Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper

শিরোনাম
প্রকাশ : ২১ অক্টোবর, ২০১৯ ১৮:৩৯

রাজশাহীতে ট্রেনে কাটা পড়ে প্রাণ গেল বাবা-মেয়ের

নিজস্ব প্রতিবেদক, রাজশাহী

রাজশাহীতে ট্রেনে কাটা পড়ে প্রাণ গেল বাবা-মেয়ের

রাজশাহীতে ট্রেনে কাটা পড়ে বাবা মেয়ের মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে। প্রত্যক্ষদর্শীরা বলছেন, এটি আত্মহত্যা। তবে পুলিশ জানিয়েছে রেলক্রসিং পারাপারের সময় এই দুর্ঘটনা। 

সোমবার বিকাল সাড়ে ৩টার দিকে নগরীর ভদ্রা জামালপুর রেল ক্রসিংয়ে এ ঘটনা ঘটে। 

নিহতদের মধ্যে একজনের মরদেহ জিআরপি থানা পুলিশের হেফাজতে আছে। অপর জনের মরদেহ রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মর্গে রাখা হয়েছে। 

নিহতরা হলেন, নগরীর মতিহার থানার ধরমপুর এলাকার মৃত জাহাঙ্গীর আলম মাখনের ছেলে কামরুজ্জামান রুবেল (৩০) ও তার মেয়ে রুবাইয়া খাতুন (৩)। এর মধ্যে নিহত কামরুজ্জামান রুবেলের মরদেহ জিআরপি থানা পুলিশের হেফাজতে আছে। শিশু কন্যাটির মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। 

রাজশাহীর জিআরপি থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মশিউর রহমান জানান, দুপুরে রেলস্টেশন থেকে ২টা ১৫ মিনিট খুলনাগামী আন্তঃনগর ট্রেন কপোতাক্ষ এক্সপ্রেস ছাড়া কথা ছিল। তবে ট্রেনটি বিলম্বে সাড়ে তিনটার দিকে নগরীর ভদ্রা জামালপুর রেলক্রসিং দিয়ে যাওয়ার সময় এ দুর্ঘটনা ঘটে। কামরুজ্জামান রুবেল ও তার মেয়ে রেলক্রসিং পারাপারের সময় ট্রেনে কাটা পড়েন। এর মধ্যে রুবেল ঘটনাস্থলেই মারা যান।

আর স্থানীয়ারা মুমূর্ষু অবস্থায় তার শিশু কন্যা রুবাইয়াকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠিয়ে দেন। কিন্তু হাসপাতালে যাওয়ার পর তারও মৃত্যু হয়। এ ঘটনাটি আশপাশের লোকজন আত্মহত্যা বলে উল্লেখ করলেও ঘটনাস্থলে গিয়ে প্রাথমিক তদন্তে বিষয়টির সত্যতা পাওয়া যায়নি বলে জানান জিআরপি থানার এই পুলিশ কর্মকর্তা।

একই কথা জানিয়ে জিআরপি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সাঈদ ইকবাল বলেন, এটি দুর্ঘটনাই। রেলক্রসিংয়ে গিয়ে ট্রেনের নিচে ঝাঁপ দিয়ে তারা আত্মহত্যা করেছেন বলে এমন কোনো তথ্যের সত্যতা তারা পাননি। এরপরও তারা ঘটনাটি তদন্ত করে দেখবেন। এছাড়া নিহতদের মরদেহ ময়নাতদন্ত করা হবে। এ ঘটনায় জিআরপি থানা ও রাজপাড়া থানায় আলাদা মামলা হবে বলেও জানান জিআরপি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা।


বিডি-প্রতিদিন/বাজিত হোসেন


আপনার মন্তব্য