শিরোনাম
প্রকাশ : ১০ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ১৭:০৪
প্রিন্ট করুন printer

গুরুদাসপুরে হয়রানিমূলক মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারের দাবি

নাটোর প্রতিনিধি

গুরুদাসপুরে হয়রানিমূলক মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারের দাবি
Google News

নাটোরের গুরুদাসপুরে ছেলের বাল্যবিবাহ মেনে না নেওয়ায় দায়েরকৃত হয়রানিমূলক মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে সংবাদ সম্মেলন করেছেন ভুক্তভোগী শিক্ষক ও তার পরিবার। আজ সকালে ভুক্তভোগীর নিজ বাসভবনে ওই সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে উপজেলার দড়িকাছিকাটা সরকারি প্রাথমিক প্রধান শিক্ষক শহিদুল ইসলাম বলেন, আমার ২০২১ সালের এসএসসি পরীক্ষার্থী ছেলেকে পারিবারিক কারণে শাসন করলে সে রাগ করে তার নানার বাড়িতে যায়। সেখানে আমার শ্যালক বাটুল কৌশলে তার ৮ম শ্রেণী পড়ুয়া মেয়ের সাথে আমার ছেলেকে জোর করে সাথে বিয়ে দেয়। সেই বিয়ে বাল্যবিবাহ ও কোন রেজিষ্ট্রি না  থাকায় মেনে নিতে অস্বীকার করি।

পরে আমার ছেলে বাড়ীতে চলে আসলে শ্যালক তার মেয়েকে দিয়ে নানা নাটক সাজিয়ে আমাকেসহ পরিবারের ৪ সদস্যদের নামে গুরুদাসপুর আমলী আদালতে মিথ্যা মামলা দায়ের করেন। সেই হয়রানীমূলক মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার ও তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানাই। এসময় অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক সমতিরি সভাপতি শিক্ষক মো. সোরওয়াদী হোসেন, মাসুদুর রহমান ও ভুক্তভোগী শিক্ষকের আসন্ন এসএসসি পরিক্ষার্থী ছেলে। এ সময় এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।  

বিডি প্রতিদিন/আল আমীন

এই বিভাগের আরও খবর