Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : সোমবার, ২৪ অক্টোবর, ২০১৬ ০০:০০ টা
আপলোড : ২৩ অক্টোবর, ২০১৬ ২৩:১৩

মির্জা ফখরুলের অভিনন্দন

নিজস্ব প্রতিবেদক

মির্জা ফখরুলের অভিনন্দন

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পুনরায় আওয়ামী লীগের সভাপতি এবং ওবায়দুল কাদের দলের সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হওয়ায় বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর অভিনন্দন ও শুভেচ্ছা জানিয়েছেন। তিনি বলেন, বিএনপি আশা করে, গণতন্ত্র ও মানুষের অধিকার ফিরিয়ে দিতে আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক কাজ করবেন। রাজধানীর সেগুনবাগিচায় কচিকাঁচা ভবন মিলনায়তনে গতকাল এক অনুষ্ঠানে মির্জা ফখরুল এ অভিনন্দন জানান। অন্যদিকে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য লেফটেন্যান্ট জেনারেল (অব.) মাহবুবুর রহমান আওয়ামী লীগের নতুন কমিটিকে স্বাগত জানিয়ে বলেন, ‘আশা করি এবার তাদের শুভবুদ্ধির উদয় হবে। তারা দেশের গণতন্ত্র ও মানুষের অধিকার ফিরিয়ে দেবেন। এ জন্য তারা সত্যিকারের উদ্যোগ নেবেন।’ গতকাল বাংলাদেশ প্রতিদিনের সঙ্গে আলাপকালে এ প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেন সাবেক এই সেনাপ্রধান। আওয়ামী লীগের নবনির্বাচিত দুই শীর্ষ নেতার সাফল্যও কামনা করেন তিনি। এ সময় রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন মিলনায়তনে আওয়ামী লীগের ২০তম জাতীয় সম্মেলনের দ্বিতীয় দিনে ঘোষণা করা হয় ওই দুই শীর্ষ নেতার নাম। এ তথ্য জানার পর তাত্ক্ষণিক এক প্রতিক্রিয়ায় বিএনপি মহাসচিব আওয়ামী লীগের এই দুই শীর্ষ নেতাকে অভিনন্দন জানান। তবে এ সময় তিনি হতাশা ব্যক্ত করে বলেন, ‘আমরা আশা করেছিলাম আওয়ামী লীগের সম্মেলন থেকে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠার জন্য কোনো দিকনির্দেশনা আসবে। কিন্তু তা হয়নি।’ আওয়ামী লীগের নতুন কমিটি সম্পর্কে ফখরুল সাংবাদিকদের বলেন, ‘আমি তাদের অভিনন্দন জানাচ্ছি, শুভেচ্ছা জানাচ্ছি। একই সঙ্গে এই প্রত্যাশাও করছি, জাতির যে আশা, জাতির যে আকাঙ্ক্ষা, গণতন্ত্র ফিরিয়ে দেওয়া, মানুষের অধিকার ফিরিয়ে দেওয়া, এর জন্যও তারা কাজ করবে।’ বিশিষ্ট চলচ্চিত্র ব্যক্তিত্ব চাষী নজরুল ইসলামের ৭৫তম জন্মদিন উপলক্ষে জাতীয়তাবাদী সাংস্কৃতিক জোট এ আলোচনা সভা ও প্রামাণ্য চলচ্চিত্র প্রদর্শনীর আয়োজন করে। একই সময় আওয়ামী লীগের ২০তম জাতীয় সম্মেলনের দ্বিতীয় দিন রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশনে দলটির সভাপতি পদে নতুন করে নির্বাচিত হন শেখ হাসিনা এবং সাধারণ সম্পাদক পদে ওবায়দুল কাদের। নির্বাচনী অধিবেশনে সৈয়দা সাজেদা চৌধুরী সভাপতি পদে শেখ হাসিনার নাম প্রস্তাব করেন। নির্বাচন কমিশনার ইউসুফ হোসেন হুমায়ুন এ পদে আর কোনো নাম প্রস্তাব না পাওয়ায় শেখ হাসিনাকে আওয়ামী লীগের সভাপতি হিসেবে ঘোষণা করেন। অন্যদিকে আগের কমিটির সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম সাধারণ সম্পাদক হিসেবে ওবায়দুল কাদেরের নাম প্রস্তাব করলে তাতে সমর্থন জানান জাহাঙ্গীর কবির নানক। এ পদেও বিকল্প কোনো নামের প্রস্তাব না আসায় সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরকে সাধারণ সম্পাদক পদে নির্বাচিত ঘোষণা করেন নির্বাচন কমিশনার ইউসুফ হোসেন হুমায়ুন।


আপনার মন্তব্য