গ্রেফতার করে। তিনি কুষ্টিয়া জেলা সদরের জামাত আলী মন্ডলের ছেলে। এ সময় কামালের কাছ থেকে অবৈধ ৩১টি পাসপোর্ট উদ্ধার করা হয়। পরে এ ঘটনায় র‌্যাব বাদী হয়ে পাসপোর্ট আইনে মামলা করে। উল্লেখ্য, অবৈধভাবে ইউরোপে প্রেরণকালে লিবিয়ার মিজদাহ শহরে গত ২৮ মে নৃশংস হত্যাকান্ডে ২৬ বাংলাদেশি নিহত হয়েছেন। এ ছাড়া ১১ বাংলাদেশি মারাত্মকভাবে আহত হন। ওই ঘটনা দেশ-বিদেশে ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি করেছে। ওই ঘটনায় র‌্যাব-৩ ছায়া তদন্ত শুরু করে এবং গোয়েন্দা নজরদারি বৃদ্ধি করে। তদন্তে উঠে আসে হাজী কামালের নাম।

ফরিদপুরে এনামুল আটক : ফরিদপুর প্রতিনিধি জানান, ফরিদপুরের সালথা থানা পুলিশ লিবিয়ায় মানব পাচার চক্রের অন্যতম হোতা এনামুল হক গাজীকে (৪২) আটক করেছে। গতকাল ভোরে গোপালগঞ্জ জেলার মুকসুদপুর উপজেলার গোয়ালা ইউনিয়নের গোয়ালা বাজার এলাকা থেকে তাকে আটক করা হয়। সালথা থানার ওসি মোহাম্মদ আলী জিন্নাহ জানান, সালথা থানার বল্লভদি ইউনিয়নের আলমপুর গ্রামের কবির শেখের ছেলে কামরুল শেখ লিবিয়ার মিজদা শহরে মানব পাচারকারীদের গুলিতে নিহত হন। এ ঘটনায় নিহতের বাবা কবির শেখ বাদী হয়ে সোমবার ছয়জনের বিরুদ্ধে সালথা থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। মামলার পর মঙ্গলবার ভোরে মানব পাচার চক্রের অন্যতম হোতা এনামুলকে আটক করা হয়। প্রাথমিক তদন্তে আসামি এনামুল হক মামলার অন্য আসামিদের সঙ্গে পরস্পর যোগসাজশে নিহত কামরুল শেখকে অবৈধ পথে লিবিয়া পাঠানোর জন্য বাদীর কাছ থেকে টাকা গ্রহণের ঘটনায় জড়িত থাকার বিষয়ে সত্যতা পাওয়া গেছে।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর