শিরোনাম
প্রকাশ : বৃহস্পতিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ২৪ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ২৩:৪৯

জমজমাট প্রচারণায় প্রার্থীরা

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি

জমজমাট প্রচারণায় প্রার্থীরা

ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌর নির্বাচনকে কেন্দ্র করে চলছে জমজমাট প্রচারণা। ভোটের দিন যত ঘনিয়ে আসছে বাড়ছে প্রার্থীদের প্রতিশ্রুতির বন্যা। প্রচারণার কাজে আচরণবিধির বালাই নেই। আচরণবিধি লঙ্ঘনের দায়ে বিএনপি ও আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী মেয়র প্রার্থীসহ কয়েকজনকে জরিমানা করেছে ভ্রাম্যমাণ আদালত। বাদ যায়নি কাউন্সিলর প্রার্থীরা। আগামী ২৮ ফেব্রুয়ারি ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌরসভার নির্বাচন। মেয়র পদে ছয়জন, কাউন্সিলর পদে ৫৬ জন ও সংরক্ষিত আসনে ১৫ জন নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। ১২টি ওয়ার্ডে মোট ভোটার সংখ্যা ১ লাখ ২০ হাজার ৫০৪ জন। পুরুষের চেয়ে নারী ভোটার বেশি এ পৌরসভায়। মূলত আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী ও বর্তমান মেয়র নায়ার কবির, বিএনপির প্রার্থী মো. জহিরুল হক খোকন ও আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী মো. মাহমুদুল হক ভূঁইয়ার মধ্যে মূল লড়াই হবে। তবে সাধারণ ভোটাররা শঙ্কায় রয়েছেন। সরজমিনে ঘুরে দেখা গেছে, প্রশাসনের অনুমোদন ছাড়াই বেশির ভাগ সভা করছেন মেয়র ও কাউন্সিলর প্রার্থীরা। উচ্চৈঃস্বরে বাজানো হচ্ছে মাইক। রেকর্ডিং করে মাইক দিয়ে উচ্চৈঃস্বরে গানবাজানোসহ কথার প্রচার কাজে ব্যবহার করা হচ্ছে শিশুদের। অতিষ্ঠ সাধারণ মানুষ। পরিবেশ অধিদফতরের মতে, নির্বাচনে মাইকে মানুষের সহনীয় মাত্রার দ্বিগুণ অর্থাৎ ১২০ ডেসিবল মাত্রায় চলছে নির্বাচনী প্রচারণা। পলিথিনে মুড়িয়ে টানানো হয়েছে বিভিন্ন প্রার্থীর পোস্টার। যা পরিবেশের ওপর প্রভাব পড়বে। জেলা পরিবেশ অধিদফতরের সূত্র মতে, আনুমানিক ১১.৭২ টন পোস্টারের বর্জ্য হবে নির্বাচনকে কেন্দ্র করে। ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌরসভা নির্বাচনের রিটার্নিং অফিসার ও জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মো. জিল্লুর রহমান বলেন, আচরণবিধির বিষয়গুলো দেখার জন্য চারজন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মাঠে কাজ করছেন। অনেকের বিরুদ্ধে ব্যবস্থাও নেওয়া হয়েছে।


আপনার মন্তব্য