শিরোনাম
প্রকাশ : ১৩ এপ্রিল, ২০২১ ১৯:৪৪
প্রিন্ট করুন printer

কমিটি নিয়ে ছাত্র ইউনিয়নে উত্তেজনা; 'পিছনে অশুভ শক্তি' থাকার অভিযোগ

বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিবেদক

কমিটি নিয়ে ছাত্র ইউনিয়নে উত্তেজনা; 'পিছনে অশুভ শক্তি' থাকার অভিযোগ

নিজেদের মধ্যে বিরোধের জেরে সোমবার 'জরুরী জাতীয় সম্মেলন' করে কমিটি ঘোষণা করেছিলো ছাত্র ইউনিয়নের একাংশের নেতাকর্মীরা। তবে ওই সম্মেলনের পিছনে 'অশুভ শক্তির হাত রয়েছে' মন্তব্য করে 'বিপথগামী কর্মীদের ফেরাতে সর্বোচ্চ সহনশীলতা দেখানো'র কথা জানিয়েছে ছাত্র ইউনিয়নের কেন্দ্রীয় সংসদ।

মঙ্গলবার সংগঠনটির কেন্দ্রীয় দপ্তর সম্পাদক মাহির শাহরিয়ার রেজা স্বাক্ষরিত এক বিবৃতিতে এই কথা বলা হয়। এতে বলা হয়, ১২ এপ্রিল বাংলাদেশ ছাত্র ইউনিয়নের কোনো প্রকার সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়নি। রাজধানীর নয়া পল্টনের একটি কমিউনিটি সেন্টারে অনধিক ৬০ জন শিক্ষার্থীর উপস্থিতিতে ছাত্র ইউনিয়নের নাম ব্যবহার করে যে সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে তার সাথে ছাত্র ইউনিয়ন কেন্দ্রীয় সংসদের কোনও সংশ্লিষ্টতা নেই। আজ বাংলাদেশ ছাত্র ইউনিয়ন কেন্দ্রীয় সংসদের এক জরুরী বৈঠকের পর যুক্ত বিবৃতিতে সংগঠনের কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি ফয়েজ উল্লাহ ও সাধারণ সম্পাদক নীপক শীল দ্ব্যর্থহীন ভাষায় বলেন, ১২ এপ্রিল ছাত্র ইউনিয়নের কোনাে জরুরি সম্মেলন ডাকা হয়নি। নেতৃবৃন্দ আরও বলেন, তথাকথিত এই সম্মেলনের মাধ্যমে যে কমিটি ঘােষণা করা হয়েছে তা ছাত্র ইউনিয়নের ঐক্য ও লড়াই সংগ্রামের অগ্রযাত্রার জন্য সুস্পষ্ট হুমকি। এ তৎপরতার পেছনে অশুভ শক্ত হাত থাকতে পারে বলে বিবৃতিতে আশঙ্কা ব্যক্ত করেন নেতৃবৃন্দ।

এই উদ্ভূত পরিস্থিতিতে নেতা-কর্মীদের শান্ত থাকার আহ্বান জানিয়ে নেতৃবৃন্দ বলেন, আজকের এ ঘটনায় উত্তেজিত না হয়ে ছাত্র ইউনিয়নের নেতা-কর্মীদের ঐক্যবদ্ধ থাকতে হবে। দেশের এই ক্রান্তিলগ্নে ছাত্র ইউনিয়নের ঐক্য বিনষ্টে যারা তৎপর তাদের চিহ্নিত করতে ছাত্র ইউনিয়নের প্রতিটি কর্মীকে সজাগ থাকতে হবে।

ছাত্র ইউনিয়ন কেন্দ্রীয় কমিটি সংগঠনের ঐক্যের স্বার্থে সবসময় আলােচনার দ্বার উন্মুক্ত রেখেছে দাবি করে নেতৃবৃন্দ বলেন, ছাত্র ইউনিয়নের কোনও সহযোদ্ধা যদি কোনও অশুভ শক্তির উস্কানিতে এই জঘন্য তৎপরতায় ইতােমধ্যে সামিল হয়ে থাকে শৃঙ্খলা ভঙ্গের দায়ে ব্যবস্থা গ্রহণের আগে আমরা তাদের সাথে পারস্পরিক আলােচনার মাধ্যমে তাদের ভুল নিরসনের চেষ্টা করবাে। তারা যেন অনুতপ্ত হয়ে সংগঠনের ঐক্যকে সমুন্নত রেখে নীল পতাকাকে শক্তিশালী করতে পারেন সেই চেষ্টা অব্যাহত রাখাই হবে আমাদের প্রধানতম কর্তব্য।


বিডি প্রতিদিন/হিমেল

এই বিভাগের আরও খবর