শিরোনাম
শুক্রবার, ৭ জুন, ২০২৪ ০০:০০ টা

প্রস্তাবিত বাজেট

বাস্তবায়নই আসল চ্যালেঞ্জ

অর্থমন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ আলী গতকাল জাতীয় সংসদে ২০২৪-২৫ সালের ৭ লাখ ৯৭ হাজার কোটি টাকার বাজেট ঘোষণা করেছেন। এমন একসময় অর্থমন্ত্রী প্রস্তাবিত বাজেট ঘোষণা করেছেন, যখন দেশের অর্থনীতি এক কঠিন চ্যালেঞ্জের সম্মুখীন। বৈশ্বিক অর্থনৈতিক মন্দা এড়িয়ে যাওয়ার ক্ষেত্রে অতীতে ঈর্ষণীয় সাফল্য থাকলেও গত দুই বছর ধরে তা বাংলাদেশেও কালো থাবা বিস্তার করেছে। মূল্যস্ফীতির নখরাঘাতে ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে দেশের প্রায় ১৮ কোটি মানুষ। দুনিয়ার সবচেয়ে উচ্চ প্রবৃদ্ধির দেশগুলোর কাতারে থাকার যে গর্ব এক যুগের বেশি সময় ধরে ভোগ করছে বাংলাদেশ, তা থেকে কিছুটা হলেও সরে আসতে হয়েছে। নতুন বাজেটে চোখ ধাঁধানো প্রকল্প বাস্তবায়নের বদলে কোনটি অপরিহার্য সেদিকে দেওয়া হয়েছে নজর। অর্থনৈতিক কৃচ্ছ্রতাকে প্রাধান্য দেওয়া হয়েছে। সবকিছুর চেয়ে মূল্যস্ফীতির দানবকে সামাল দেওয়ার কৌশল প্রাধান্য পেয়েছে প্রস্তাবিত বাজেটে। মূল্যস্ফীতি হলো এমন এক আপদ যা ধনী-গরিব নির্বিশেষে সবাইকে ক্ষতিগ্রস্ত করে। বিশেষ করে কম আয়ের মানুষের জন্য তা অভিশাপ হিসেবে আবির্ভূত হয়। সংসারের ঘানি টানতে গিয়ে তারা পড়েন কিংকর্তব্যবিমূঢ় অবস্থায়। নতুন বাজেটে যেভাবেই হোক উচ্চমাত্রার প্রবৃদ্ধি অর্জনের কৌশল বাদ দিয়ে মূল্যস্ফীতি কমাতে প্রান্তিক মানুষের জন্য সাশ্রয়ী মূল্যে খাদ্য সহায়তা বরাদ্দ বাড়ানো হয়েছে। ব্যবসাবান্ধব মনোভাবও গুরুত্ব পেয়েছে বাজেটে। কম গুরুত্বপূর্ণ খাতগুলোতে নেওয়া হয়েছে ব্যয় সংকোচন কৌশল। গত ১৫ বছরের মতো এ বছর যে বাজেট পেশ করা হয়েছে তা একটি ঘাটতি বাজেট। আয় ও ব্যয়ের যে বিশাল ব্যবধান তা পূরণে বৈদেশিক ঋণের পাশাপাশি সরকারকে ব্যাংক ঋণের দ্বারস্থ হতে হবে। বাজেট ঘাটতির পরিমাণ আড়াই লাখ কোটি টাকারও বেশি। জনপ্রত্যাশার কথা ভেবে যুক্তরাষ্ট্রের মতো ‘সমৃদ্ধতম’ অর্থনীতির দেশেও ঘাটতি বাজেট প্রণয়ন করা হয়। বাজেটে দেশবাসীর প্রাপ্তির খাত উন্নয়ন বাজেট। সংকটাপন্ন সময়েও সরকার এ খাতকে মোটামুটি প্রাধান্য দিয়েছে। প্রতি বছর উন্নয়ন বাজেট যথাযথভাবে বাস্তবায়ন না হওয়ার রেকর্ড রয়েছে আমাদের এই দেশে। ২০২৪-২৫ সালের প্রস্তাবিত বাজেটের ক্ষেত্রে তা যাতে না হয় সেদিকে নজর রাখতে হবে। বৈদেশিক মুদ্রার সংকট মোকাবিলা ও শিল্প-বাণিজ্যের বিকাশ ধরে রাখতে হবে। সঠিকভাবে বাজেট বাস্তবায়নকে নিতে হবে চ্যালেঞ্জ হিসেবে। বর্তমান সরকার চ্যালেঞ্জ নিয়েই কাজ করছে। অতীত বর্তমানে এমন অনেক নজির রয়েছে। এবারও সবার প্রত্যাশা অনেক বেশি। সে প্রত্যাশা পূরণ করতে হবে যে কোনোভাবে।

এই রকম আরও টপিক

সর্বশেষ খবর