শিরোনাম
প্রকাশ : সোমবার, ২২ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ২১ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ২৩:৪২

বাংলা চর্চা বাড়ছে

এ সুদিন ধরে রাখা চাই

বাংলা পৃথিবীর অন্যতম প্রধান ভাষা। পৃথিবীর প্রায় ২৭ কোটি মানুষের মাতৃভাষা এটি। এক সময় বাংলা ভাষার সীমাবদ্ধতা ছিল বাংলাদেশের পাশাপাশি ভারতের দুটি রাজ্যে। কালের বিবর্তনে এ ভাষা বাংলাদেশ ও ভারতের পশ্চিম বঙ্গ কিংবা ত্রিপুরা ছেড়ে দুনিয়ার বিভিন্ন দেশে ঠাঁই করে নিয়েছে। বাংলা ভাষার মূল কেন্দ্রের বাইরে পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে বসবাস করছে দেড় কোটিরও বেশি বাঙালি। মধ্যপ্রাচ্যের সৌদি আরব, আরব আমিরাত, কাতার, বাহরাইন, কুয়েতসহ আরও কিছু দেশে রাস্তায় বেরোলেই কোনো না কোনো বাঙালির দেখা মেলে। যুক্তরাজ্য ও যুক্তরাষ্ট্রে বাঙালি অধ্যুষিত এলাকার সংখ্যাও কম নয়। মালয়েশিয়া ও সিঙ্গাপুরে কর্মসংস্থানের সুযোগে বিপুল সংখ্যক বাংলাভাষীর বসবাস। দ্বীপ দেশ মালদ্বীপে অবস্থানকারী বিদেশিদের মধ্যে বাংলাভাষীরাই শীর্ষে। অস্ট্রেলিয়া, নিউজিল্যান্ড, কানাডা, ফ্রান্স, জার্মানিসহ ইউরোপেরও বিভিন্ন দেশে বাস করছে হাজার হাজার বাঙালি। জাতিসংঘ শান্তি বাহিনীতে বাংলাদেশের সেনা সদস্যদের অংশগ্রহণের সুবাদে আফ্রিকার অনেক দেশে বাংলা চর্চায় এগিয়ে এসেছে উপকারভোগীরা। শান্তি সেনাদের প্রতি ভালোবাসার বহিঃপ্রকাশে বাংলাকে অন্যতম সরকারি ভাষার মর্যাদা দিয়েছে আফ্রিকার একটি দেশ। বাংলাকে জাতিসংঘের অন্যতম দাফতরিক ভাষা করার দাবিও জোরালো হয়ে উঠেছে কয়েক বছর ধরে। বাংলার এই ঈর্ষণীয় সাফল্য নিশ্চিত হয়েছে বায়ান্নর ভাষা আন্দোলনেরই পথ ধরে। সেদিন ছাত্ররা ঢাকার রাজপথ লাল করেছিল মাতৃভাষার মর্যাদা প্রতিষ্ঠার জন্য। পাকিস্তানি শাসকগোষ্ঠীর বিরুদ্ধে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব যে সংগ্রামের সূচনা করেছিলেন তা কালক্রমে স্বাধীনতার পথ রচনা করে। বিশ্বজুড়ে বাংলা ভাষার চর্চা বৃদ্ধি যে কোনো বাংলাভাষীর জন্য একটি সুখবর। বাংলা চর্চাকে আরও বেগবান করতে সমৃদ্ধ জাতি হিসেবে আত্মপ্রকাশে বাংলাদেশের মানুষকে আরও নিবেদিতপ্রাণ ভূমিকা পালন করতে হবে। বাংলাদেশ যত এগোবে ঠিক ততটুকু এগোবে বাংলা ভাষা।  মাতৃভাষার সুদিনকে ধরে রাখতে হবে।


আপনার মন্তব্য