রবিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ০০:০০ টা

কী কথা হয়েছে সালাউদ্দিন-ব্রুজোনের

ক্রীড়া প্রতিবেদক

কী কথা হয়েছে সালাউদ্দিন-ব্রুজোনের

ঘরোয়া ফুটবলে সফল কোচ কে? উত্তর এতটা সহজ- অনেকে আবার বলতে পারেন এ আবার কেমন প্রশ্ন। যে লোক তিন মৌসুমে দলকে পাঁচ শিরোপা এনে দিতে পারেন তার চেয়ে সফল কে হতে পারেন। অস্কার ব্রুজোন। স্প্যানিশ এ কোচ ২০১৮ সাল থেকে বসুন্ধরা কিংসের দায়িত্ব পালন করছেন। প্রফেশনাল বলতে যা বোঝায় সব গুণাবলিই তার ভিতরে আছে। বাংলাদেশে ঘরোয়া আসরে এর আগে বেশ কজন বিদেশি কোচ দায়িত্ব পালন করেছেন। কিন্তু অস্কারকেই ব্যতিক্রমী বলা যায়। নতুন দল হলেও বসুন্ধরাকে ফুটবলে সেরা ও জনপ্রিয় দলে পরিণত করেছেন।

টানা দুই লিগ, দুই ফেডারেশনকাপ ও স্বাধীনতা কাপে দলকে এনে দিয়েছেন বিজয়ের ট্রফি। এ এক অসাধারণ সাফল্য। অস্কারের প্রশংসা শুধু বাংলাদেশে নয়। বিদেশি মিডিয়াতেও হচ্ছে। ফুটবলে যখন চারিদিকে হাহাকার ও শূন্যতা। তখন টেকনিক ও কৌশল দিয়ে কিংসের মাধ্যমেই ফুটবলকে জাগিয়ে রেখেছেন। গোলাম সারোয়ার টিপু, আশরাফ উদ্দিন আহমেদ চুন্নু বা শফিকুল ইসলাম মানিকের মতো ফুটবল ব্যক্তিত্বও বলতেন, অস্কারের মতো কোচ এ দেশে দেখাটা ভাগ্যের ব্যাপার। জাতীয় দলে এমন কোচই দরকার।

শেষ পর্যন্ত অস্কার জাতীয় দলের দায়িত্ব পেয়েছেন দীর্ঘদিনের দায়িত্বে থাকা জেমি ডে-কে সাময়িকভাবে অব্যাহতি দিয়ে। আসন্ন সাফ চ্যাম্পিয়নশিপে এ স্প্যানিশ কোচের হাতে তুলে দেওয়া হয়েছে জাতীয় দলের দায়িত্ব। প্রশ্ন উঠেছে এমন সফল কোচ দায়িত্ব পেলেও সাফ ফুটবলে বাংলাদেশের দৈন্য দশা কাটবে কী? শিরোপায় ভরিয়ে দিয়েছে বসুন্ধরা কিংসকে। কিন্তু বাংলাদেশের দায়িত্ব পালন করাটা বড় চ্যালেঞ্জই বলা যায়। খুব কম বিদেশি কোচই আছেন বাংলাদেশের দায়িত্ব পালনে বাহবা পেয়েছেন।

সভাপতি কাজী সালাউদ্দিন রুদ্ধদ্বার বৈঠক করেন অস্কারের সঙ্গে। দুজনার মধ্যে প্রায় এক ঘণ্টা কথা হলেও কী আলোচনা হয়েছে তা জানা যায়নি। তবে বাফুফের একজন ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা বলেন, অস্কার কোচ হবেন কি না তা নিয়ে ভাবার সময় চেয়েছেন।

অস্কারকে নিয়ে হিসাব-নিকাশ শুরু হয়ে গেলেও তিনি আদৌ জাতীয় দলের দায়িত্ব নেবেন কি না তা নিয়ে সংশয় কাটছে না। গতকাল সভাপতি কাজী সালাউদ্দিন রুদ্ধদ্বার বৈঠক করেন অস্কারের সঙ্গে। দুজনার মধ্যে প্রায় এক ঘণ্টা কথা হলেও কী আলোচনা হয়েছে তা জানা যায়নি। তবে বাফুফের একজন ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা বলেন, অস্কার কোচ হবেন কি না তা নিয়ে ভাবার সময় চেয়েছেন। আবার কোচ হলেও মাত্র ১০ দিনের প্রস্তুতিতে সাফ ফুটবলে বাংলাদেশকে তিনি কত দূর নিয়ে যেতে পারবেন সে প্রশ্ন থেকেই যায়। ২০ সেপ্টেম্বর ঢাকা আবাহনীর বিপক্ষে ম্যাচ খেলেই চ্যাম্পিয়ন কিংসের লিগ শেষ হয়ে যাবে। সে সঙ্গে ঘটবে মৌসুমের সমাপ্তি। সেদিনই বোঝা যাবে অস্কার দুই মাসের জন্য জাতীয় দলের দায়িত্ব নেবেন কি না। ১ অক্টোবর মালদ্বীপে সাফ ফুটবলের পর্দা উঠবে। সে হিসেবে হাতে বড়জোর আট দিন সময় পাবেন নতুন কোচ।

প্রশ্ন উঠেছে হুট করে অস্কারকে কোচের দায়িত্ব কেন দিতে চাচ্ছে বাফুফে। এ ব্যাপারে ম্যানেজমেন্ট কমিটির চেয়ারম্যান ও বাফুফের সহসভাপতি নাবিল আহমেদ বলেন, ‘আমরা ঘরোয়া আসরে সেরা কোচকেই বেছে নিয়েছি। তিনি বাংলাদেশের ফুটবল সামনে থেকে দেখছেন। সব খেলোয়াড়কেই তার জানা।’ নাবিল আশা করছেন এবার সাফ ফুটবলে বাংলাদেশ হতাশ করবে না। টানা চার আসরে সাফের গ্রুপ পর্ব থেকে বিদায়। এবার আবার রাউন্ড রবিন লিগ পদ্ধতিতে খেলা। শীর্ষ দুই দল ফাইনাল খেলবে। সন্দেহ নেই জাতীয় দলের অধিকাংশ ফুটবলারই হবে কিংসের। যাদের অস্কার ভালোমতো চেনেন ও জানেন।

তবু প্রশ্ন থেকে যাচ্ছে অস্কার দায়িত্ব নিলে সফল হবেন কি না। মূলত এ কারণে বাফুফেকে এখনো সবুজ সংকেত দেননি।

সর্বশেষ খবর