শিরোনাম
প্রকাশ : ১৬ জুলাই, ২০২০ ০২:২১
আপডেট : ১৬ জুলাই, ২০২০ ০২:২১

বাংলাদেশ প্রতিদিনে সংবাদ, অতঃপর আদিবাসী নারীর ৩ যমজ সন্তানের পাশে কালীপদ দাস

নাটোর প্রতিনিধি

বাংলাদেশ প্রতিদিনে সংবাদ, অতঃপর আদিবাসী নারীর ৩ যমজ সন্তানের পাশে কালীপদ দাস

গত ২ জুলাই বাংলাদেশ প্রতিদিনে প্রকাশিত নাটোরে আদিবাসী নারী বৃষ্টি পাহানের তিন জমজ শিশুর করুণ কাহিনীর সংবাদ দেখে তাদের পাশে দাঁড়ালেন জাতীয় পদকপ্রাপ্ত ও রাষ্ট্রীয় সম্মানী ভাতাপ্রাপ্ত যুদ্ধাহত বীর মুক্তিযোদ্ধা কালীপদ দাস।

বাচ্চাদের পাশে দাঁড়ানোর জন্য তিনি বাংলাদেশ প্রতিদিন অফিস থেকে নাটোর প্রতিনিধির মোবাইল নাম্বার সংগ্রহ করে  আদিবাসী নারী ও  তিন যমজ সন্তানের খোঁজ খবর নেন। তিনি হুইল চেয়ার নিয়ে চলাফেরা করায় নিজের ছেলে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের উত্তরা জোনের অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার তাপস কুমার দাসকে দায়িত্ব দেন তিন যমজ বাচ্চার জন্য খাবার পাঠানোর জন্য। আর যুদ্ধাহত মুক্তিযোদ্ধা দিলীপ দাস প্রতিদিন কল দিয়ে পরিবারটির খোঁজ খবর নিতে থাকেন।

বুধবার তার পক্ষ থেকে নাটোর সদর থানার পুলিশের পরিদর্শক রফিকুল ও বাংলাদেশ প্রতিদিনের নাটোর প্রতিনিধি নাসিম উদ্দীন নাসিম ঢাকা থেকে পাঠানো বিপুল পরিমাণ দুধ, সুজি, চকলেট, বিস্কুট, চিপস, লাচ্ছা সেমাই, আটা, মসুর ডাল, সয়াবিন তেল, শাড়ি এবং নগদ তিন হাজার টাকা তাদের হাতে তুলে দেন। এ সময় উপস্থিত ছিলেন গণমাধ্যমকর্মী মামুন খান, সাব্বির আহমেদ মিতুল, আদিবাসী প্রধান পরিতোষ সরদার পরিষ্কার।

খাদ্য সামগ্রী পেয়ে আদিবাসী বৃষ্টি পাহান মুক্তিযোদ্ধা কালীপদ দাসের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।

বিডি প্রতিদিন/কালাম


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর