শিরোনাম
প্রকাশ : মঙ্গলবার, ২৮ জানুয়ারি, ২০২০ ০০:০০ টা
আপলোড : ২৭ জানুয়ারি, ২০২০ ২৩:০১

মেলান্দহ থানা পুলিশের গাড়ি নেই, দায়িত্ব পালনে ভোগান্তি

জামালপুর প্রতিনিধি

মেলান্দহ থানা পুলিশের গাড়ি নেই, দায়িত্ব পালনে ভোগান্তি

জামালপুরের মেলান্দহ থানায় পুলিশের নিজস্ব কোনো গাড়ি নেই। এতে দায়িত্ব পালনে ভোগান্তি পোহাতে হচ্ছে পুলিশ সদস্যদের। দীর্ঘদিনের পুরনো একটি গাড়ি থাকলেও এক বছরেরও বেশি সময় ধরে তা বিকল রয়েছে। ফলে জরুরি প্রয়োজনে তাৎক্ষণিক সেবা দিতে পারছে না পুলিশ। চার লাখের অধিক জনসংখ্যা এবং ব্যবসা-বাণিজ্যের দিক থেকে গুরুত্বপূর্ণ মেলান্দহ উপজেলার সার্বিক আইনশৃঙ্খলা উন্নয়নে পুলিশকে সার্বক্ষণিক তৎপর থাকতে হয়। এই থানায় পুলিশের দায়িত্ব পালনের জন্য নিজস্ব কোনো গাড়ির ব্যবস্থা নেই। বাধ্য হয়ে দায়িত্ব পালন করতে হচ্ছে ভাড়ায় চালিত গাড়ি দিয়ে। সংঘর্ষ ও সড়ক দুর্ঘটনার মতো গুরুত্বপূর্ণ ঘটনার খবর পেলেও দ্রুত সময়ের মধ্যে ঘটনাস্থলে পৌঁছাতে ব্যর্থ হচ্ছে পুলিশ। এ কারণে পুলিশকে সাধারণ মানুষের প্রশ্নের সম্মুখীন হতে হচ্ছে প্রতিনিয়ত। পুলিশ জানায়, মেলান্দহ উপজেলার এমন কিছু দুর্গম অঞ্চল রয়েছে যেখানে উচ্চ ভাড়া দিয়েও কোনো পরিবহন যেতে চায় না। মন্ত্রীসহ ভিআইপি কোনো ব্যক্তি মেলান্দহ উপজেলায় এলে তাদের প্রটোকলের জন্য জামালপুর পুলিশ লাইন থেকে দু-এক দিনের জন্য গাড়ি ধার করে আনতে হয়। মেলান্দহ বণিক সমিতির সভাপতি কিসমত পাশা জানান, মেলান্দহ থানায় গাড়ি না থাকায় প্যাট্রল ডিউটি পালন করতে পারছে না। যে কারণে আমরা ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের নিরাপত্তা নিয়ে উদ্বিগ্ন থাকি। মেলান্দহ উপজেলা চেয়ারম্যান ইঞ্জিনিয়ার কামরুজ্জামান বলেন, গুরুত্বপূর্ণ এই থানায় পুলিশের নিজস্ব গাড়ি না থাকা হতাশাজনক। মেলান্দহ থানার ওসি রেজাউল ইসলাম জানান, এ থানার জন্য অন্তত দুটি গাড়ি প্রয়োজন। নিজস্ব গাড়ির অভাবে জনগণকে তাৎক্ষণিক সেবার কাজ ব্যাহত হচ্ছে। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তামিম ইয়ামীন জানান, এই উপজেলার সার্বিক আইনশৃঙ্খলা উন্নয়নে পুলিশের ভূমিকা গুরুত্বপূর্ণ। তাদের গাড়ি না থাকলে সঠিকভাবে দায়িত্ব পালন কষ্টসাধ্য ব্যাপার। আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও স্থানীয় এমপি মির্জা আজম জানান, মেলান্দহ থানার জন্য গাড়ি বরাদ্দ চেয়ে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে একাধিকবার যোগাযোগ করেছি। এখন পর্যন্ত কোনো গাড়ি বরাদ্দ পাওয়া যায়নি।


আপনার মন্তব্য