শিরোনাম
প্রকাশ : শুক্রবার, ৪ জুন, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ৪ জুন, ২০২১ ০১:২৯

নারী পাচার চক্রের চারজন রিমান্ডে

আদালত প্রতিবেদক

Google News

রাজধানীর হাতিরঝিল থানার একটি মামলায় আন্তর্জাতিক নারী পাচার চক্রের চারজনকে ৫ দিন করে রিমান্ডে নেওয়ার অনুমতি দিয়েছে আদালত। গতকাল ঢাকা মহানগর হাকিম বেগম ইয়াসমিন আরা রিমান্ডের এ আদেশ দেন। আসামিরা হলেন- আশরাফুল মন্ডল, আবদুুর রহমান শেখ, ইসমাইল সরদার ও সাহিদা বেগম। এর আগে হাতিরঝিল থানা পুলিশ আসামিদের আদালতে হাজির করে মানব পাচার ও পর্নোগ্রাফি আইনের মামলায় ১০ দিন করে রিমান্ড আবেদন করেন। আবেদনে বলা হয়, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে আসামিরা ঘটনার সঙ্গে প্রত্যক্ষভাবে জড়িত বলে স্বীকার করেন। আসামিরা অন্যদের সহায়তায় ঢাকা মহানগরীসহ বিভিন্ন এলাকা থেকে সহজ-সরল নারীকে লোভনীয় কথাবার্তার মাধ্যমে আকৃষ্ট করে ভারতসহ বিভিন্ন দেশে পাচার করে যৌনকর্মী হিসেবে কাজ করতে বাধ্য করেন।

 এ ছাড়া বিভিন্ন অশ্লীল স্থিরচিত্র ও ভিডিও চিত্র বিভিন্ন ইলেকট্রিক ডিভাইসের মাধ্যমে ধারণ করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে দেবেন বলে হুমকি প্রদান করে যৌনকর্মে বাধ্য করেন বলে স্বীকার করেন। এ আসামিরা নারী পাচারকারী দলের সক্রিয় সদস্য। তাই এ আসামিদের রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করলে অন্য সহযোগী দেশীয় ও আন্তর্জাতিকভাবে মানব পাচারের সঙ্গে জড়িত আসামিদের শনাক্ত, মানব পাচারে অর্থযোগানদাতা ও মামলার মূল রহস্য উদঘাটনের সম্ভাবনা রয়েছে।

মামলা সূত্রে জানা গেছে, চার-পাঁচজন তরুণ-তরুণী মিলে এক তরুণীকে বিবস্ত্র করে পৈশাচিক শারীরিক ও যৌন নির্যাতন করে। সেই ঘটনার ভিডিও ধারণ করে সেটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে দিলে ভাইরাল হয়। ভিডিওটি সাইবার মনিটরিং টিমের নজরে এলে পুলিশ অনুসন্ধান শুরু করে। পরে নির্যাতক হিসেবে রিফাতুল ইসলাম ওরফে ‘টিকটক হৃদয় বাবু’কে শনাক্ত করে পুলিশ। পরে পার্শ্ববর্তী দেশে নারী পাচার এবং সম্প্রতি বাংলাদেশি তরুণীকে পৈশাচিক নির্যাতনের ঘটনায় এ চার সদস্যকে গ্রেফতার করা হয়।