Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : মঙ্গলবার, ১২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ১১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ ২৩:০৮

বসুন্ধরার নতুন পেপার ও টিস্যু ইউনিটের কার্যক্রম শুরু

নিজস্ব প্রতিবেদক

বসুন্ধরার নতুন পেপার ও টিস্যু ইউনিটের কার্যক্রম শুরু
অনাড়ম্বর এক অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে গতকাল ১৫তম পেপার উৎপাদন লাইন এবং চতুর্থ টিস্যু ইউনিটের বাণিজ্যিক উৎপাদন ও বিতরণ কার্যক্রম উদ্বোধন করেন বসুন্ধরা পেপার মিলস লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও বসুন্ধরা গ্রুপের ভাইস চেয়ারম্যান সাফওয়ান সোবহান -বাংলাদেশ প্রতিদিন

বাজারে ক্রমবর্ধমান চাহিদার কারণে কাগজ ও টিস্যু উৎপাদনে সক্ষমতা বাড়িয়েছে দেশের অন্যতম বৃহৎ কাগজ ও টিস্যু উৎপাদক প্রতিষ্ঠান বসুন্ধরা পেপার মিলস লিমিটেড। গতকাল অনাড়ম্বর এক অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে ১৫তম পেপার উৎপাদন লাইন এবং চতুর্থ টিস্যু ইউনিটের বাণিজ্যিক উৎপাদন ও বিতরণ কার্যক্রম উদ্বোধন করা হয়েছে। কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন বসুন্ধরা পেপার মিলস লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও বসুন্ধরা গ্রুপের ভাইস চেয়ারম্যান সাফওয়ান সোবহান। বসুন্ধরা ইন্ডাস্ট্রিয়াল হেডকোয়ার্টার-২-এ ডিস্ট্রিবিউটরদের হাতে নতুন টিস্যু ও মিলটিতে উৎপাদিত পণ্য আনুষ্ঠানিকভাবে তুলে দেওয়ার মাধ্যমে নতুন ইউনিটের বাণিজ্যিক উৎপাদন ও টিস্যু পণ্য বাজারজাত কার্যক্রমের শুভ সূচনা করা হয়। এ সময় বসুন্ধরা গ্রুপের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। অনুষ্ঠানে জানানো হয়, প্রাথমিক গণপ্রস্তাবের মাধ্যমে প্রাপ্ত অর্থ দিয়ে নতুন এ টিস্যু ইউনিটটি স্থাপিত হয়েছে। ইউনিটটির বার্ষিক উৎপাদন সক্ষমতা ৩০ হাজার মেট্রিক টন। নতুন টিস্যু ইউনিট চালু হওয়ায় প্রতিষ্ঠানটির মোট বার্ষিক উৎপাদন সক্ষমতা প্রায় ১ দশমিক ৪৩ লাখ মেট্রিক টনে দাঁড়িয়েছে। নতুন এ ইউনিট থেকে উৎপাদিত টিস্যু পণ্য বাজারে সরবরাহের মাধ্যমে প্রতিষ্ঠানটির বার্ষিক আয় প্রায় ৪০০ কোটি টাকা বৃদ্ধির পাশাপাশি বার্ষিক মুনাফার পরিমাণ প্রায় ৩৬ কোটি টাকা বৃদ্ধি পাবে বলে আশা করা হচ্ছে। বসুন্ধরা পেপার মিলস কর্তৃপক্ষ জানায়, অস্ট্রিয়ার স্বনামধন্য ‘এন্ডরিজ’ নামের প্রতিষ্ঠান নতুন টিস্যু ইউনিটের মেশিনারিজ সরবরাহ করেছে। পূর্বনির্ধারিত সময়ের আগেই ইউনিটটি স্থাপনের কাজ সম্পন্ন হয়েছে।


আপনার মন্তব্য

এই পাতার আরো খবর