শিরোনাম
প্রকাশ : সোমবার, ১ মার্চ, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ২৮ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ২৩:০৮

শরীর থেকে মাথা বিচ্ছিন্ন নবজাতকের

নিজস্ব প্রতিবেদক, যশোর

যশোর জেনারেল হাসপাতালের লেবার ওয়ার্ডে এক প্রসূতির গর্ভ থেকে শিশুর শরীর বের হলেও মাথা ভিতরে রয়ে গেছে বলে অভিযোগ ওঠে। আয়া দিয়ে ডেলিভারির সময় এমন ঘটনার সৃষ্টি হয়। গতকাল সন্ধ্যায় ঘটে এ ঘটনা। পরে প্রসূতির গর্ভে থেকে যাওয়া শিশুর মাথা বের করা হয়েছে। বর্তমানে প্রসূতি আন্না খাতুন সুস্থ এবং হাসপাতালেই রয়েছেন বলে জানিয়েছেন সংশ্লিষ্ট চিকিৎসকরা। শুক্রবার গভীর রাতে শার্শা উপজেলার গাজীপুর গ্রামের আয়ুব হোসেন তার ২০ সপ্তাহের অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রীকে অসুস্থ অবস্থায় হাসপাতালে ভর্তি করেন।

 তিনি বলেন, তার স্ত্রীর গর্ভে থাকা শিশুর পা বের হয়ে প্রচন্ড যন্ত্রণার সৃষ্টি হচ্ছিল। হাসপাতালে নেওয়ার পর সিজারিয়ান অপারেশনের জন্য সে সময় কোনো ডাক্তার পাওয়া যায়নি। একপর্যায়ে হাসপাতালের আয়া মোমেনা খাতুন শিশুর পা ধরে টান দেন। এতে শিশুর শরীর বের হলেও মাথা গর্ভে থেকে যায়। হাসপাতালের সেবিকারা জানান, প্রসূতির গর্ভের সন্তানের বয়স হয়েছিল মাত্র ২০ সপ্তাহ, ওজন মাত্র ৩৯৯ গ্রাম। আলট্রাসনোগ্রাম রিপোর্ট অনুযায়ী শিশুটি গর্ভের মধ্যে মৃত অবস্থায় ছিল।

যশোর ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার (আরএমও) আরিফ আহম্মেদ বলেন, গতকাল সকালে ডিএনসির মাধ্যমে প্রসূতির গর্ভে আটকে থাকা শিশু শরীরের অংশ বের করা হয়েছে। তাকে এখনো হাসপাতালে রাখা হয়েছে এবং তিনি সুস্থ আছেন। আরএমও বলেন, হাসপাতালে তত্ত্বাবধায়ক ছুটিতে আছেন। সোমবার (আজ) তিনি এলে এ ব্যাপারে তদন্ত কমিটি করা হতে পারে।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর