শিরোনাম
প্রকাশ : ৯ নভেম্বর, ২০১৯ ১২:২৭

সিলেট-কোম্পানীগঞ্জ সড়কে দোতলা বিআরটিসি বাস

নিজস্ব প্রতিবেদক, সিলেট

সিলেট-কোম্পানীগঞ্জ সড়কে দোতলা বিআরটিসি বাস

সিলেট-কোম্পানীগঞ্জ সড়কে দীর্ঘদিনের যাত্রী দুর্ভোগ লাঘব হতে যাচ্ছে। যাত্রীসেবা নিশ্চিত করতে সড়কটিতে চালু হয়েছে দোতলা বিআরটিসি বাস। শনিবার সকাল ১১টায় এই বাস সার্ভিসের উদ্বোধন করেন প্রবাসী কল্যান ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী ইমরান আহমদ।

গত প্রায় এক দশক আগে সিলেট-জৈন্তাপুর সড়কে বিআরটিসির দ্বিতল বাস সার্ভিস চালু হয়েছিল। কিন্তু পরিবহন শ্রমিকদের আন্দোলনের মুখে এক পর্যায়ে বন্ধ হয়ে যায় সরকারী এই গণপরিবহন। বর্তমানে সিলেট জেলার অন্য কোন সড়কে বিআরটিসির দ্বিতল বাস সার্ভিস নেই।

জানা যায়, সিলেট-কোম্পানীগঞ্জ সড়কটি নানা কারণে গুরুত্বপূর্ণ। এই সড়ক দিয়ে প্রতিদিন শত শত পাথরবাহী ট্রাক ভোলাগঞ্জ থেকে দেশের বিভিন্ন স্থানে পাথর নিয়ে যায়। ভোলাগঞ্জ সাদা পাথর পর্যটন কেন্দ্রেও যেতে হয় এই সড়ক দিয়ে।

কিন্তু ভালো গণপরিবহন না থাকায় ব্যবসায়ী, পর্যটক ও স্থানীয়রা কোম্পানীগঞ্জ ও ভোলাগঞ্জ যেতে নানা দুর্ভোগের স্বীকার হতেন। এই সড়ক দিয়ে চলাচলকারী অটোরিকশা চালকরাও তাদের মনগড়া ভাড়া আদায় করতেন। পর্যটক ও স্থানীয়দের দাবির প্রেক্ষিতে শনিবার থেকে এই সড়কে দ্বিতল বাস সার্ভিস চালু হয়েছে।

সংশ্লিষ্টরা জানিয়েছেন, প্রতিদিন সকাল ৮টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত সিলেট-কোম্পানীগঞ্জ সড়কে বিআরটিসি বাস চলাচল করবে। আপাতত দুটি বাস দিয়ে শুরু হচ্ছে এই সড়কে যাত্রী পরিবহন। পরবর্তীতে যাত্রীদের চাহিদার অনুযায়ী বাসের সংখ্যা আরও বাড়ানো হবে।

সিলেট থেকে কোম্পানীগঞ্জের দূরত্ব ৩২ কিলোমিটার। এই দূরত্বের জন্য একজন যাত্রীকে দিতে হবে ২৫ টাকা ভাড়া। যা ওই সড়কে চলাচলকারী বাস ভাড়ার চেয়ে প্রায় অর্ধেক।

সংশ্লিষ্টরা আরও জানান, বিআরটিসির দ্বিতল বাসগুলো মজুমদারি বাসস্ট্যান্ড থেকে ছেড়ে যাবে। পথিমধ্যে নির্দিষ্ট স্থানে যাত্রী ওঠানামা করাবে।


বিডি প্রতিদিন/ ওয়াসিফ


আপনার মন্তব্য