শিরোনাম
প্রকাশ : রবিবার, ১৯ জানুয়ারি, ২০২০ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৯ জানুয়ারি, ২০২০ ০০:০১

চট্টগ্রাম শিক্ষা বোর্ড

আড়াই মাস ধরে ‘শূন্য’ চেয়ারম্যান পদ!

চট্টগ্রাম থেকে নিজস্ব প্রতিনিধি

দীর্ঘ আড়াই মাস ধরে শূন্য চট্টগ্রাম শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান পদটি। বোর্ডের সচিবকে ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব দেওয়ার পর থেকে রুটিং কাজ ছাড়া উল্লেখযোগ্য তেমন কোনো কাজ করা হচ্ছে না। বোর্ডে দায়িত্বরত কর্মকর্তা এবং শিক্ষা বোর্ডের কর্মচারীরা পৃথক সংগঠনের নেতৃত্বসহ ভিন্ন ভিন্ন মতাদর্শের কারণে কার পছন্দের চেয়ারম্যান হচ্ছেন সেই বিষয়ে রয়েছে ব্যাপক গুঞ্জনও। ইতিমধ্যে বিদায়ী চেয়ারম্যান নিয়মবহির্ভূতভাবে কর্মচারীর পদোন্নতিসহ নানাবিধ কর্মকান্ড নিয়ে বির্তক শুরু হয়েছে। তবে বোর্ড চেয়ারম্যান না থাকায় এক প্রকার বোর্ডের কাজকর্মে নানাভাবে স্থবিরতা দেখা দিয়েছে বলে বোর্ড সূত্রে জানা গেছে। তাছাড়া এই পদে আসতে পদপ্রত্যাশীরা লবিং-তদবিরও শুরু করেছে বলে নির্ভরযোগ্য সূত্রে নিশ্চিত করা হয়েছে।  শূন্য পদে আসতে আলোচনায় আছেন শিক্ষাবোর্ডের কলেজ পরিদর্শক মো. জাহেদুল হক, মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদফতর চট্টগ্রাম অঞ্চলের পরিচালক প্রদীপ চক্রবর্তী, শিক্ষাবোর্ডের বর্তমান সচিব ও ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান প্রফেসর আবদুল আলীম, চট্টগ্রাম সরকারি মহিলা কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর স্বপন চৌধুরী, চট্টগ্রাম সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর মুজিবুল হক চৌধুরী, রাঙামাটি সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর মাইন উদ্দিন, কক্সবাজার সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর ফজলুল করিম চৌধুরী এবং চট্টগ্রাম মহিলা কলেজের অধ্যক্ষ স্বপন চক্রবর্তী।

নাম প্রকাশ না করার শর্তে সাবেক ও বর্তমান একাধিক কর্মকর্তা-কর্মচারী বলেন, চেয়ারম্যান পদে আসতে লবিং-তদবিরকারীদের মধ্যে অনেকেই বিভিন্ন রাজনৈতিক মতাদর্শের। বর্তমানে সবাই আওয়ামী লীগার হয়ে গেছে। প্রত্যেকেই বিভিন্ন যোগ্যতার পরিচয় দিচ্ছেন। আলোচনায় আছেন বিএনপি, জামায়াত ও কমিউনিস্ট সমর্থিত শিক্ষকও। চট্টগ্রাম শিক্ষা বোর্ডের কলেজ পরিদর্শক মো. জাহেদুল হক বাংলাদেশ প্রতিদিনকে বলেন, এটা নিয়ে অনেকেই তদবির করছেন শুনেছি। তাছাড়া অনেকেই আমার সিনিয়র আছেন। আমি কোনো তদবিরও করছি না। তবে কে হচ্ছেন সেটা নিশ্চিত করে বলা যাচ্ছে না এখনো। প্রসঙ্গত, চট্টগ্রাম শিক্ষা বোর্ডের সর্বশেষ দায়িত্বপালনকারী চেয়ারম্যান প্রফেসর শাহেদা ইসলাম গত ১৯ নভেম্বর শিক্ষাবোর্ড থেকে বিদায় নিলেও ২১ নভেম্বর আনুষ্ঠানিকভাবে অবসরে (পিআরএল) যান। অবসরে যাওয়ার পর ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্বে আছেন বোর্ডের বর্তমান সচিব প্রফেসর আবদুল আলীম।


আপনার মন্তব্য