রবিবার, ৮ আগস্ট, ২০২১ ০০:০০ টা
দায়িত্বহীনতার অভিযোগ

বিভিন্ন স্থানে একই ব্যক্তিকে একাধিক ডোজ প্রয়োগ

প্রতিদিন ডেস্ক

করোনাভাইরাস প্রতিরোধে গণটিকা প্রয়োগের সময় গতকাল বেশ কয়েক স্থানে একই ব্যক্তিকে একাধিক ডোজ টিকা দেওয়ার খবর পাওয়া গেছে। আমাদের নিজস্ব প্রতিবেদক ও প্রতিনিধিদের পাঠানো বিবরণ-

খুলনা : খুলনার সোনাডাঙ্গা ময়লাপোতা এলাকায় জহুরা বেগম (৭৩) নামের নারীকে ১০ মিনিটের ব্যবধানে দুই ডোজ করোনা টিকা দেওয়া হয়েছে। গতকাল বেলা সাড়ে ১১টার দিকে নগরীর ১৭ নং ওয়ার্ডে হাফিজুর রহমান ঈদগাহ কেন্দ্রে তাকে এই টিকা দেওয়া হয়। টিকা নিয়ে বর্তমানে শারীরিকভাবে তিনি কিছুটা দুর্বল বোধ করছেন। তবে কেন্দ্রে দায়িত্বে থাকা স্বাস্থ্যকর্মীরা ওই নারীকে দুইবার টিকা দেওয়ার কথা অস্বীকার করেছেন।

জহুরা বেগম জানান, ‘প্রথমে সোবাহানের বউ বাম হাতে টিকা দেয়। এরপর রুবেল (স্বেচ্ছাসেবক) ডেকে পাশের চেয়ারে বসায়। তখন আরেক মহিলা এসে বাম হাতে আরেকটা টিকা দেয়।’ এ বিষয়ে একই এলাকার বাসিন্দা সুফিয়া বেগম জানান, ‘তিনি (জহুরা) ভেবেছিলেন একসঙ্গে দুইটা টিকা দিতে হয়। বাড়িতে এসে তিনি দুই টিকা দেওয়ার কথা বললে এই বিষয়টি জানাজানি হয়। পরে স্বাস্থ্য কর্মকর্তারা এসে খোঁজখবর নেন।’

ব্রাহ্মণবাড়িয়া : সরাইল উপজেলায় নাজমা (৪০) নামে এক নারীকে আধা ঘণ্টার ব্যবধানে করোনাভাইরাসের দুই ডোজ টিকা দেওয়া হয়েছে। গতকাল দুপুরে গণটিকাদান ক্যাম্পেইন চলাকালে সরাইল অন্নদা সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্রে এ ঘটনা ঘটে। নাজমা সরাইল উপজেলার সৈয়দটুলা গ্রামের বাসিন্দা। তবে ওই নারী সুস্থ আছেন বলে জানিয়েছেন ক্যাম্পেইন সংশ্লিষ্টরা।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, দুপুরে সরাইল অন্নদা সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্রে টিকা নিতে যান নাজমা। দীর্ঘক্ষণ লাইনে দাঁড়ানোর পর টিকা নেন তিনি। পরবর্তীতে আধা ঘণ্টা পর কেন্দ্রে ফেলে আসা টিকাকার্ড আনতে গেলে টিকাদানকর্মী আফরিন আবারও তাকে টিকা দেন। দুই ডোজ নেওয়ার বিষয়টি জানাজানি হলে উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. নোমান মিয়া ওই টিকা কেন্দ্রে যান ঘটনাটি তদন্তের জন্য।

রাজবাড়ী : রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দিতে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে গণটিকা কার্যক্রমের সময় ইসমত আরা (৩১) নামে এক নারীকে একই সময় দুই ডোজ ভ্যাকসিন দেওয়া হয়েছে। ইসমত আরা বালিয়াকান্দি উপজেলার নারুয়া ইউনিয়নের নাহিদুল হকের স্ত্রী। গতকাল সকাল সাড়ে ১১টার সময় নারুয়া ইউনিয়নের পাটকিয়াবাড়ি দাখিল মাদরাসা টিকাদান কেন্দ্রে এ ঘটনা ঘটে। ইসমত আরা বলেন, আমি সকাল ১১টার দিকে টিকাদান কেন্দ্রে পৌঁছানোর পর নিবন্ধন করি। শেষে টিকা নেওয়ার কক্ষে গেলে প্রথমে এক নারী স্বাস্থ্যকর্মী আমার ডান হাতে একটি টিকা দেন। এরপর ওই স্বাস্থ্যকর্মী আমাকে টিকা দিতে আসলে আমি একবার টিকা নিয়েছি বলতে না বলতেই আরেকটি টিকা দিয়ে দেন। টিকা দেওয়া ওই স্বাস্থ্যকর্মীর নাম মমতাজ বেগম।

 তিনি পরিবার পরিকল্পনা অধিদফতরের মাঠকর্মী। দুই ডোজ টিকা দেওয়া ওই নারীকে বালিয়াকান্দি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে বলে জানা গেছে।

রাজবাড়ী সিভিল সার্জন ডা. ইব্রাহিম টিটন বলেন, বালিয়াকান্দি উপজেলার পাটকিয়াবাড়ি দাখিল মাদরাসায় একই ব্যক্তিকে একই দিনে দুইবার করোনাভাইরাসের ভ্যাকসিন দেওয়ার ঘটনা তিনি শুনেছেন। তাকে বালিয়াকান্দি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে। এ ঘটনায় সিভিল সার্জন কার্যালয় ও জেলা পরিবার পরিকল্পনা অধিদপ্তর পৃথক দুটি তদন্ত কমিটি গঠন করেছে।

এই বিভাগের আরও খবর