Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : রবিবার, ১০ মার্চ, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ৯ মার্চ, ২০১৯ ২৩:২২

ম্যানাফোর্টের জন্য খারাপ লাগার কথা বললেন ট্রাম্প

ম্যানাফোর্টের জন্য খারাপ লাগার কথা বললেন ট্রাম্প

কর ফাঁকি ও জালিয়াতির দায়ে কারাদণ্ডে দণ্ডিত সাবেক সহযোগী পল ম্যানাফোর্টের জন্য ‘খারাপ লাগার’ কথা জানিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। ৬৯ বছর বয়সী ম্যানাফোর্ট ট্রাম্পের নির্বাচনের প্রচার শিবিরের সাবেক ব্যবস্থাপক ছিলেন। ইউক্রেইনে রাজনৈতিক পরামর্শক হিসেবে কাজ করে পাওয়া কয়েক কোটি ডলারের তথ্য গোপন করে কর ফাঁকি, ব্যাংক জালিয়াতি এবং বিদেশি ব্যাংক হিসাবের তথ্য দিতে ব্যর্থতাসহ ৮ দফা অভিযোগে বৃহস্পতিবার ভার্জিনিয়ার আদালত তাকে ৪৭ মাসের কারাদ  দেয়। জেলে যাওয়ার পাশাপাশি ট্রাম্পের সাবেক এ সহযোগীকে ক্ষতিপূরণ হিসেবে ২ কোটি ৪০ লাখ ডলার এবং জরিমানা হিসেবে আরও ৫০ হাজার ডলার দিতে হবে বলেও জানিয়েছে বিবিসি। ঘূর্ণিঝড়বিধ্বস্ত আলাবামা অঙ্গরাজ্য পরিদর্শনে যাওয়ার আগে ট্রাম্প সাংবাদিকদের বলেন, ‘পল ম্যানাফোর্টের জন্য খুবই খারাপ লাগছে। তার জন্য এটি খুবই কঠিন সময় যাচ্ছে বলেও ধারণা আমার।’

 ট্রাম্প একই সঙ্গে দাবি করেন, রিপাবলিকান শিবিরের সঙ্গে যে মস্কোর কোনো আঁতাত হয়নি, ম্যানাফোর্টের রায়ে ভার্জিনিয়ার বিচারক সে বিষয়ে স্বীকৃতি দিয়েছেন বলেও দাবি ট্রাম্পের।

তিনি বলেন, ‘বিচারক বলেছেন রাশিয়ার সঙ্গে কোনো আঁতাত হয়নি। আঁতাতের মতো কিছুই হয়নি। কোনো আঁতাত হয়নি, আমি রাশিয়ার সঙ্গে অঁাঁতাত করিনি। তবে প্রেসিডেন্টের এ দাবির সঙ্গে ভার্জিনিয়ার আদালতের বিচারক টিএস এলিসের বক্তব্যের মিল পাওয়া যায়নি বলে জানিয়েছে বিবিসি। ম্যানাফোর্টের রায় ঘোষণার সময় এলিস বলেছিলেন, ‘তাকে (ম্যানাফোর্ট) রাশিয়ার সরকারের সঙ্গে আঁতাতের অভিযোগে আদালতে হাজির করা হয়নি।’ অবৈধভাবে লবি করার অভিযোগে ম্যানাফোর্টের বিরুদ্ধে আরেকটি মামলার রায়ও কয়েকদিনের মধ্যেই হওয়ার কথা রয়েছে। ২০১৬ সালের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ডোনাল্ড ট্রাম্পকে বিজয়ী করতে রাশিয়ার হস্তক্ষেপের অভিযোগ নিয়ে তদন্তের সূত্র ধরে ম্যানাফোর্টের অপরাধের তথ্যগুলো বেরিয়ে আসে। ট্রাম্প প্রশাসনের চাপ সামলে যুক্তরাষ্ট্রের জাস্টিস ডিপার্টমেন্টের বিশেষ কাউন্সেল রবার্ট মুলার ওই তদন্ত ইতিমধ্যে গুছিয়ে এনেছেন বলে মনে করা হচ্ছে। ৬৯ বছর বয়সী ম্যানাফোর্ট ছিলেন ট্রাম্পের কাছের মানুষদের একজন। ২০১৬ সালের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের প্রচারের মধ্যেই নিউইয়র্ক টাইমসের এক প্রতিবেদনে ইউক্রেনের রাশিয়াপন্থিদের কাছ থেকে ম্যানাফোর্টের কয়েক মিলিয়ন ডলার নেওয়ার তথ্য আসে। ফলে নির্বাচনের মাত্র আড়াই মাস আগে ট্রাম্পের প্রচার শিবিরের চেয়ারম্যানের দায়িত্ব থেকে সরে যেতে বাধ্য হন প্রবীণ এই রিপাবলিকান নেতা। নির্বাচনের পর তদন্ত শুরু হলে ২০১৮ সালের জুনে তাকে কারাগারে পাঠানো হয়।


আপনার মন্তব্য